'সচল মহারাজ, আজ এই-ই আমার নতুন'

ফারুক ওয়াসিফ এর ছবি
লিখেছেন ফারুক ওয়াসিফ (তারিখ: মঙ্গল, ১০/০৬/২০০৮ - ১২:৪৩পূর্বাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

কুণ্ঠা ও কিছুটা লাজ নিয়াই 'সচল খোমা' অর্থাত গতিশীল চিত্র হইয়া হাজির হইলাম। এ বিষয়ে ফকির ইলিয়াস একখানা পোস্টাইছেন বিধায় আমার দায়দায়িত্ব কিছুটা কমে। এক ইয়ার বাণী দিয়াছে, রেকর্ড রাখাই নাকি আত্মপ্রচার। কথাটা না মানিয়া যাই কই? পত্র কিংবা ডায়রি লিখনও তো আমিত্বেরই বিস্তার? তাই-ই বোধহয় করিয়া যাইতেছি। আর পাটাতন যখন ব্লগ তখন কিছুটা আত্মপ্রকাশ করিতে দোষ কি? সংবাদপত্র বা টেলিভিশন একমুখী, ব্লগ দ্বিমুখী মিডিয়া। পাঠিকাগণ চাইলে এইখানে লেখককে মাইনকা চিপাও দিতে পারে, আবার মগডালে উঠাইয়া নানার বাড়িও দেখাইয়া দিতে পারে। যাই হোক, এ বিষয়ে মহামতি গোপাল ভাঁড়ের একখানা রসালাপ মনে আসে। তাহা বলিয়াই মজলিশ ভাঙ্গিব।
মাহারাজ কৃষন চন্দের সহিত গোপালের বাঁধা চুক্তি যে, রোজ নতুন একখানা রসিকতা সে করিবেই। নইলে চাকুরি নট। তো একদিন গোপালের আর কোনো ফিকিরই মাথায় আসে না। দেশে তখন হাঁটুতে বুদ্ধি জমাইবার সময়। তো যাহাদের হাঁটুর চাকি খুব মজবুত আর তাহার তলে প্রকাণ্ড মগজ, তাহারাও কোনো বুদ্ধির তালাশ না দিলে গোপাল ফি সাবিলিল্লাহ বলিয়া সামনে যাহাকে পাইল তাহাকেই ধরিল।
ধরা পড়া বেচারাটি এক মুটে। গোপাল তাহার ঝাঁকার ওপর চড়িয়া বসিয়া কহে, 'রাজবাটি চল'। এই করিয়া গোপাল মুটের মাথায় ঝাঁকাসীন হইয়া মহারাজের দরবারে দেখা দিল।
গোপাল দর্শনে মহারাজ তো হেঁসেই কুটি কুটি। বলে, 'গোপাল তোমার এ কি হাল!' গোপাল বুঝে উদ্দেশ্য সিদ্ধ হইয়াছে। সেইখানেই সিদ্ধিতে ফুঁক দিয়া খোশদিলে সে ঢেঁড়া পিটায়,
'মহারাজ, আজ এই আমার নতুন'।
তো আমিও বলি, 'সচল মহারাজ, আজ এই-ই আমার নতুন'।

একটু পরেই ভিডিও আসিবেক। ততক্ষণ আমাদের সঙ্গেই থাকুন!


মন্তব্য

মাহবুব লীলেন এর ছবি

পুরোটাই মাথার উপর দিয়ে গেছে
কী বলতে চান বাংলায় বলেন

ফারুক ওয়াসিফ এর ছবি

ইউটিউবে ভিডিও আপলোড হইতেছে। হইলে লিংক দিব। তাহারা জানাইয়াছে,
'PLEASE BE PATIENT—THIS MAY TAKE SEVERAL MINUTES. ONCE COMPLETED, YOU WILL SEE A CONFIRMATION MESSAGE.'

হাঁটাপথে আমরা এসেছি তোমার কিনারে। হে সভ্যতা! আমরা সাতভাই হাঁটার নীচে চোখ ফেলে ফেলে খুঁজতে এসেছি চম্পাকে। মাতৃকাচিহ্ন কপালে নিয়ে আমরা এসেছি এই বিপাকে_পরিণামে।

সুমন চৌধুরী এর ছবি
স্পর্শ এর ছবি

তাইতো মাথার উপর দিয়ে গেল ! ইয়ে, মানে...
[][][][][][][][][][][][][][][][][][]
ওরে বিহঙ্গ, ওরে বিহঙ্গ মোর,
এখনি, অন্ধ, বন্ধ, কোরো না পাখা।


ইচ্ছার আগুনে জ্বলছি...

স্নিগ্ধা এর ছবি

বুঝলাম, আপনার কোন এক সাম্প্রতিক সাক্ষাৎকার ভিডিওর হাত ধরে আসবে, এই তো? তো তাতে এত ইতঃস্তত কেন ?
আসতে আজ্ঞা হউক ? হাসি

মন্তব্য পোস্ট করতে করতেই দেখি আপনি ইউটিউবের কথা লিখেছেন। দেখি অপেক্ষা করে.........

ফারুক ওয়াসিফ এর ছবি

ভেবেছিলাম, আপলোড হতে মিনিটখানেক লাগবে, তারপরে সম্পাদনায় গিয়ে লিংকটা দিয়ে দেব। এখন দেখি, আপলোড হচ্ছে তো হচ্ছেই।
এটি মফস্বল বিষয়ে আমার আর আজফার হোসেনের একটি কথোপকথন। এটা দেখে কবি ফকির ইলিয়াস একটা পোস্ট দিয়েছিলেন কয়েকদিন আগে। সেখানে বেশ ক'জন আগ্রহ প্রকাশ করেছিলেন সেটি দেখার। এর হেতু সেটাই। ক্যাটেগরির ঘরে তারই আভাস দেয়া আছে।

হাঁটাপথে আমরা এসেছি তোমার কিনারে। হে সভ্যতা! আমরা সাতভাই হাঁটার নীচে চোখ ফেলে ফেলে খুঁজতে এসেছি চম্পাকে। মাতৃকাচিহ্ন কপালে নিয়ে আমরা এসেছি এই বিপাকে_পরিণামে।

দ্রোহী এর ছবি

হাটুর নিচ দিয়েই যাচ্ছিল, তবে ক্যাটাগরি দেখে টেনে মাথায় আনতে পারলাম। দেঁতো হাসি


কি মাঝি? ডরাইলা?

ফারুক ওয়াসিফ এর ছবি

ভাগ্যিস! নইলে তো আপনার গুলিতে আমার হাঁটুর গিরা চুরমার হতো। ভাবছি, এখনই হাঁটুতে হেলমেট পরে থাকি!!!

হাঁটাপথে আমরা এসেছি তোমার কিনারে। হে সভ্যতা! আমরা সাতভাই হাঁটার নীচে চোখ ফেলে ফেলে খুঁজতে এসেছি চম্পাকে। মাতৃকাচিহ্ন কপালে নিয়ে আমরা এসেছি এই বিপাকে_পরিণামে।

সৈয়দ আখতারুজ্জামান এর ছবি

সেই জন্যই এতোক্ষন চুপচাপ ছিলাম। এই বার বুঝছি।

মাহবুব লীলেন এর ছবি

যা যা বলেছেন তা লিখে এইখানে দিয়ে দেন
কারণ আমাদের ইন্টারনেট ভাঙাচোরা গলি রাস্তা দিয়ে ধুক্কুর ধুক্কুর করে রিকশায় চলাচল করে
আপনার ইউটিউবের কাভার্ড ভ্যান এইসব রাস্তা পার হতে গেলে কয়েক শতাব্দি লেগে যাবে

ধুসর গোধূলি এর ছবি
ফারুক ওয়াসিফ এর ছবি

ভাবছিলাম পালামু। বেবাকটে ঘুমাই গেলে পরে আসুম। আপনি আবার নতুন মুশকিল বাজাইলেন। আজ রাতে ইউটিউবের শয্যাপাশে বায়েজিদ বোস্তামীর মতো না দাঁড়াইয়া দেখি ছাড়ান নাই। নো পাসারান ইয়া হাবিবি!

হাঁটাপথে আমরা এসেছি তোমার কিনারে। হে সভ্যতা! আমরা সাতভাই হাঁটার নীচে চোখ ফেলে ফেলে খুঁজতে এসেছি চম্পাকে। মাতৃকাচিহ্ন কপালে নিয়ে আমরা এসেছি এই বিপাকে_পরিণামে।

মাহবুব লীলেন এর ছবি

আপনি যদি বাংলাদেশে বসে ইউটিউবে আপলোড করার চেষ্টা করেন তাহলে আমাদের আগামী জাতীয় নির্বাচনের আগেই আপানর ইন্টারভিউটা আপলোড হয়ে যাবে কনফার্ম

নো চিন্তা
নবম সংসদ নির্বাচনে ভোট দিয়ে এসে ছবিসহ জাতীয় পরিচয়পত্র হাতে নিয়ে সচলায়তনে আপনার ইন্টারভিউ দেখতে পারবো
(এনশাল্লা)

ফারুক ওয়াসিফ এর ছবি

সংবাদপত্র বা টেলিভিশন একমুখী, ব্লগ দ্বিমুখী মিডিয়া। পাঠকগণ চাইলে এইখানে লেখককে মাইনকা চিপাও দিতে পারে, আবার মগডালে উঠাইয়া নানার বাড়িও দেখাইয়া দিতে পারে।

একেকটা বাক্য যেন খরশানসম বিঁধিছে বুকে। আঙ্গুরি তামাকু পিলাও! মনে হয়, নানা বাড়ি নয়, নানার মেসোবাড়িও দেখতেছি!

হাঁটাপথে আমরা এসেছি তোমার কিনারে। হে সভ্যতা! আমরা সাতভাই হাঁটার নীচে চোখ ফেলে ফেলে খুঁজতে এসেছি চম্পাকে। মাতৃকাচিহ্ন কপালে নিয়ে আমরা এসেছি এই বিপাকে_পরিণামে।

মাহবুব লীলেন এর ছবি

আপনার ইন্টারভিউটা দুর্দান্ত হয়েছে
ওই যে ওই কথাটা বললেন; ওটা কিন্তু বলার সাহস সবার থাকে না
আর এটা তো আপনি ছাড়া এ পর্যন্ত কেউ বুঝতেই পারেনি
তাছাড়া ওমুক বিষয়টাকে আপনি যেভাবে হাইলাইট করলেন তাতে তমুকের প্রতি আপনার সংবেদনশীলতাই ফুটে উঠেছে
আর ইয়েটাতো অসাধারণ। তুলনাই হয় না

(আপনার চেহারাখান দেখার জন্য বিশবার এই পোস্টে উঁকি মেরে মনে মনে ইন্টারভিউটা দেখে প্রফেশনাল রিভিউবাজদের প্রশংসা ফর্মেট ধার করে প্রশংসা করে গেলাম)

আশা করি বিটিভিতে নবম জাতীয় সংসদের শেষ অধিবেশ দেখার আগে আপনার ইন্টারভিউটা দেখতে পাবো....

(যান আপনিও ঘুমিয়ে পড়েন। ইউটিউবের লোকজন পাহারা দেবে আপনার ইন্টারভিউ)

ফারুক ওয়াসিফ এর ছবি

আপনার তো হয়েই গেছে। যান এবার ঘুমান। আপনি ঘুমালে আমিও নিশ্চিন্তে ঘুমাতে পারি। আপনার ভয়েই তো জেগে আছি এই কালরাত্রিতে!

হাঁটাপথে আমরা এসেছি তোমার কিনারে। হে সভ্যতা! আমরা সাতভাই হাঁটার নীচে চোখ ফেলে ফেলে খুঁজতে এসেছি চম্পাকে। মাতৃকাচিহ্ন কপালে নিয়ে আমরা এসেছি এই বিপাকে_পরিণামে।

ধুসর গোধূলি এর ছবি

- হ ঠিকাছে। আমি ঘুম থাইকা উইঠা আপনেরে জিগামুনে, "সারা রাতি ধরি রহিছো খাড়ায়ে, এন্টারভিউ আপ হয় নাই বাছা?"
___________
চাপা মারা চলিবে
কিন্তু চাপায় মারা বিপজ্জনক

ফারুক ওয়াসিফ এর ছবি

বাবা ভোলানাথ, আজ তয় থাক?

হাঁটাপথে আমরা এসেছি তোমার কিনারে। হে সভ্যতা! আমরা সাতভাই হাঁটার নীচে চোখ ফেলে ফেলে খুঁজতে এসেছি চম্পাকে। মাতৃকাচিহ্ন কপালে নিয়ে আমরা এসেছি এই বিপাকে_পরিণামে।

ধুসর গোধূলি এর ছবি
অতিথি লেখক এর ছবি

সাধু! সাধু! উড়াও তোমার বিজয় ধ্বজা
পড়ে থাক আস্তাকুড়ে অচল-লুলা-খোঁজা!
-জুলিয়ান সিদ্দিকী

হাসান মোরশেদ এর ছবি

' প্রতীক্ষাতে প্রতীক্ষাতে সুর্য ডোবে রক্তপাতে' চোখ টিপি
-------------------------------------
বালক জেনেছে কতোটা পথ গেলে ফেরার পথ নেই,
-ছিলো না কোন কালে;

-------------------------------------
জীবনযাপনে আজ যতো ক্লান্তি থাক,
বেঁচে থাকা শ্লাঘনীয় তবু ।।

সুমন সুপান্থ এর ছবি

' যে ছবি টা আসার কথা আসে নি ! ' না ?

---------------------------------------------------------
নীল সার্ট নেই বলে কেউ আমাকে নাবিক বলেনি !
অথচ সমুদ্রে-ই ছিলাম আমি

---------------------------------------------------------
তুমি এসো অন্যদিন,অন্য লোক লিখবে সব
আমি তো সংসারবদ্ধ, আমি তো জীবিকাবদ্ধ শব !

ফারুক ওয়াসিফ এর ছবি

এই হইল ঘটনা!

হাঁটাপথে আমরা এসেছি তোমার কিনারে। হে সভ্যতা! আমরা সাতভাই হাঁটার নীচে চোখ ফেলে ফেলে খুঁজতে এসেছি চম্পাকে। মাতৃকাচিহ্ন কপালে নিয়ে আমরা এসেছি এই বিপাকে_পরিণামে।

দ্রোহী এর ছবি

বস। আপলোড শ্যাষ হয় নাই?


কি মাঝি? ডরাইলা?

ফারুক ওয়াসিফ এর ছবি

নারে ভাই, এরেই কয় ফাপোর।
আজ ঘুমাই, কাল দেখুমনে। গতকালও সচলাস্তানে তাহাজ্জুদ পড়িয়া রাত কাটছে। দেখি সকাল কোন মুখ নিয়া আসে!

হাঁটাপথে আমরা এসেছি তোমার কিনারে। হে সভ্যতা! আমরা সাতভাই হাঁটার নীচে চোখ ফেলে ফেলে খুঁজতে এসেছি চম্পাকে। মাতৃকাচিহ্ন কপালে নিয়ে আমরা এসেছি এই বিপাকে_পরিণামে।

ফকির ইলিয়াস এর ছবি

জয় ইউ টিউব। আমি এই তন্ত্রটা আজো শিখতে পারলাম না।
ফারুক ওয়াসিফ তো চেষ্টা করেছেন ! হয়ে যাবে ।
আবার দেখার আশায় রইলাম।

অতিথি লেখক এর ছবি

অপেক্ষায় থাকলাম।

পরশ পাথর

মুজিব মেহদী এর ছবি

অপেক্ষায় অপেক্ষায় ফুরালো রাত
এবার দেখি দিনটাও কাত।

আপনাদের সবার সঙ্গে জামাতে আমিও জাগছিলাম, আপনারা ঘুমাতে গেলে আমিও ঘুমাতে গেছি। অবশ্য রাতে আপলোড না হয়ে একঅর্থে ভালোই হয়েছে, সেক্ষেত্রে পিসি থেকে উঠেই অফিসে আসতে হতো। ঘুম হতো বরবাদ। আহা, এত যে নেটস্পিড আমাদের!

দিন ফুরাবার আগেই আসুক, এবার দেখেই ছাড়ব।
................................................................
আমার সমস্ত কৃতকর্মের জন্য দায়ী আমি বটে
তবে সহযোগিতায় ছিল মেঘ : আলতাফ হোসেন

... ... ... ... ... ... ... ... ... ... ... ... ... ... ... ... ... ...
কচুরিপানার নিচে জেগে থাকে ক্রন্দনশীলা সব নদী

এস এম মাহবুব মুর্শেদ এর ছবি

গুরু অপেক্ষায় থাকলাম।

====
চিত্ত থাকুক সমুন্নত, উচ্চ থাকুক শির

ফারুক ওয়াসিফ এর ছবি

অপেক্ষায় অপেক্ষায় আমিও নাজির হইয়া আছি। কাল রাতে আপলোড কমান্ডে পিসি জাগ্রত রেখে আমি ঘুমাতে গেছি। এখন অফিসে পিসি সমান জাগ্রত, কিন্তু আমার ঘুম আসে।
৭৮১ মেগাবাইট তুলতে এই কাণ্ড। কোন কুক্ষণেই না এই দুর্মতি হইছিল। এখন সবাই আমারে সান্তনা দেন।

হাঁটাপথে আমরা এসেছি তোমার কিনারে। হে সভ্যতা! আমরা সাতভাই হাঁটার নীচে চোখ ফেলে ফেলে খুঁজতে এসেছি চম্পাকে। মাতৃকাচিহ্ন কপালে নিয়ে আমরা এসেছি এই বিপাকে_পরিণামে।

পলাশ এর ছবি

ফারুক ওয়াসিফ ভাই
আগে লিঙ্ক দেন
পরে সান্তনা নেন

ফারুক ওয়াসিফ এর ছবি

নানান খোঁজখবর এবং প্রায় ১২/১৪ ঘন্টার গুতাগুতির পর এই বুঝেছি সার, ৭৮১ মেগাবাইটের ভিডিও ফাইল আপলোডের চেষ্টা পুরোটাই অসার। লীলেন ভাই তখন বলেছিলেন, বুঝি নাই। এখন বুঝলাম। এখন আর কেবল সান্তনা নয় ভাই, দায়মুক্তি চাই। বিশ্বব্যাংক, অমুক তমুক বাহিনী পাইলে আমি পাব না ক্যান?

হাঁটাপথে আমরা এসেছি তোমার কিনারে। হে সভ্যতা! আমরা সাতভাই হাঁটার নীচে চোখ ফেলে ফেলে খুঁজতে এসেছি চম্পাকে। মাতৃকাচিহ্ন কপালে নিয়ে আমরা এসেছি এই বিপাকে_পরিণামে।

সুমন চৌধুরী এর ছবি

উপায় এখনো আছে। আশাহত হইবেন না। ৭৮১ কে ভাঙ্গিয়া টুকরা চারেক বা পাঁচেক করা সম্ভব। তবে ভাঙিবার বিদ্যা আমার আয়ত্বে নাই। এই বিষয়ে ব্লগের আইটি বিশেষজ্ঞরা আলোকপাত করিতে পারেন.......



ঈশ্বরাসিদ্ধে:

ফারুক ওয়াসিফ এর ছবি

এরকম অবস্থার ফ্যারে শুলে চড়িয়াও সময়মতো প্রক্রিয়াজাত না হওয়ার ব্যাদনায় যীশুখ্রীস্ট ফুকারিয়া উঠিয়াছিলেন, 'ইলয়, ইলয়, লামা সাবাখথানি', এখন আইটির ডিজিটাল ঈশ্বরদের বলিতে চাহি, 'হে ঈশ্বর তুমি কি আমায় পরিত্যাগ করিয়াছ?'

হাঁটাপথে আমরা এসেছি তোমার কিনারে। হে সভ্যতা! আমরা সাতভাই হাঁটার নীচে চোখ ফেলে ফেলে খুঁজতে এসেছি চম্পাকে। মাতৃকাচিহ্ন কপালে নিয়ে আমরা এসেছি এই বিপাকে_পরিণামে।

সুলতানা পারভীন শিমুল এর ছবি

আহারে !
যদিও বাঙ্গালীদের জন্য এটা কোন সমস্যাই না।
দোষ তো টেকনোলজির...আপনি কি করবেন?

...........................

সংশোধনহীন স্বপ্ন দেখার স্বপ্ন দেখি একদিন

...........................

একটি নিমেষ ধরতে চেয়ে আমার এমন কাঙালপনা

ফারুক ওয়াসিফ এর ছবি

কোনটা সমস্যা না শিমুল, শুলে চড়া না টেকনোলজি বিভ্রাট?

হাঁটাপথে আমরা এসেছি তোমার কিনারে। হে সভ্যতা! আমরা সাতভাই হাঁটার নীচে চোখ ফেলে ফেলে খুঁজতে এসেছি চম্পাকে। মাতৃকাচিহ্ন কপালে নিয়ে আমরা এসেছি এই বিপাকে_পরিণামে।

সুলতানা পারভীন শিমুল এর ছবি

টেইক ইট ইজি, ম্যান।
কোনোটাই সমস্যা না।
ইয়া হাবিবি...

...........................

সংশোধনহীন স্বপ্ন দেখার স্বপ্ন দেখি একদিন

...........................

একটি নিমেষ ধরতে চেয়ে আমার এমন কাঙালপনা

ফারুক ওয়াসিফ এর ছবি

মেয়ে বলে কি? শূলে চড়া নাকি সমস্যা না? আপনারা সাক্ষি, কয় কি?অ্যাঁ !

হাঁটাপথে আমরা এসেছি তোমার কিনারে। হে সভ্যতা! আমরা সাতভাই হাঁটার নীচে চোখ ফেলে ফেলে খুঁজতে এসেছি চম্পাকে। মাতৃকাচিহ্ন কপালে নিয়ে আমরা এসেছি এই বিপাকে_পরিণামে।

ধ্রুব হাসান এর ছবি

@ওয়াসিফ
নাক গলানোর জন্য দুঃখিত। আপনার ভিডিও ফাইলটি কি অরিজিন্যালি ৭৮১ মেগাবাইটের (ডিউরেশন কত?)? তাই যদি হয় তবে Windows Movie Maker দিয়ে তা ২০০ মেগাবাইটের নীচে নামিয়ে আনা সম্ভব (তেমন কোন কোয়ালিটি লস না করে); আর তাতেও যদি আপলোড হতে অনেক বেশী সময় লাগে তো ভিডিওটার স্ক্রিন সাইজ (৭২০-৫৭৬) থেকে ছোট করেও নানা ফরমেটে (avi, wmv, mpeg2/4, quick time,এমন কি flash movie-ও করে দেখতে পারেন) সেইভ করে দেখতে পারেন সাইজ কত গিয়ে দাড়াঁয়! তবে আমার মনে হয় ২০০-র নীচে নামলেই আপলোড হতে বেশী সময় নেবে না।
(ভালো কথা Windows Movie Maker Windows -এর সাথে ফ্রি দেয়া হয়, ইনষ্টল করা না থাকলে আপগ্রেড করে নিতে পারেন)

(বিঃদ্রঃ ইতিমধ্যেই এসব সেড়ে ফেল্‌লে মন্তব্যটা যাষ্ট ইগনোর করবেন আশা করি। ধন্যবাদ।)

ফারুক ওয়াসিফ এর ছবি

না ভাই ধ্রুব, ঘোল যা খেয়েছি তাতে আপনি বরং বগুড়ার দইয়ের খবর দিলেন। কোম্পানি মারফত (একটা প্রোডাকশন হাউসের এক বন্ধু নিজের গরজে এটা ক্যাপচার করেছিল) জানলাম, ওরা নিজেরাই এখন ওটা আপলোড করছে ইউটিউবে। ডিভিডি ফরম্যাটে ছিল ১২ মিনিট। তাও আবার র অবস্থায়। তাই এত বড় ছিল। এইটুকু কথা যদি গতকাল বলতেন, তাহলে গতরাতে ঘুমাতে পারতাম, আর আজ দিলখোশ ঘুরে বেড়াতাম। কী আর করা যাবে, আমার মতো ব্যাক্কেলের একটু ছেঁচা খাওয়া দরকার ছিল। তবে এখন এ বিষয়ে জ্ঞান অনেক বেড়েছে। আমি আবার ছেঁচা না খেয়ে কিছু শিখি না, কিনা!

হাঁটাপথে আমরা এসেছি তোমার কিনারে। হে সভ্যতা! আমরা সাতভাই হাঁটার নীচে চোখ ফেলে ফেলে খুঁজতে এসেছি চম্পাকে। মাতৃকাচিহ্ন কপালে নিয়ে আমরা এসেছি এই বিপাকে_পরিণামে।

ধ্রুব হাসান এর ছবি

ভাই আমি একটু আগে কাজ করে এসে ৩ ঘন্টার জন্য ঘুমোতে যাব ভাবছিলাম, কারন ঘুম থেকে উঠে আবার সারা রাতের জন্য কাজ নিয়ে বসতে হবে পিসি সামনে; এর মাঝে পিসিটা অন গিয়ে সচলে এসে দেখি এই কান্ড! গতকাল যদি একবারের জন্যও সচলে ডুকতে পারতাম তো তখনি বলতাম; সরি রে ভাই অসময়ে মন্তব্যের জন্য।

(বিঃদ্রঃ ডিভিডি ফরম্যাট থাকলে কনভার্ট করা যায় আবার নানা ভাবে। আপনি একবার করে দেখতে পারেন, তাতে লাভের লাভ হবে ভবিষ্যতে আর না ঘুমিয়ে থাকতে হবে না। cheers)

ফারুক ওয়াসিফ এর ছবি

যাক, ব্যাপার না!

হাঁটাপথে আমরা এসেছি তোমার কিনারে। হে সভ্যতা! আমরা সাতভাই হাঁটার নীচে চোখ ফেলে ফেলে খুঁজতে এসেছি চম্পাকে। মাতৃকাচিহ্ন কপালে নিয়ে আমরা এসেছি এই বিপাকে_পরিণামে।

সৈয়দ নজরুল ইসলাম দেলগীর এর ছবি

সেদিন তো দেখা হইলো না... আপনার এই পোস্ট দেইখা তাও আশা করছিলাম আপনার খোমামুখটা একবার দেখবো... কিন্তু আপনে তো দেখি প্রেমিকাদের চেয়েও সরেস... আসি আসি বলে তুমি আর এলেনা টাইপ...
প্রডাকশন হাউজে রেকর্ড করলে তো আরো সুবিধা... এইটারে এডিট করেন... এখন তো ঘরে ঘরে প্রিমিয়ারে কাটাছেঁড়া করা যায়...
______________________________________
পথই আমার পথের আড়াল

______________________________________
পথই আমার পথের আড়াল

ফারুক ওয়াসিফ এর ছবি

হ্যাঁ সিস্টেম করার পর আপলোড করার পর দেখা গেল হাউটিউব ১০ মিনিটের ওপরে হজম করে না, অতএব আবারো কাটাকুটি চলছে। দেখা যাক...আমার আর মনে হয় না এর কোনো শেষ আছে...এই পোস্টকে তাই বিজ্ঞাপন ধরতে পারেন, যেই পণ্য কখনো বাজারে আসে নাই...তার। তাই না?

হাঁটাপথে আমরা এসেছি তোমার কিনারে। হে সভ্যতা! আমরা সাতভাই হাঁটার নীচে চোখ ফেলে ফেলে খুঁজতে এসেছি চম্পাকে। মাতৃকাচিহ্ন কপালে নিয়ে আমরা এসেছি এই বিপাকে_পরিণামে।

সৈয়দ নজরুল ইসলাম দেলগীর এর ছবি

এই বস্তু ব্লগে নাজেল হইলে তো দেখনের খায়েশ হইতো... তখন আমাদের অবস্থাটা কি হইতো ভাবেন? সারারাইত ডাউনলোড করতেই লাগতো...
বাঁচাইছেন... ডিভিডি যেহেতু আপনার হেফাজতে আছে... এই বস্তু আমি দেইখাই ছাড়বো... আপনার সাথে অচিরেই দেখা করবো প্রয়োজনে... অবশ্য মানিক ভাইয়ের সাথে একটা ষড়যন্ত্রও করছি... আওয়াজ দিমুনে কয়দিন পরে...
______________________________________
পথই আমার পথের আড়াল

______________________________________
পথই আমার পথের আড়াল

নন্দিনী এর ছবি

শেষ পর্যন্তও দেখতে চাই,অপেক্ষায় থাকলাম।ঃ)

নন্দিনী

নতুন মন্তব্য করুন

এই ঘরটির বিষয়বস্তু গোপন রাখা হবে এবং জনসমক্ষে প্রকাশ করা হবে না।
Image CAPTCHA