ল্যাটকা খিচুড়ি

সুমন চৌধুরী এর ছবি
লিখেছেন সুমন চৌধুরী (তারিখ: সোম, ০১/১০/২০০৭ - ৩:০৫অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

পিয়াজ কাইট্যা লন গোটা দুয়েক, তিনেকও হইতে পারে সাইজ অনুসারে। রসুন ২/৩ কোয়া কুচি কুচি। মরিচ ৫/৬টা (অ্যান্টি ঝাল হইলে সুবিধামত)। হলুদ, ধনিয়া(বাটা অথবা গুড়া)।
হাড়িতে ২ চা চামচ মাখন দিয়া অল্প আঁচে গলান। (তেল হইলেও অসুবিধা নাই তবে মাখনে মজা বেশী ।) তারপর পিয়াজ দিয়া একটু লাড়েন,লবণ দিয়েন একটু পিয়াজের উপর, তারপর কাঁচা মরিচ ফাইরা দেন, তারপর রসুন। মিনিট খানেক লাড়াচাড়া কইরা ধনিয়া আর হলুদ দেন (লাল মরিচের গুড়া আমি খাই না )। লাড়তে থাকেন । লাড়তে লাড়তে ডাইল দেন একটু বেশী কইরা(মুগ মসুর মিলাইয়া দিতে পারেন, তবে শুধু মসুরেই বেশী মজা লাগে আমার) ডাইল যা দিলেন তার অর্ধেকের অর্ধেক বাসমতি চাইল আর অন্য ছোট চাইল দেন । আরও মিনিট খানেক লাড়েন।

তারপর পানি দেন ডেগচির গলা পর্যন্ত । বইসা থকেন বলক আসা পর্যন্ত। বলক আসার লগে লগে দুই কোয়া বা এক কোয়া রসুন ফাইরা দিয়া দেন । তারপর মাঝে মাঝে লাড়া দিতে থাকেন যাতে লাইগা না যায় ।
বাসমতি চাইল লম্বা হইতে শুরু করলে লাড়া বাড়াইয়া দেন ।এমনে মিনিট দশেক চালান..লাড়েন
আর চাখেন....নামানোর আগে ইচ্ছা করলে আরো মারচ দিতে পারেন । তবে যেইটা করলে জম্পেশ হবে: একটু পিয়াজ কুচি কড়া ভাইজা..একটু পুড়লে অসুবিধা নাই... অল্প তেল সহ খিচুড়ির উপর ছড়াইয়া দেন..তার পর..ডিম ভাজা অথবা..ভুনা গরু,খাসী,ভেড়া.....অথবা মুরগী দিয়া...
গুটেন আপেটিট!!!!!!

বি:দ্র: পুরা প্রক্রিয়াটাই মাঝারি থিকা অল্প আঁচে এবং ঢাকনা ছাড়া....আর এইটা এক্কেরেই আমার মতো আনাড়ি পাচকদের জন্য...টেকনোক্র্যাট রাধুনিরা আইডিয়া যোগবিয়োগ করতারেন.....


মন্তব্য

টুটুল এর ছবি

বস... ইফতার এর পর ছবিটা দিয়েন... নাইলে কষ্ট বাড়বো মন খারাপ
___________________________
"Intelligence is like an underwear. It is important that you have it, but not necessary that you show it........"

আনোয়ার সাদাত শিমুল এর ছবি

সিদ্দিকা কবীরের ক্যারিয়ার শেষ!
হাসি

তিথি এর ছবি

ইহা ঠিক নহে বাহে। এই মহিলার বই ছাড়া কোন মেয়ে রান্নার পাট শুরু করে? আমি তো এই যুগের কাউরে দেখি না!

তবে বদ্দা, পুরুষকুলের ভরসা হইতে পারেন। মনে হচ্ছে ভালোই এক্সপার্ট হয়ে গেছেন। দেঁতো হাসি

আনোয়ার সাদাত শিমুল এর ছবি

সিদ্দিকা কবীরের বই পড়ার আগে মসলাপাতি নিয়ে আলাদা কোর্স করতে হয়। অনেকটা আর্ট ফিল্ম দেখার আগে চলচ্চিত্রবোধন কর্মশালায় অংশ নেয়ার মতো ব্যাপার।
সেই তুলনায় বদ্দার রেসিপি একেবারে সহজ - 'অজগর আসছে তেড়ে, আমটি আমি খাবো পেড়ে'। বদ্দারে পাঁচে ৫।

তিথি এর ছবি

ওই, আমি মসলার কোর্স ছাড়াই শুরু করসি! প্রথম দিকের চ্যাপ্টার না পড়লেই তো হয়। ধর তক্তা মার পেরেক সিস্টেম।

তবে বদ্দারে পাঁচে পাঁচ। এইটা ঠিক।

আনোয়ার সাদাত শিমুল এর ছবি

হাসি রাইট।
আমার থিয়রী ছিল, 'কিছু একটা হয়ে যাবে'। পেরেক মারার উদাহরণ ঠিকাছে।

অরূপ এর ছবি

রমজান মাসে এহেন পোস্ট ব্যান করার দাবি উঠতে পারে। সুমন চৌধুরী আর তার বেড়ালকে ব্যান করা হউক!
-------------------------------------
রামছাগলের সামনে, খচ্চরের পেছনে আর নির্বোধের ধারেকাছে না থাকাই শ্রেয়!

সুমন চৌধুরী এর ছবি

বেড়াল?



ঋণম্ কৃত্বাহ ঘৃতম্ পীবেৎ যাবৎ জীবেৎ সুখম্ জীবেৎ

জ্বিনের বাদশা এর ছবি

এরপর কাচ্চি বিরানীরটা মারেন ....
একবার সাত-আটজন ব্যাচেলাররে ডাকলাম , আমি নিজেও তখন ব্যাচেলার ...কাচ্চি রানছি ...মুখে দিয়া দেখি চাইল শক্ত মন খারাপ
========================
যার ঘড়ি সে তৈয়ার করে,ঘড়ির ভিতর লুকাইছে

========================
যার ঘড়ি সে তৈয়ার করে,ঘড়ির ভিতর লুকাইছে

ক্ষুধার্ত ট্রলার এর ছবি

ক্ষুধানুভূতি আহত করার প্রতিবাদে মসিঁয়ে চৌধুরিকে ব্যান করার তীব্র দাবি জানাচ্ছি।

সৌরভ এর ছবি

এইসব আবেদন কি মডারেটরদের দৃষ্টিগোচর হয় না?



আমি ও আমার স্বপ্নেরা লুকোচুরি খেলি


আবার লিখবো হয়তো কোন দিন

সৈয়দ নজরুল ইসলাম দেলগীর এর ছবি

এই খিচুড়ী রান্ধার সময় একটু আলু বা অন্য শব্জি টব্জি দিয়া দিলে সেইটা সব্জি খিচুড়ী হয়া যায়... ঐটাও খারাপ না... একবারে সব হয়া যায়...

______________________________________
পথই আমার পথের আড়াল

সবুজ বাঘ এর ছবি

সবই বুঝলাম। মন সম্মতই হইছে। কিন্তু চাইল এত কম দিলা খিচুরি ছট পড়ব না? তাছাড়া আমি তো জানি চাইল যেতুডি দিমু ডাইল দিম তার অর্ধেক। তাইলে কি তুমারডা রাজসিক আর আমারডা তামসিক ল্যাটকা খিচুরি?
বি দ্র. রাজকুমার আইজক্যা ফুন দিছে। শালার ভাঙ্গা হাত নাকি পছা ধরছে। সন্দায় আকিজ মাক্রেটে দেহা হইব। বিস্তারিত পরে জানামনি।

সুমন চৌধুরী এর ছবি

ল্যাটকা খিচুড়িতে চাইল কম ডাইলবেশী দিতে হয়। তাইলে খিচুড়ির উত্তেজনা বাড়ে।
রাজকু'র খবর ডিটেলসে দিও



ঋণম্ কৃত্বাহ ঘৃতম্ পীবেৎ যাবৎ জীবেৎ সুখম্ জীবেৎ

কনফুসিয়াস এর ছবি

এমনেই নাচুনি বুড়ী, আপনে দিলেন ঢোলের বাড়ি!
ল্যাটকার অত্যাচারে এইবার আমার জীবন বিপন্ন হইবে, কোন ডাউট নাই! মন খারাপ
-যা দেখি তা-ই বলি...

-----------------------------------
বই,আর্ট, নানা কিছু।

দ্রোহী এর ছবি

আমি হইলাম একমাত্র লুক যে বিদেশে আসনের সময় সিদ্দিকা কবীর আফার বই লইয়া আহে নাই।

আমার রান্না হইতো ইন্টারকন্টিনেণ্টাল ফুনে। হয় বাংলাদেশে মা'র কাছে নাইলে অষ্ট্রেলিয়ায় বউয়ের কাছে ফুনাইতাম।

বউ কইতো মাংস কাট এক ইঞ্চি মত করে। আমি স্কেল বহাইয়া এক ইঞ্চি মাপে মাংস কাটতাম।


কি মাঝি? ডরাইলা?

সৌরভ এর ছবি

আমি হইলাম একমাত্র লুক যে বিদেশে আসনের সময় সিদ্দিকা কবীর আফার বই লইয়া আহে নাই।

অবজেকশন।
এই অধম "বৈদেশে দৈববশে"© আইসা পড়নের দুই বছর পর এই খালাম্মার নাম প্রথম শোনে।
আর সেই বই জীবনে চউখ দিয়াও দেখে নাই।

আর আমার প্রথম রান্না জীবনের সফল ফসল ছিল - ডিমের সালুন। এইটার রেসিপি একদিন দিতে হবে দেখতেসি..

("বৈদেশে দৈববশে" হিমু ভাইয়ের কপিরাইট দেঁতো হাসি )


আমি ও আমার স্বপ্নেরা লুকোচুরি খেলি


আবার লিখবো হয়তো কোন দিন

আনোয়ার সাদাত শিমুল এর ছবি

কমান্ডার দ্রোহীর সাথে লিস্টে আমার নামও যোগ করা হোক।

মাশীদ এর ছবি

আহ্! সেই ঘ্রাণ, সেই স্বাদ সেই সামহোয়্যার থেকে আজো সচল!

এককালে আপনার এই রেসিপি অনেক কাজে আসছে। কিন্তু মাঝখানে বেশ কিছুদিন রান্ধা হয়নি। দেখি আবার ল্যাটকার সময় সমাগত। ডাংকে বদ্দা!


ভাল আছি, ভাল থেকো।


ভাল আছি, ভাল থেকো।

ধুসর গোধূলি এর ছবি

- সবাই লালা ফালাইলেও বদ্দার ঐতিহাসিক ল্যাটকা চাইখা দেখোনের সৌভাগ্য হৈছিলো কেবল আমারি, তাও বেশ কয়েকবার। হালায় সবাই লোল ফেলাইলেও, আমার অবস্থা আছিলো কাহিল। না হইছিলো তেহারী, না হৈছিলো নেহারী।
বদ্দা আশা করি নিজের স্কিল প্রমাণের নিমিত্তে আমারে আরেকবার ডাকিয়া ল্যাটকা চাখাইবেন। তার আগে কইলাম আরএসটিআই এর সাট্টিফিকেট মিলবো না হালায়!
_________________________________
<সযতনে বেখেয়াল>

মাশীদ এর ছবি

বাসায় বাসি ভাত জমেছিল কিছু। আপনার এই ল্যাটকার পোস্ট পড়ে মনে হল ওগুলো দিয়ে বানিয়ে ফেলি। আপনার রেসিপি মোতাবেক শুরুটা করে, চালের বদলে ডাল (মুগ, মুসুর, চানা) দিয়ে পানি দিয়ে বসায় দিলাম। তারপর যখন বলগ আসল আর ডাল আধা সিদ্ধ হয়ে গেল, তখন রসুন কুচির সাথে বাসি ভাতগুলো দিয়ে দিলাম। তারপর আবার বাকিটা আপনার রেসিপি মোতাবেক। ল্যাটকা রান্না হয়ে গেলে পেঁয়াজ ভাজার সাথে অল্প ধনে পাতা আর স্প্রিং আনিয়েন কুচি ছড়িয়ে দিয়েছি উপরে। তারপর খেয়ে দেখি দুর্দান্ত (অপুরও সহমত)! সাথে ছিল ডিমভাজা আর অল্প একটু লেফট ওভার গরুর গোশত, সালাদ আর আচার। ভাবলাম আপনাকে আরেকটা ডাংকে জানিয়ে যাই। আর বাসি ভাত জমলে ইচ্ছা করলে আপনিও এটা ট্রাই মারতে পারেন।


ভাল আছি, ভাল থেকো।


ভাল আছি, ভাল থেকো।

সুমন চৌধুরী এর ছবি

আইতাছি....



ঋণম্ কৃত্বাহ ঘৃতম্ পীবেৎ যাবৎ জীবেৎ সুখম্ জীবেৎ

নাম দিয়া কাম কী ? এর ছবি

মাশীদের বাসি ভাতের আইটেমটিকে ল্যাটকার সাথে মিলিয়ে ফেলা ঠিক হৈব না।

এটা একটা অন্য ধরনের আইটেম।

ভিন্ন নামে রেজি:করে মাশীদকে প্যাটেন্ট দেয়া হোক।

নাম হইতে পারে :ল্যাটকা মাভারি
(ব্যাখ্যা : মাশীদের ভাত[ b]রি[/b]সাইক্লিং )

সুমন চৌধুরী এর ছবি

ঐটা আমি টেরাই দিমু.....



ঋণম্ কৃত্বাহ ঘৃতম্ পীবেৎ যাবৎ জীবেৎ সুখম্ জীবেৎ

বিবাগিনী এর ছবি

দারুন রেসিপি!পৃথিবীর সব বিখ্যাত বাবুর্চি কেন পুরুষ এইটা বুঝলাম!আমি আর রান্না বান্না করবনা। অসহ্য লাগে।এখন থেকে রান্না করবে পুং প্রজাতি।খাব আমি।

::একাকিত্বের বিলাস আমার অনেকদিনের সাধ::

‌‌::একাকিত্বের বিলাস আমার অনেকদিনের সাধ::

নতুন মন্তব্য করুন

এই ঘরটির বিষয়বস্তু গোপন রাখা হবে এবং জনসমক্ষে প্রকাশ করা হবে না।
Image CAPTCHA