পদপিষ্ট মানবতা ও আমার বোন রাহেলা

অমিত আহমেদ এর ছবি
লিখেছেন অমিত আহমেদ (তারিখ: শুক্র, ২৬/১০/২০০৭ - ১২:২০অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

[রাহেলা বিষয়ক নিয়মিত আপডেট পাবেন পোস্টের শেষে]

আমার বোনটিকে নিয়ে আমি কিছু লিখবো না। সবকিছু নিয়ে অক্ষম আমি লিখতে পারি না! কেবল অন্যরা যা লিখেছে তা থেকে টুকে দেব।

• ২২ আগস্ট ২০০৪ » উনিশ বছরের তরুনী পোষাক কর্মী রাহেলা আক্তার লিমা মিনি চিড়িয়াখানা দেখে ফেরার পথে জাহাঙ্গীর নগর বিশ্ববিদ্যালয়ের মশাররফ হোসেন হলের পেছনের জঙ্গলে আকাশ, কবির, লিটন, দেলোয়ার ও আরো কয়েকজনের হাতে লুন্ঠিত [গহনা ও বেতনের ২৮০০ টাকে] ও ধর্ষিত হন [১, ২, ৩]। ধর্ষনের পরে পান্ডষেরা ছুরি দিয়ে রাহেলার গলা কেটে দেয়, এবং তাতেও সন্তুষ্ট না হয়ে একজন তার চুলের মুঠি চেপে ঘাড় ভেঙ্গে দেয়ার চেষ্টা করে [২], ও রাহেলাকে জঙ্গলে রেখে পালিয়ে যায়।

• ২২-২৪ আগস্ট ২০০৪ » এ কদিনেও রাহেলা মারা যায় না। বরং দূর্বল, শক্তিহীণ রাহেলা গলার ক্ষতস্থানে রাজ্যের পোকার মহোৎসব সয়ে সাহায্যের জন্য ক্রমাগত বলতে থাকেন "আমি মরি নাই, আমাকে বাঁচান!" [২]।

• ২৪ আগস্ট ২০০৪ » ধর্ষক ও সহযোগীরা রাহেলা মারা গেছে কিনা তা নিশ্চিত হতে গিয়ে দেখে সে তখনো বেঁচে। তৃষ্ণার্ত রাহেলা এ সময় তাদের কাছে পানি চেয়ে আকুতি জানান। পাণ্ডষেরা পানির পরিবর্তে তরল এসিড রাহেলার গলায় ঢেলে দেয় [১]।
একই দিনে মালী রাহেলাকে মৃত প্রায় অবস্থায় জঙ্গলে আবিষ্কার করেন ও সঙ্গে সঙ্গে সবাইকে জানান, রাহেলাকে চিকিৎসার জন্য DMCHয়ে পাঠানো হয় [১]।

• ২৮ সেপ্টেম্বর ২০০৮ » ৩৩ দিন মৃত্যুর সাথে লড়ে এইদিন রাহেলা মারা যান।

এর পরের ঘটনা ঠিক যেমন আমাদের দেশে ঘটে থাকে। চারজনকে আসামী করে মামলা হয় [মামলা নাম্বার ১৩/২০০৫], গ্রেফতার হয় তিন জন [আকাশ, কবির, দেলোয়ার], প্রধান আসামী [লিটন] থাকে পলাতক, সেই তিনজনও ক'দিন পর জামিন নিয়ে বের হয়ে আসে [২]।

মামলাটি এখনো নারী ও শিশু নির্যাতন প্রতিরোধ ট্রাইবুনাল-১ এ বিচারাধীন আছে। মামলাটিতে আইনি সহায়তা দিচ্ছে আইন শালিশ কেন্দ্র। আগামী ২৯শে অক্টোবর, ২০০৭ কেসটি কোর্টে উঠবে সাক্ষ্য গ্রহনের জন্য।

তার আগে আমরা ব্লগাররা চেষ্টা করছি জনসচেতনতা সৃষ্টি করতে যেন আমার বোন রাহেলা সুবিচার পায়। আরো তথ্যের জন্য পড়ুন জ্বিনের বাদশার এ পোস্টটি [জাস্টিস মাস্ট প্রিভেইল]

[১] ডেইলিস্টারের রিপোর্ট
[২] সাংবাদিক ফয়সল নোইয়ের ব্লগ
[৩] মানবীর ব্লগ

উৎসর্গঃ মানবী, জ্বিনের বাদশা, ফয়সল নোই ও বিপ্লব রহমান



রাহেলাকে নিয়ে চ্যানেল আইতে টিভি রিপোর্টটি


রাহেলাকে নিয়ে লিংক

(১) সামহোয়্যার ইন ব্লগের রাহেলা সংশ্লিষ্ট পোস্ট গুলোর তালিকা [সৌজন্যেঃ ব্লগার লাল দরজা]
(২) ই-পিটিশন [সৌজন্যেঃ নুরুল আলম | একটি নতুন পিটিশনের লিংক দেয়া হবে শিঘ্রই]
(৩) রাহেলার জন্য ব্লগস্পট [সৌজন্যেঃ নুরুল আলম]

আপডেট

২৪ অক্টোবর ২০০৭-বর্তমান » চ্যানেল আইতে রাহেলাকে নিয়ে টেলি রিপোর্টার ফয়সল নোইয়ের রিপোর্ট [তথ্যসূত্রঃ চ্যানেল আই]
২৫ অক্টোবর ২০০৭-বর্তমান » বিভিন্ন সংবাদপত্রে এ বিষয়ে সংবাদ প্রকাশের জন্য ব্লগাররা ইমেইল পাঠাচ্ছেন [তথ্যসূত্রঃ সচলায়তন ব্লগ, সামহোইয়্যার ইন ব্লগ]
২৬ অক্টোবর ২০০৭-বর্তমান » রাহেলাকে নিয়ে আরিফ জেবতিকের "জাস্টিস ফর রাহেলা" ক্যাম্পেইন প্রস্তাবনা [তথ্যসূত্রঃ আরিফ জেবতিকের সামহোয়্যার ইন ব্লগ]
২৬ অক্টোবর ২০০৭ » দৈনিক সংবাদে কলামিস্ট ফকির ইলিয়াস তাঁর নিয়মিত কলাম "দিগন্তের দিকচিহ্ণে" রাহেলাকে নিয়ে একটি লেখা লেখেন [তথ্যসূত্রঃ সামহোয়্যার ইন ব্লগে লেখকের কমেন্ট]
২৬ অক্টোবর ২০০৭ » facebook এ রাহেলার জন্য একটি facebook গ্রুপ খোলা হয় [সৌজন্যেঃ মোসতফা মনির সৌরভ]
২৬ অক্টোবর ২০০৭ » ব্লগাররা যেন রাহেলার সুবিচার ই্যসুতে সবার সাথে দ্রুত যোগাযোগ করতে পারেন সে জন্য একটি গুগল গ্রুপ খোলা হয় [সৌজন্যেঃ আরিফ জেবতিক]
২৭ অক্টোবর ২০০৭ » hi5 এ রাহেলার জন্য একটি hi5 গ্রুপ খোলা হয় [সৌজন্যেঃ মোসতফা মনির সৌরভ]
২৯ অক্টোবর ২০০৭ » bdnews24.com এ রাহেলাকে নিয়ে রিপোর্ট আসবে [তথ্যসূত্রঃ সাংবাদিক বিপ্লব রহমান]
২৯ অক্টোবর ২০০৭ » নতুন করে নতুন পিটিশনে স্বাক্ষর সংগ্রহ শুরু হবে [তথ্যসূত্রঃ ব্লগার মানবী]
২৯ অক্টোবর ২০০৭ » রাহেলা হত্যা মামলার স্বাক্ষ্য গ্রহনের তারিখ, নারী ও শিশু বিষয়ক অপরাধ দমন ট্রাইব্যুনাল-১ এ সকালে মামলাটি শুনানীর জন্য তোলা হয়। কিন্তু কোন স্বাক্ষীই আদালতে হাজির হননি! [সৌজন্যেঃ সাংবাদিক ফয়সল নোই]

© অমিত আহমেদ


মন্তব্য

বিপ্লব রহমান এর ছবি

২৯ অক্টোবর রাহেলা হত্যা মামলার শুনানী হওয়ার কথা।...

এই নৃশংস হত্যার বিচার চাই।।


আমাদের চিন্তাই আমাদের আগামী: গৌতম বুদ্ধ


একটা ঘাড় ভাঙা ঘোড়া, উঠে দাঁড়ালো
একটা পাখ ভাঙা পাখি, উড়াল দিলো...

তারেক এর ছবি

রিপোর্টে রাহেলাকে দেখাতেই... এই মুখের দিকে তাকানোর শক্তি আমার নাই।
_________________________________
ভরসা থাকুক টেলিগ্রাফের তারে বসা ফিঙের ল্যাজে

_________________________________
ভরসা থাকুক টেলিগ্রাফের তারে বসা ফিঙের ল্যাজে

জ্বিনের বাদশা এর ছবি

বিচার হতেই হবে .... কোনভাবেই যেন অপরাধীরা আইনের চোখ ফাঁকি দিয়ে পার না পেয়ে যায় ...
অমিত, অসংখ্য ধন্যবাদ
দুই পয়সার মানুষেরা মিলে আসেন কাঁপিয়ে ফেলি অরাজকতা
========================
যার ঘড়ি সে তৈয়ার করে,ঘড়ির ভিতর লুকাইছে

========================
যার ঘড়ি সে তৈয়ার করে,ঘড়ির ভিতর লুকাইছে

সুমন চৌধুরী এর ছবি

বিচার হতেই হবে।
খুনিদের ধরতে হবে।
আইনের ফাঁক গলে বেরিয়ে এলেও যেন জনগনের হাত থেকে রেহাই না পায়।



ঋণম্ কৃত্বাহ ঘৃতম্ পীবেৎ যাবৎ জীবেৎ সুখম্ জীবেৎ

অমিত আহমেদ এর ছবি

ঠিক!


ভালবাসি, ভালবাসি, ভালবাসি তোমায়!
ব্লগস্পট | ফেসবুক | ইমেইল

অতিথি লেখক এর ছবি

রাহেলা জন্য একটা আইপিটিশন খোলা হয়েছে - দয়া করে লগ ইন করে সাইন করুন। রাহেলার জন্য একটা ব্লগও খুলেছি। দয়াকরে অনলাইন পিটিশনটিতে সাইন করুন। লিংক নীচে --

পিটিশন - http://www.ipetitions.com/petition/Justice_for_Rahela_Bangladesh/

http://justice-for-rahela.blogspot.com/

রাহেলার ব্লগে পিটিশনের লিংক আছে। দয়া করে রাহেলাকে সাহায্য করুন। আসুন আমরা সবাই মিলে রাহেলার সুবিচার নিশ্চিত করি এবং রাহেলা সুবিচারের জন্য একটা বিশ্বমত তৈরী করি।

নুরুল আলম

অমিত আহমেদ এর ছবি

ধন্যবাদ নুরুল আলম।
আপনার লিংক দুটি মূল পোস্টের সাথে জুড়ে দিলাম।


ভালবাসি, ভালবাসি, ভালবাসি তোমায়!
ব্লগস্পট | ফেসবুক | ইমেইল

ধুসর গোধূলি এর ছবি

- আমাদের উচিৎ সর্বোচ্চ যতগুলো সম্ভব উৎস ব্যবহার করা যাতে করে রাহেলার জন্য পরিচালিত মামলাটি সুবিচারের মুখ দেখে। হাজারদুয়ারী ডট কমের পক্ষ থেকে আমি আমন্ত্রণ জানাচ্ছি, আজকের মধ্যে রাহেলাকে নিয়ে, আদালতের দৃষ্টি আকর্ষণ করে, মিডিয়া-মোঘলদের গোচরে আনার জন্য, মামলার সাক্ষীদের 'ইন্সপায়ারড' করে- যে, যেরকম পারুন, একটি করে লেখা তৈরী করে পাঠিয়ে দিন এই ঠিকানায়। ঘৃণিত, পাশবিক খুনী চক্রকে জানিয়ে দিন- বিচারের বানী নিভৃতে কাঁদার দিন শেষ।

সময়মতো পর্যাপ্ত পরিমান লেখা পেলে মামলাটির শুনানির দিন, ২৯ অক্টোবর ২০০৭ হাজারদুয়ারী 'রাহেলা সংখ্যা' বের করবে। আপনাদের সকলের সপ্রতিভ অংশগ্রহন কামনা করছি।

_________________________________
<সযতনে বেখেয়াল>

সংসারে এক সন্ন্যাসী এর ছবি

বার বার ঘুঘু ধান খেয়ে যাবে, আর সেটা হতে দেয়া যায় না। সময় এসেছে ঘুরে দাঁড়ানোর।

'আইনের ফাঁক গলে বেরিয়ে এলেও যেন জনগনের হাত থেকে রেহাই না পায়।' - সুমন চৌধুরীর সঙ্গে সহমত।

~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~
টাকা দিয়ে যা কেনা যায় না, তার পেছনেই সবচেয়ে বেশি অর্থ ব্যয় করতে হয় কেনু, কেনু, কেনু? চিন্তিত

বজলুর রহমান এর ছবি

(১) আমার তিক্ত অভিজ্ঞতা হলো ঃ সংবাদপত্র অফিসে ফ্যাক্স কেউ পড়ে দেখে না। ইমেইল তো নয়ই। সরাসরি ফোনে সাংবাদিকদের সাথে যোগাযোগ করাই সব চেয়ে ফলপ্রসূ।
(২) মন্ত্রী-এ্যাডভাইজারদের বেলাতেও তাই। এঁরা নিজেরা টেবিল সাজাতে কম্পিউটার রাখেন। সুতরাং এক্ষেত্রেও ব্যক্তি যোগাযোগ-ই ভালো ফল দেয়,যদি অন্তত তৃতীয় কেউ এ বিষয়ে সাহায্য করে।
(২) নিম্ন আদালত এখনো সরকারী আদেশ-নির্দেশ অনুযায়ী চলে, এবং ১লা নভেম্বর বিচার বিভাগ আলাদা হয়ে গেলেও বিভিন্ন কারণে সরকারী প্রভাব থেকে যাবে বহুদিন। সুবিচার চাইতে হলে সরকারের সাহায্য প্রয়োজন। কিন্তু ইন্টারনেটে মঈনের বিষয়ে (ট্রাস্ট ব্যাঙ্ক ও হার্ভার্ড ) এবং গীতিয়ারা চম্পার গুলশানে বাড়ি দখলের বিষয়ে বিরুপ সব মন্তব্যের কারণে সরকার এই মুহূর্তে ইন্টারনেট কমিউনিটির ওপরে নাখোশ। সুতরাং হয়তো অন্য পথ বেশি এফেকটিভ হতে পারে।
'রাহেলা আমার বোন' কথাটা আমার চোখ আর্দ্র করে দিল। এর আগে যখন প্রথম এই বর্বরতম অত্যাচারের বিবরণ পড়েছিলাম তিন বছর আগে,তখনো মনকে ভীষণ বিচলিত করেছিল, কিন্তু আমার সম্ভবত সামন্ত্রতান্ত্রিক পটভুমি 'বোন' সম্বোধনটি মনে তখন ঢুকতে দেয় নি। আমি এখন চিৎকার করে বলতে চাই ;রাহেলা আমার বোন। আমি তার এই নিষ্ঠুরতম মৃত্যুর বিচার চাই! যে এর পথে টাকার বিনিময়ে , প্রভাবের খাতিরে, বা শুধুই নির্লিপ্ততার কারণে বাধা হয়ে দাঁড়াবে, সে আমার পরম শত্রু।

অতিথি লেখক এর ছবি

এক রাহেলার কথা জানলামি
কিন্তু যেসব রাহেলার কথা জানি না তারা যে আমাদের নিজেদের দ্বারা আশংকাগ্রস্ত নয় সে ব্যাপারে আমরা কয়জন বুকে হাত দিয়ে হলপ করতে পারি?

কয়জন অভয় দিতে পারি অনামি অন্য রাহেলাদের যারা এখনও আক্রান্ত হয়নি?

শিমুল

নতুন মন্তব্য করুন

এই ঘরটির বিষয়বস্তু গোপন রাখা হবে এবং জনসমক্ষে প্রকাশ করা হবে না।
Image CAPTCHA