হিমু এর ব্লগ

কী মতি, ডরাইলা?

হিমু এর ছবি
লিখেছেন হিমু (তারিখ: মঙ্গল, ১৬/০৪/২০১৩ - ৫:৩৪পূর্বাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

Happy families are all alike; every unhappy family is unhappy in its own way. Leo Tolstoy, Anna Karenina, Chapter 1, first line.

শাহবাগ আন্দোলন নিয়ে গণমাধ্যমের একাংশের প্রতিক্রিয়া ও আচরণ বুঝতে গেলে আরেকটু পেছনে যেতে হবে আমাদের। একাধিক বিবেচনায় দেশ পেছন দিকে হাঁটছে, সে যাত্রায় ক্ষণিকের জন্যে সঙ্গী হলাম নাহয় আমরাও।


চিরবিজয়িনী জাগো জয়ন্তিকা

হিমু এর ছবি
লিখেছেন হিমু (তারিখ: শনি, ১৩/০৪/২০১৩ - ৭:৫৪অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:


[নকশা: স্যাম]

নতুন বাংলা বছর জেগে উঠুক সকল মৌলবাদী ঘোঁৎকারকে চাপা দিয়ে নারীর গর্জনে।

যে বাংলাদেশের কৃষি অচল নারীর অংশগ্রহণ ছাড়া, যে বাংলাদেশের শিল্প অচল নারীর শ্রম ছাড়া, যে বাংলাদেশের পরিবার অচল নারীর নিঃশব্দ আত্মবিসর্জন ছাড়া, সে বাংলাদেশে মাথায় ফেট্টি বাঁধা কতগুলি উন্মাদের কথায় নারীরা অন্তরীণ হয়ে থাকবে?

কখনোই না।


আটক তিন ব্লগারের মুক্তি চাই না

হিমু এর ছবি
লিখেছেন হিমু (তারিখ: মঙ্গল, ০২/০৪/২০১৩ - ১:১১অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

মাননীয় সরকার বাহাদুর,

সারাদেশ জুড়ে কয়েক মাস ধরে চলমান নাশকতার পরিকল্পনাকারী জামাত-শিবিরের ফেসবুক প্রোপাগাণ্ডা পেজ "বাঁশের কেল্লা" ও "ইসলামী ছাত্রী সংস্থা" বহাল তবিয়তে আছে। রাষ্ট্রের গোয়েন্দা পুলিশ ও টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণকারী কমিশন তাদের কিছুই করেনি, করতে পারেওনি।


যে তুমি ফোটাও ফুল

হিমু এর ছবি
লিখেছেন হিমু (তারিখ: মঙ্গল, ২৬/০৩/২০১৩ - ১২:৫৪অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

হঠাৎ মনে হলো, সবাই মিলে কোরাসে জাতীয় সঙ্গীত গাইলে কেমন হয়?


বোকাদের পদ্য ০৬৮

হিমু এর ছবি
লিখেছেন হিমু (তারিখ: রবি, ১৭/০৩/২০১৩ - ৭:১৬পূর্বাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

হঠাৎ ঝড়ে জাহাজ ভোলে দিক
আকাশ মোছে তারার হাতের ছাপ
সাগর ফোঁসে গোখরো সাপের ছাও
ঢেউয়ের মেয়ে খলখলিয়ে হাসে
নাবিক তুমি একলা কোথায় যাও?


প্রবাসী বন্ধু, আবার পথে নামি আসুন

হিমু এর ছবি
লিখেছেন হিমু (তারিখ: বুধ, ০৬/০৩/২০১৩ - ১২:২৫পূর্বাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

বাংলাদেশ আক্রান্ত।

দেশ মানে শুধু ক্ষেত নয়, পথ নয়, বাড়ি নয়, উপাসনালয় নয়, দেশ মানে মানুষও। সবকিছুর সঙ্গে বাংলাদেশের মানুষ আজ আক্রান্ত।


আমার ভাইয়ের ভাষায় রাঙানো একুশে ফেব্রুয়ারি

হিমু এর ছবি
লিখেছেন হিমু (তারিখ: বুধ, ২০/০২/২০১৩ - ৯:১৯পূর্বাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

আবদুল গাফফার চৌধুরীর লেখা অপূর্ব গানটিকে প্রতি বছর কত মধুর করে গাই আমরা, খালি পায়ে প্রভাত ফেরীতে পুষ্পমাল্য নিয়ে শহীদ মিনারে যাই, সারা পৃথিবীতে এক একটা অঙ্গনে রাতারাতি মাথা উঁচু করে দাঁড়ায় আমাদের প্রতীক শহীদ মিনার, কিন্তু আমাদেরই দেশে আমাদেরই ভাইদের মুখের ভাষা ক্রমশ যেন পায়ের নিচে মাটি হারায়।

আমরা একুশে ফেব্রুয়ারির সন্তান, আমরা কি তা হতে দিতে পারি?


মণীষার কথা

হিমু এর ছবি
লিখেছেন হিমু (তারিখ: শুক্র, ১৫/০২/২০১৩ - ১:০৯পূর্বাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

সিরাজগঞ্জের এনায়েতপুর থানার মানুষ তিরিশ হাজার টাকা চাঁদা তুলে চার মণ আতপ চালের পিঠা তৈরি করছেন। উদ্দেশ্য, শাহবাগে সমবেত মানুষদের জন্যে এ পিঠা তারা নিয়ে যাবেন।

এ কাজে তিন হাজার টাকা একাই দিয়েছে মণীষা। তার মাটির ব্যাঙ্কটি ভেঙে অনেকদিনের তিলোত্তমা সঞ্চয় সে তুলে দিয়েছে অন্যদের হাতে, যাতে শাহবাগে তারও কিছু অবদান থাকে।

মণীষার বয়স ছয় বছর।


পল্টিবাজের জায়গা শাহবাগে নাই

হিমু এর ছবি
লিখেছেন হিমু (তারিখ: রবি, ১০/০২/২০১৩ - ১:০৭পূর্বাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

দৈনিক প্রথম আলোর পোষা বাম ফারুক গুয়েবাড়াসহ আরো দুয়েকটি পল্টিবাজ গত কয়েক বছর ধরে প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষ ভাষায় ছাগুদের ধামা ধরে পেট ভরে দই খেয়ে এখন মুখে চুনের দাগ লাগিয়ে শাহবাগে হাজির হয়ে বিপ্লবী সাজার চেষ্টা করছেন। দৃশ্যগুলো কৌতুককর, কিন্তু সে কৌতুক হিমশৈলের চূড়া কেবল, সে কৌতুকের ভিত নেমে গেছে আশঙ্কাজনক কুমতলবের সাগরের গভীরে।

১.


কুড়িয়ে পাওয়া গান ০১

হিমু এর ছবি
লিখেছেন হিমু (তারিখ: সোম, ০৪/০২/২০১৩ - ৪:১৭পূর্বাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

ওরা বলে, রাতগুলো সে শুধু কেঁদে পার করে দেয়। ওরা বলে, সে খায় না কিছুই, কিছুই মুখে রোচে না তার। ওরা কিরে কেটে বলে আকাশও কাঁপছিলো তার কান্নার দমকে। ভুগছিলো সে ওর জন্যে, আর মরতে মরতেও গাইছিলো, আয় আয় আয় আয় আয়। ডুকরে ডাকছিলো সে, আয় আয় আয় আয় আয়। গাইছিলো সে, আয় আয় আয় আয় আয়। এমনই মরণ অনুরাগে মরছিলো সে। একটা বিষণ্ন ঘুঘু এসে খুব ভোরে শুন্য বাড়িতে গান গায়, যার ছোট্ট দরজাগুলো বিরাট করে খোলা।