নৈষাদ এর ব্লগ

জাসদঃ অসংলগ্ন ভাবনা -১

নৈষাদ এর ছবি
লিখেছেন নৈষাদ (তারিখ: মঙ্গল, ১১/১১/২০১৪ - ৫:৪৪অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

আলসেমি এবং ইন্টারনেট-টিভি আসক্তিতে আয়েশ করে ‘বই পড়া’ খুব একটা হয়ে উঠে না ইদানিং। তবে আমার জন্য সুখের সংবাদ যে সংবাদপত্রে ‘পড়ার মত’ তেমন কিছু পাইনা এখন আর।


গার্মেন্ট ইন্ডাস্ট্রিতে আগুন, মৃত্যু।।

নৈষাদ এর ছবি
লিখেছেন নৈষাদ (তারিখ: মঙ্গল, ২৭/১১/২০১২ - ১২:১৫পূর্বাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

যুক্তরাষ্ট্রের লুসিয়ানা অঙ্গরাজ্যের উপকুলে (গালফ অভ মেক্সিকো) ডিপওয়াটার হরাইজন নামের অফশোর ওয়েল-রিগে বিস্ফোরণ হয় ২০১০ সালের এপ্রিল মাসে। বিস্ফোরণে মারা যায় ১১ জন, তেল নিঃসরণে দেখা দেয় মারত্মক পরিবেশ বিপর্যয়। অপারেটর হিসাবে সেখানে তখন কাজ করছিল যুক্তরাজ্যের তেল কোম্পানি ব্রিটিশ পেট্রোলিয়াম (বিপি)। কিছুদিন আগে ইউএস জাস্টিস ডিপার্টমেন্ট বিপিকে ৪.৫ বিলিয়ন ডলার জরিমানা করে - ফৌজদারি অপরাধে (criminal offense) - যার সাথে ১১ জনের ‘হত্যার’ সম্পর্ক আছে। খেয়াল করুন, ফৌজদারি অপরাধে - পরিবেশ সম্পর্কিত অন্যান্য দেওয়ানি মামলা (civil proceedings) এখনও চলছে।


বিছিন্ন ভাবনাঃ মাতৃত্বকালীন ছুটি, জন্মহার বৃদ্ধি ইত্যাদি।

নৈষাদ এর ছবি
লিখেছেন নৈষাদ (তারিখ: বিষ্যুদ, ১২/০৭/২০১২ - ১১:৫৩অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

বিজিএমইএর মতামত
গত বছরের জানুয়ারী মাসে এক সরকারী গেজেটের মাধ্যমে ‘সরকারী কর্মচারীদের’ মাতৃত্বকালীন ছুটি ৪ মাস থেকে বাড়িয়ে ৬ মাস করা হয়। বাংলাদেশের বর্তমান শ্রম আইনের ৪৬ ধারা একজন ‘মহিলা শ্রমিকের’ ১৬ সপ্তাহের (প্রায় ৪ মাস) মাতৃত্বকালীন ছুটির প্রাপ্যতা নিশ্চিত করেছে।


দ্বিবর্ণ জাতক ২

নৈষাদ এর ছবি
লিখেছেন নৈষাদ (তারিখ: মঙ্গল, ০৮/০৫/২০১২ - ৬:২৫অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

দ্বিবর্ণ জাতক ১

সাগোতো রাজদানের ডায়েরিটা আমার হাতে আসে ২০০৪ সালে, চাচা মারা যাওয়ার পর। ডায়েরিটা এমনিতেই কৌতূহলোদ্দীপক, আমার আকর্ষণ আরও বেড়ে যায় চাচার রেখে যাওয়া নোটটা পড়ে।


নেগোসিয়্যাশন (পর্ব ২)

নৈষাদ এর ছবি
লিখেছেন নৈষাদ (তারিখ: মঙ্গল, ০৩/০৪/২০১২ - ১০:৫৮অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

এক,

রোদ ঝলমলে সকালে হোটেলের বারান্দায় বসে কাঠের রেলিঙে পা তোলে কাঞ্চনজঙ্ঘার দৃশ্য দেখে চা খাচ্ছি, পাশের রুম থেকে বন্ধু এসে ঘোষণা দিল, ‘কপালের নাম গোপাল’। কনটেক্সটটা বুঝার ব্যর্থ চেষ্টা এবং পরবর্তীতে তার ‘বঙ্গে’ যাওয়ার সহযাত্রী ‘কপাল’ ইত্যাদি দর্শণ শোনার পর জানা গেল এই সাত সকালে দুই নেপালি মেয়ে এসে উপস্থিত, গায়ে দেয়ার চাদর বিক্রী করবে। কাশ্মীরি শাল, পাশমিনা, আরও কী কী জানি। বন্ধুটি অবশ্য বেশ রুঢ়ভাবে তাদের প্রত্যাখ্যান করেছে, ‘কোঈ দরকার নেহি হ্যায়’।


বিশ্বব্যাংকের প্রকল্পে নাগরিকের তদারকি, তৃতীয় পক্ষ এবং ব্যক্তিগত স্মৃতিচারণ

নৈষাদ এর ছবি
লিখেছেন নৈষাদ (তারিখ: রবি, ১২/০২/২০১২ - ১:৩১অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

এক,
এ মাসের আট তারিখ রাতে টিভিতে খবরটা শুনেছিলাম, নয় তারিখের পত্রিকায় বিস্তারিত দেখলাম। ‘বিশ্বব্যাংকের অর্থায়নে বাংলাদেশে পরিচালিত সাতটি উন্নয়ন প্রকল্প নাগরিক সমাজ বা যাদের জন্য প্রকল্প বাস্তবায়ন করা হচ্ছে, তাদের মাধ্যমে তদারকি করা হবে’। আরও বলা হয়েছে, ‘প্রকল্পের ফলে যাদের সুবিধা পাওয়ার কথা, সেসব নাগরিকই এসব প্রকল্পে অনিয়ম হচ্ছে কি না, সেবার মান বাড়ানো প্রয়োজন কি না ইত্যাদি বিষয় মূল্যায়ন করবে’।


ত্রিপুরার বামপন্থী রাজ্য সরকার, দেশের এনজিও, সরকারের দায় এবং অন্যান্য প্রসঙ্গ (প্রথম পর্ব)

নৈষাদ এর ছবি
লিখেছেন নৈষাদ (তারিখ: রবি, ১৩/১১/২০১১ - ২:৪৪অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

ভারতের ত্রিপুরা রাজ্যের প্রত্যন্ত অঞ্চলে ঈদের সপ্তাহটা কাটানোর পরিকল্পনায় ষষ্ঠ পাণ্ডবের পুরানো এক ফেসবুক-স্ট্যাটাসের ভুমিকা অনস্বীকার্য। ইচ্ছা ছিল অন্তত একটা সপ্তাহ ফোন এবং ইন্টারনেটের সংস্পর্শ ছাড়া থাকব।


দ্বিবর্ণ জাতক ১

নৈষাদ এর ছবি
লিখেছেন নৈষাদ (তারিখ: রবি, ১৪/০৮/২০১১ - ১১:১৯অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:


প্রায় দুই দশক আগের একটা ঘটনার প্রেক্ষিতে পরস্পর সম্পর্কহীন এই তথ্যগুলি হয়ত কৌতূহলোদ্দীপক, কিন্তু যুক্তির বিচারে কোনই গুরুত্ব বহন করে না। ১৯১০ সালে চট্টগ্রামে ম্যাজিস্ট্রেট হিসাবে নিয়োগ পাওয়া আইসিএস অফিসার ড্যাশের উড়িষ্যা থেকে আসা খাস বেয়ারার নাম ছিল দুর্গা, আবার তার রেকর্ড রুম পরিষ্কারের দায়িত্বপ্রাপ্ত সাঁওতালদের দলনেতার নামও ছিল দুর্গা মন্ডল। এদিকে আবার ১৯০০ সালে বার্মার লেফটেনেন্ট গভর্নর ফ্রেয়ারকে লেখা লর্ড কার্জনের চিঠিতে উল্লেখ করা “ক্রুসেড এগেনস্ট ইম্পিউরিটির” নেত্রী মিসেস অ্যাডা ক্যাসেলের বান্ধবীর নামও ছিল দুর্গা খান্ডেলওয়াল। অসমর্থিত একটা সূত্রে আবার জানা গেল নাজিমুদ্দিনের কাজিন, আহসান মঞ্জিলের নবাবের ঢাকাক্লাব-চারিণী স্ত্রীর পরিবারের দুর্গা নামের একটা মেয়ের মর্মান্তিক মৃত্যুর ঘটনা ছিল।

কিন্তু এই বিশেষত্বহীন দুর্গা নামটা অস্পষ্টভাবে আপাত সম্পর্কহীন কিছু চরিত্র এবং সময়কে একটা সুতোর মধ্যে গেঁথে আনছে বলে মনে হল। ইচ্ছাকৃতভাবে রেখে যাওয়া কোন ক্লু? নিজেকে খুব একটা যুক্তিবাদি বলে দাবী করতে পারলাম না।


কনোকোফিলিপসের সাথে গ্যাস উৎপাদন-অংশীদারি চুক্তি বিতর্ক – তৃতীয় পর্ব

নৈষাদ এর ছবি
লিখেছেন নৈষাদ (তারিখ: শনি, ০২/০৭/২০১১ - ৮:০৮অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

এই পর্বটা শুরু করছি ২৪ জুন ২০১১ প্রগতি সম্মেলন কেন্দ্রে তেল-গ্যাস-খনিজ সম্পদ ও বিদ্যুৎ-বন্দর রক্ষা জাতীয় কমিটির (‘জাতীয় কমিটি’) উদ্যোগে ‘কনকো ফিলিপস-এর সাথে তেল-গ্যাস চুক্তি কেন জাতীয় স্বার্থ পরিপন্থি?’ - শীর্ষক আলোচনা সভায় পঠিত অধ্যাপক এমএম আকাশের প্রবন্ধের রেফারেন্স দিয়ে।


কনোকোফিলিপসের সাথে গ্যাস উৎপাদন-অংশীদারি চুক্তি বিতর্ক – দ্বিতীয় পর্ব

নৈষাদ এর ছবি
লিখেছেন নৈষাদ (তারিখ: মঙ্গল, ২৮/০৬/২০১১ - ৬:৪৬অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

এই পর্বে সরাসরি চলে যাই মডেল পিএসসির (২০০৮) কিছু বিতর্কিত অংশে, যার কাঠামোতেই কনোকোফিলিপসের সাথে চুক্তি হয়েছে। এই পিএসসির সবচেয়ে বিতর্কিত অংশ সম্ভবত অনুচ্ছেদ ১৫। এই অনুচ্ছেদের কিছু ব্যাখ্যা-বিশ্লেষণ ইতিমধ্যে করা হয়েছে, তবে সরকারের তরফ থেকে খুব ভাল কোন ব্যাখ্যা এখন পর্যন্ত দেখিনি। আমি আমার মত ব্যাখ্যা করলাম।