থাকে শুধু অন্ধকার

পুতুল এর ছবি
লিখেছেন পুতুল (তারিখ: রবি, ২৬/০৯/২০১০ - ৫:০৩পূর্বাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

 
 
 
আপনারা কি স্টুটগার্ট থেকে এসেছেন?
 
হ্যাঁ, আপনি কি এই শহরেই থাকেন?
পাল্টা প্রশ্ন শুনে ভাল লাগল। মানুষগুলো আমার কৌতূহলে বিরক্ত হয় নি।
 
না, আমি মিউনিখে থাকি।
 
আচ্ছা, মিউনিখের পারভেজকে চেনেন?
চিনি তো। পারভেজ ভাইকে আপনি চেনেন কী ভাবে?
তার ভগ্নিপতি আবুল হোসেন নবী মুক্তিযুদ্ধে আমাদের প্লাটুন কমাণ্ডার ছিলেন।
আমার আগ্রহ বাড়ে; আপনারা কয় নম্বর সেক্টরে ছিলেন?
দুই নম্বর সেক্টরে।
 
সিগারেট শেষ হওয়ায় সাথের ভদ্রলোক উঠে দাঁড়িয়েছেন। কিন্তু আমার সিগারেট তখনো শেষ হয় নি।
আচ্ছা আবার দেখা হবে, এখন ভেতরে যাই।  
 
দেখে ভদ্রলোকের বয়সটা আন্দাজ করা কঠিন। কয়েকজন চেনা মুক্তিযোদ্ধার সাথে কথা বলে হতাশ হয়েছি। হয়তো তাদের কাছে আমার চাওয়াটা অন্যরকম ছিল বলেই। তাঁরাও আমার মতোই সাধারণ মানুষ। এই বিষয়টা কেন জানি মানতে পারি না। মুক্তিযুদ্ধের শেষের দিকে আমাদের পুকুর পাড় বাঙ্কার কেটেছিলেন বাকিন ভাই, মালেক ভাই আরো অনেক মুক্তিযোদ্ধার সাথে। যুদ্ধ শেষ হওয়ার পরে আমরা কলার ডাউগ্গার বন্দুক দিয়ে যুদ্ধ যুদ্ধ খেলতাম। একদল মুক্তিযোদ্ধা আরেকদল রাজাকার-পাক বাহিনী। সব পাক বাহিনী এবং রাজাকার খতম হওয়ার পরে দলটা পাল্টাতো। এভাবে চলতো ঘরে ফেরার ডাক আসা পর্যন্ত।
 
মালেক ভাই, বাকিন ভাই গুল্লির চেইন এবং রাইফেল নিয়ে বের হতেন পাখি মারতে। আমরা দল বেঁধে তাঁদের পেছনে ঘুরতাম। আস্তে আস্তে বড় হয়ে দেখলাম; বাকিন ভাই শিরিন আপার বিরহে ব্যাকুল। মালেক ভাই আরেক মুক্তিযোদ্ধা মিজান ভাইয়ের ছোট বোনকে বিয়ে করে সুখি হয়েছেন। একটু চালাক ছিলেন বলে কাশেম ভাই পুলিশে একটা চাকরী জুটিয়েছেন। আরেক মুক্তিযোদ্ধা আলী আকবর কাকু আমাদের গ্রামে মসজিদে ইমামতির কাজটা পেয়েও রাখতে পারেন নি। বিড়ি খান বলে তাঁর পেছনে নামাজ পড়া ঠিক না। আলি আকবর কাকুর একটা অভিযোগ ছিল; জেনারেল ওসমানী থাকতে পাক বাহিনী কেন অরোরার কাছে আত্মসমর্পন করলো ? সেই প্রশ্নের উত্তর দেয়ার মতো এলেম আমার তখন ছিল না। কিন্তু আফসোস ছিল। হয়তো সঠিক বা গঠনমূলক নেতৃত্বের অভাবে তখনকার অনেক তরুণ মুক্তিযোদ্ধা না নিজের, না দেশের কাজে লাগল! কমাণ্ডার নূরুজ্জামান আলোচনায় আসতেন কেবল ডাকাতির মামলার আসামী হয়ে।
 
কিন্তু যারা বে-লাইনে যায়নি তাদের পরিণতি দেখেও গৌরব করতে পারি না। শাহজাহান ভাই ছাত্রলীগের হয়ে রশিদ ভাইয়ের নেত্রীত্বে সংগঠিত জাসদের মিটিং-মিছিল বানচাল করেই শেষ করলেন যৌবন। মুক্তিযুদ্ধে পায়ে গুলি লেগে আহত শফিউল বশর আমার সহপাঠী বন্ধু প্রয়াত আবুল বশরের বড় ভাই। মাইজ ভাণ্ডারী আর বিভিন্ন ধান্দা বাজিতে ঢেলে দিলেন সব মেধা। মুজিব হত্যার পরে বাঘে-মহিষে একঘাটে জল খাওয়া রাজনীতির লেজেগোবরে অবস্থা। এই সময়ে আমাদের এলাকায় আওয়ামী লীগের এমপি পদপ্রার্থী হয় ৭০-এর নির্বাচনে মুসলীম লীগের এমপি পদপ্রর্থী সামাদ সাহেবের ছেলে সাত্তার জামিল।
 
এমন রাজনৈতিক নৈরাজ্যে দিশা ঠিক থাকে কার! সিগারেটটা নীচে ফেলে পা দিয়ে পিশে এবার আমিও হলের দিকে এগুই। ঈদ পুণর্মিলনী। মিউনিথ থেকে সুমি. লুকাস আর আমরা তিনজন আমাদের গাড়িতে। আনিস ভাই, উশি ওদের গাড়িতে। সবাই বিরিয়ানি পোলাও খেয়ে খোশ মেজাজে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের অপেক্ষায়। পেছনের দিকে একটা ফাঁকা সারির পাশের চেয়ারে নির্ভার হলাম।
 
তালে ভারসাম্যের সামান্য গড়মিল বাদ দিলে গানটা ভালই গাইছেন ভাবী। “তোমরা ভুলেই গেছ মল্লিকাদির নাম”। ধীরে ধীরে আমার পাশে এসে বসেছেন সেই ভদ্রলোক। এই ধরণের মানুষেরা আমাকে খুব সহজে সম্মোহিত করে। পোড়খাওয়া মাটির বাসনের মতো কালচে তামাটে গায়ের রং। ঘন গাইটের মাহাল বাঁশের মতো শরীর। তুফানে মুলি বাঁশের মতো থেতলে চ্যাপ্টা হয়ে বাঁকে না। হয় জিংলা-পাতা হারিয়ে সোজা দাঁড়িয়ে থাকে, না হলে ভেঙ্গে পরে। অনেক সময় গোড়া সুদ্ধ উপড়ে যায়, কিন্তু মচকায় না।
 
এর মধ্যে হাততালির পর্ব শুরু হয়ে গেছে। তিনি বললেন ভালই গায় মহিলা। দর্শকদের অনুরোধে ভাবী আবার ধরলেন; “কোন বা পথে নিতাই গঞ্জ যাই”। আগ্রহ নিয়ে কিছু একটা জিজ্ঞেস করতে মুখের দিকে তাকিয়ে দেখি তিনি গানটা মন দিয়েই শুনছেন।
 
আমরা এখনো নিতাইগঞ্জের রাস্তা খুঁজেই পাইনি। তালিপর্ব শুরু হতেই তিনি আমাকে জিজ্ঞেস করলেন; আপনার দেশের বাড়ি কোথায়?
 
দাউদকান্দি।
 
আচ্ছা, রশিদ সাহেবকে চেনেন?
 
সব সময় মিথ্যা বলা মুস্কিল। সম্মতি সূচক মাথা নাড়াই। আর রশিদ ভাইকে চিনলেই বা দোষের কী!
 
তিনি খুব স্বাভাবিক ভাবেই বললেন: আমিও এক সময় জাসদ করতাম, তাই রশিদ ভাইকে চিনি। ভিক্টোরিয়া কলেজে পড়ার সময় অনেক আন্দোলনে এক সাথে ছিলাম।
 
রশিদ ভাইকে একা দোষ দিয়ে লাভ কী? সিরাজুল আলম খান আর শেখ ফজলুল হক মনির ব্যক্তিগত কোন্দলে সিআইএ-এর সহায়তায় জাসদ প্রসব করেন দাদা ভাই। উদ্দেশ্য; এ দেশে সমাজতান্ত্রিক আন্দোলন চিরতরে বিনাশ করা। অধুনা গবেষকদের এই ধরণের মতবাদ খণ্ডন করার যৌক্তিক-তাত্ত্বিক দায় আমার না। বেলা বেশী বাকি নাই। সিরাজুল আলম খান এই অবেলায় মুখ খুলে আমাদের আলোকিত করতে পারেন। এই টুকু সাহস তাঁর থাকা উচিত।
 
জাসদের নেতারা কী ভেবে বৈজ্ঞানিক সমাজতন্ত্রের আন্দোলনে নামেন সেটা তাঁরাই ভাল বলতে পারবেন। তাঁদের শ্রেণী সংগ্রামে আমার পাশের মুক্তিযোদ্ধা ভদ্রলোকটির মতো অনেকে যোগ দিয়েছিলেন, শোষণহীন সমাজের স্বপ্নে। যে কারণেই জাসদের জন্ম হয়ে থাকুক, শোষণহীন সমাজের স্বপ্নে এই মাঠকর্মীদের আত্মত্যাগকে আমার পক্ষে ছোট করা কঠিন।
 
দেশ ছেড়েছেন কবে?
 
৭৮ সালে। জাসদ করে তখন দেশে থাকা অসম্ভব ছিল। আমার প্রশ্নের খুব সংক্ষিপ্ত জবাব দিয়ে তিনি মঞ্চের দিকে তাকান। দেশাত্মবোধক গান ধরেন নতুন শিল্পী। হয়তো জনপ্রিয়তার প্রতিযোগিতায় এগিয়ে যেতে; আমারই দেশ সব মানুষের...
 
এই ধরণের গানগুলো আমার কাছে আজকাল রসিকতা মনে হয়। কেন জানি না। মনে মনে ভাবি জ্ঞানী আর গুণীদের আসরে তোমাদের কথা কেউ কবে না। তবু হে বিজয়ী বীর মুক্তিসেনা; তোমার যুদ্ধের অভিজ্ঞতাটা আমি রেকর্ড করতে চাই। বিলুপ্তির আগে অন্তত একজনের কথা আমি লিখে রাখি।       
 
নতুন শিল্পীর প্রতীক্ষার সময় আমি ওনাকে জিজ্ঞেস করি; আচ্ছা আপনারা মুক্তিযুদ্ধে আপনাদের অভিজ্ঞতা নিয়ে লিখেন না কেনো?          
 
 লিখছেন তো অনেকেই। লিখে হবেটা কী। মুক্তিযোদ্ধা শিবু নারায়ন ধুঁকছেন। দেশের মানুষ কি জানে না! কেউ তো তাঁর সাহায্যে এগিয়ে আসছে না!
 
আমি চুপ করে থাকি। সাহস করে তাঁর সাক্ষাৎকার নেয়ার ইচ্ছাটা আর বলতে পারি না।    


মন্তব্য

মূলত পাঠক এর ছবি

অসাধারণ!

পুতুল এর ছবি

থেংকু বস।
**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

অতিথি লেখক এর ছবি

আপনার লেখা পড়ে মনে হল, একজন মুক্তিযোদ্ধার ভিতরে ডুব দিয়ে স্বপ্ন ও আশাহীনতার চিত্র এঁকেছেন। মজার ব্যাপার হল, আমি মনে মনে ভাবি, একজন মুক্তিযোদ্ধার পাশে বসে দিন-রাত কাটিয়ে দেবো। জানতে চাইব কেন তিনি সেই মহান সময়ে নিজেকে সম্পৃক্ত করেছিলেন; তার নিজের ভিতকার কোন বোধ তাড়া করেছিল; আমি বইয়ে পড়া ইতিহাসের বদলে একজন জীবন্ত কিংবদন্তীর কথা শুনবো।
তাহাদের রক্তমাংস আমাদের মতই, তবুও বোধ করি কোথায় যেন স্বপ্ন-প্রেরণা-আলোর রেখায় খোদিত। ওই রেখা সময়ের ঝাপ্টায় যদিও কিছুটা ম্লান হয়ে গেছে।

আপনার লেখায় ওই রেখার দেখা পেলাম।

দূরের তেপান্তর

পুতুল এর ছবি

মজার ব্যাপার হল, আমি মনে মনে ভাবি, একজন মুক্তিযোদ্ধার পাশে বসে দিন-রাত কাটিয়ে দেবো। জানতে চাইব কেন তিনি সেই মহান সময়ে নিজেকে সম্পৃক্ত করেছিলেন; তার নিজের ভিতকার কোন বোধ তাড়া করেছিল; আমি বইয়ে পড়া ইতিহাসের বদলে একজন জীবন্ত কিংবদন্তীর কথা শুনবো।

সেই আশায় ভদ্রলোককে ফোন করেছিলাম। লেগে থাকতে হবে মনে হচ্ছে। কিন্তু আশা ছাড়ি নাই।

তাহাদের রক্তমাংস আমাদের মতই, তবুও বোধ করি কোথায় যেন স্বপ্ন-প্রেরণা-আলোর রেখায় খোদিত। ওই রেখা সময়ের ঝাপ্টায় যদিও কিছুটা ম্লান হয়ে গেছে। আপনার লেখায় ওই রেখার দেখা পেলাম।

ওই আলোর রেখা আমার না, যাকে দেখে লিখেছি তাঁর।

আপনার অনুভূতি ভাগ করার জন্য ধন্যবাদ।

**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

তাসনীম এর ছবি

দুর্দান্ত।

+++++++++++++++++++++++++++++++++++++++++
অন্ধকার শেষ হ'লে যেই স্তর জেগে ওঠে আলোর আবেগে...

________________________________________
অন্ধকার শেষ হ'লে যেই স্তর জেগে ওঠে আলোর আবেগে...

পুতুল এর ছবি

ধন্যবাদ তাসনীম ভাই।
**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

পুতুল এর ছবি

ধইন্যাপাতা হিমু ভাই।

বিলুপ্তির আগে অন্তত একজনের কথা আমি লিখে রাখি।

এখানে বিলুপ্তি শব্দটা লিখেছিলাম আপনার বিলুপ্তি গল্পের লিংকটা দিতে। দুইবার চেষ্টা করে পারলাম না!

**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

আনন্দী কল্যাণ এর ছবি

হয়ত বা ইতিহাসে তোমাদের নাম লেখা রবে না,
বড় বড় লোকেদের ভিড়ে, জ্ঞানী আর গুণীদের আসরে,
তোমাদের কথা কেউ কবে না।
তবু হে বিজয়ী বীর, মুক্তিসেনা,
তোমাদের এই ঋণ কোনদিন শোধ হবে না।
না না না
শোধ হবে না।

পুতুল এর ছবি

না না না
শোধ হবে না।

**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

রাজিব মোস্তাফিজ [অতিথি] এর ছবি

লেখাটি এত ছুঁয়ে গেল !!

পুতুল এর ছবি

ধন্যবাদ।
**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

নুরুজ্জামান মানিক এর ছবি

ভালু লেগেছে তাই দিলাম (গুড়)

আলি আকবর কাকুর একটা অভিযোগ ছিল; জেনারেল ওসমানী থাকতে পাক বাহিনী কেন অরোরার কাছে আত্মসমর্পন করলো ? সেই প্রশ্নের উত্তর দেয়ার মতো এলেম আমার তখন ছিল না। কিন্তু আফসোস ছিল।

জবাব কি পেয়েছেন ? এই অধম প্রশ্নের উত্তর দেবার চেষ্টা করেছে এখানে । আপনার মতামত পেলে খুশি হব ।

নুরুজ্জামান মানিক
*******************************************
বলে এক আর করে আর এক যারা
তারাই প্রচণ্ড বাঁচা বেঁচে আছে দাপটে হরষে
এই প্রতারক কালে (মুজিব মেহদী)

নুরুজ্জামান মানিক
*******************************************
বলে এক আর করে আর এক যারা
তারাই প্রচণ্ড বাঁচা বেঁচে আছে দাপটে হরষে
এই প্রতারক কালে (মুজিব মেহদী)

পুতুল এর ছবি

আমাদের ইতিহাস নিয়ে আপনার গবেষণায় আমি মুগ্ধ। এর আগেও পড়েছি আপনার অনুসন্ধানী অনেক লেখা। কিন্তু এই লেখাটা চোখে পড়েনি। পিয়াল ভাইয়রে লেখাটা পড়েছি অনেক আগেই।
আত্মসমর্পণের দলিল সহ আপনার লেখাটা এই বির্তকের অবসান করলো।

যখন আমি এই প্রশ্নের সম্মুখিন তখন ক্লাশ নাইনে পড়ি। বুঝতেই পারছেন আমার কেরসিন অবস্থা।

লিংকটা দেয়ার জন্য ধন্যবাদ। এই মূল্যবান দলিল অন লাইনে সংরক্ষণ করার বিকল্প নাই।
**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

জাহামজেদ এর ছবি

ভালো লেগেছে লেখাটা পড়ে... (গুড়)

__________________________________
মরণের পরপারে বড় অন্ধকার
এইসব আলো প্রেম ও নির্জনতার মতো
__________________________________

__________________________________
মরণের পরপারে বড় অন্ধকার
এইসব আলো প্রেম ও নির্জনতার মতো
__________________________________

পুতুল এর ছবি

গুড়ের জন্য ধন্যবাদ।
**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

অনিন্দ্য রহমান এর ছবি

ইতিহাস না জানলে অগ্রসর হওয়া যায় না। যেমন, পুরান প্রশ্নমালা সলভ না করে, নতুন প্রশ্নমালায় হাত দেয়া যায় না। কারণ প্রশ্নগুলা ক্রমশ জটিল হতে থাকে।

লেখা ভাল লাগল।


রাষ্ট্রায়াত্ত শিল্পের পূর্ণ বিকাশ ঘটুক


রাষ্ট্রায়াত্ত শিল্পের পূর্ণ বিকাশ ঘটুক

পুতুল এর ছবি

জানতে হলে প্রশ্ন করা ছাড়া উপায় কী?
এমন একটা সময় আশা উচিত যখন যে কোন প্রশ্ন যখন তখন করা যায়, কোন জটিলতা স্মৃষ্টি ছাড়াই। গর্তের ভেতর সাপ তো বলিষ্ট হচ্ছে।
ভাল লাগার জন্য ধন্যবাদ।
**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

অদ্রোহ এর ছবি

চলুক

--------------------------------------------

আজি দুঃখের রাতে, সুখের স্রোতে ভাসাও তরণী
তোমার অভয় বাজে হৃদয় মাঝে হৃদয় হরণী।

--------------------------------------------
যদ্যপি আমার গুরু শুঁড়ি-বাড়ি যায়
তথাপি আমার গুরু নিত্যানন্দ রায়।

পুতুল এর ছবি

ধন্যবাদ, অদ্রোহ।
**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

সৈয়দ নজরুল ইসলাম দেলগীর এর ছবি

ভালো লাগলো
______________________________________
পথই আমার পথের আড়াল

______________________________________
পথই আমার পথের আড়াল

পুতুল এর ছবি

অনেক অনেক ধইন্যা পাতা নজু ভাই।
**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

রানা মেহের এর ছবি

কিরকম একটা মেঘ মেঘ লেখা।
অনেক অনেক ভালো লাগলো।
-----------------------------------
আমার মাঝে এক মানবীর ধবল বসবাস
আমার সাথেই সেই মানবীর তুমুল সহবাস

-----------------------------------
আমার মাঝে এক মানবীর ধবল বসবাস
আমার সাথেই সেই মানবীর তুমুল সহবাস

পুতুল এর ছবি

মেঘে মেঘে বেলাতো কম হল না। এখন চাই ঝুমবৃষ্টি।
ভাল লাগার জন্য ধন্যবাদ।
**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

নাজনীন খলিল এর ছবি

বেলা বেশী বাকি নাই। সিরাজুল আলম খান এই অবেলায় মুখ খুলে আমাদের আলোকিত করতে পারেন। এই টুকু সাহস তাঁর থাকা উচিত।

ভাল লাগল লেখা। শুভকামনা।

পুতুল এর ছবি

ধন্যবাদ, ভাল থাকবনে আপা।
**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

ষষ্ঠ পাণ্ডব এর ছবি

মন্তব্য করতে চেয়েও পারলামনা। কেন যে পারলামনা। তাই চুপচাপ পাঁচ তারা দাগিয়ে গেলাম।



তোমার সঞ্চয়
দিনান্তে নিশান্তে শুধু পথপ্রান্তে ফেলে যেতে হয়।


তোমার সঞ্চয়
দিনান্তে নিশান্তে শুধু পথপ্রান্তে ফেলে যেতে হয়।

পুতুল এর ছবি

মন্তব্য কেন করতে পারলেন না সেটা, অনুমান করতে পারি। পাঁচ তারার চেয়ে আপনার মন্তব্য আমার কাছে বেশী মূল্যবান। আপাতত তারা নিলাম, আর একদিন এই বিষয় নিয়ে লিখবেন, সেই আশায় রইলাম।

**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

ষষ্ঠ পাণ্ডব এর ছবি

আপনি যে অনুমান করতে পারবেন সেটা আমি জানি বস্‌। অনুরোধটাও যে করতে পারেন সে ভয়টাও ছিলো। কী জানি কোনোদিন সত্যি এসব লিখতে পারবো কিনা।



তোমার সঞ্চয়
দিনান্তে নিশান্তে শুধু পথপ্রান্তে ফেলে যেতে হয়।


তোমার সঞ্চয়
দিনান্তে নিশান্তে শুধু পথপ্রান্তে ফেলে যেতে হয়।

মাহে আলম খান এর ছবি

ভালো ও মন্দ দুটোই লাগলো। ভালো লাগলো এই পোস্টটি, আর মন্দ লাগলো .....

পুতুল এর ছবি

বস, ভাল লাগাটা জানানোর জন্য ধন্যবাদ। কিন্তু ভালোর চেয়ে মন্দটা জানা বেশী জরুরী।
**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

**********************
ছায়াবাজি পুতুলরূপে বানাইয়া মানুষ
যেমনি নাচাও তেমনি নাচি, পুতুলের কী দোষ!
!কাশ বনের বাঘ!

অতিথি লেখক এর ছবি

অসাধারণ লাগল এও পোস্টটি। কিন্তু কোথাও যেন আটকে আছে কাঁটা। অদ্ভুত এক অস্বস্তি।

অনন্ত

নতুন মন্তব্য করুন

এই ঘরটির বিষয়বস্তু গোপন রাখা হবে এবং জনসমক্ষে প্রকাশ করা হবে না।