বাংলাদেশের পুষ্পকোষ

ষষ্ঠ পাণ্ডব এর ছবি
লিখেছেন ষষ্ঠ পাণ্ডব (তারিখ: শুক্র, ০১/০৫/২০০৯ - ১১:১৯অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

বাংলাদেশের পুষ্পকোষের পথচলা শুরু হল। ভারতীয় উপমহাদেশে পুষ্পতরুর সংখ্যা সাড়ে চৌদ্দ হাজারের উপরে। বাংলাদেশের পুষ্পতরুর সংখ্যা পাঁচ হাজারের কম নয়। আমার মতে সংখ্যাটি আরো অনেক বড়। কারণ, অনেক উদ্ভিদ আছে যা ফল, ডাঁটা, পাতা বা মূলের জন্য পরিচিত বলে তার ফুলকে অনেক সময় হিসেবে ধরা হয়না। উদাহরণস্বরূপ বলা যায় কুমড়ো ফুল বা ঝিঙ্গে ফুলের কথা। আমাদের এই পুষ্পকোষে আমরা জাত-পাতের বিচার না করেই বাংলাদেশের যে উদ্ভিদেরই ফুল আছে তাকেই এর অন্তর্ভূক্ত করবো। সেক্ষেত্রে আমাদের নিম্নসীমা দাঁড়াচ্ছে পাঁচ হাজার, আর ঊর্ধ্বসীমা নেই।

এই পর্যায়ে শুধু নাম যোগ করে যান। প্রদত্ত নামের বানানে ভুল থাকলে সংশোধনের প্রস্তাব করুন। কোন তথ্য ভুল থাকলে ধরিয়ে দিন।

ফটুরেদের প্রতি, আপনার পছন্দমত ফুলের ছবি তোলা শুরু করে দিন। একটা ছবি ফুলের ক্লোজআপ যাতে ফুলটাকে চেনা যায়। দ্বিতীয়টাতে পাতাসহ ফুলের ছবি তুলুন। তৃতীয়টাতে ফুলসহ গাছের ছবি তুলুন এমনভাবে যেন গাছটা কত বড় তা বোঝা যায়। তারপর এই বইয়ের পাতা হিসেবে যোগ করে দিন ছবিগুলো। একটা পাতায় একটি গাছের নাম এবং তার তিনটি ছবি এই হিসেবে।

নাম আর ছবি যোগাড় হলেই প্রাথমিক পর্যায়ের বইটি প্রকাশ করা হবে। তারপর বিস্তারিত তথ্য যোগ করার কাজ ধরা হবে।

নূন্যতম পাঁচ হাজারের পথে এখন পর্যন্ত ৩৫৬টি নাম পাওয়া গেছে। নাম যোগ করুন, নাম যোগ করুন, নাম যোগ করুন …………। শুধু নাম যোগ করার আগে একবার নিচের লিস্টটিতে কষ্ট করে চোখ বুলিয়ে নিন। যেন লিস্টে ইতিমধ্যে থাকা কোন নাম যেন আপনার লিস্টে চলে না আসে।

কোন দ্বিধা নেই, কোন সন্দেহ নেই। নির্দ্বিধায় নাম জানিয়ে যান। আমাদের কারো করা ভুল আমরাই ধরতে পারবো।

আমি সঙ্ঘশক্তিতে বিশ্বাসী। আমি আশাবাদী। আমরা চেষ্টা করলে নির্ধারিত সময়েই কাজটি শেষ করতে পারবো।

আর একটি অনুরোধ, দয়া করে এই বইগুলোর কোনটা কারো কাছে থাকলে জানানঃ

১। Flora Indica by Joseph Dalton Hooker
২। Bengal Plants by David Preen
৩। Flora of Bangladesh by Dr. Salar Khan
৪। ফুলের বাগান by ভিক্ষু বুদ্ধদেব ও মলয় দাশগুপ্ত

বাংলাদেশের পুষ্পকোষ


অগ্নিশিখা
অঞ্জন
অতসী
অন্তমোড়া
অনন্ত লতা
অপরাজিতা/নীলকন্ঠ
অমরাবতী
অ্যাকাসিয়া/আকাশমণি
অ্যালামন্ডা
অ্যাস্টার
অর্জুন
অরবরই/রোয়াইল
অলকানন্দা
অশ্বত্থ/বট
অশোক


অ্যালবিজিয়া
আকন্দ
আকরকণ্ট
আগর
আদা
আম/আমের মুকুল
আমলকি
আলু/গোলআলু
আলকুশী
আস শ্যাওড়া
আঁশফল
আতা/নোনা/স্বরূপা


ইপিল-ইপিল
ইউক্যালিপটাস


উচ্ছেফুল
উদয়পদ্ম/হিম চাঁপা
উর্বশী
উলটচণ্ডাল


একাঙ্গী


ওলটকমল


কচু
কুঁচ
কচুরীপানা
কুঞ্জলতা/তারামণিলতা
কদম/নীপ
কনকচাঁপা/স্বণচাঁপা/গুবরেচাঁপা
কুন্দ
কুমড়ো/মিষ্টি কুমড়া
ক্যামেলিয়া
ক্যামেলিয়া
ক্যাসিয়া
কুর্চি/গিরিমল্লিকা/কুটজ/তেলাকুচা/কুচিলা/মাকাল
করবী
করমচা
করৌঞ্জ/করঞ্জা
কলকাসুন্দা
কলকে/কলকি
কলাবতী/সর্বজয়া
কৃষ্ণচূড়া/গুলমোহর
কুসুম ফুল
কসমস
কাঞ্চন/বড় কাঞ্চন
কাঁটামেহেদী
কাঠ মালতী
কাঠগোলাপ
কাঠগোলাপ
কাঠমালতী
কাঁঠালীচাঁপা/কাঁঠালচাপা
কামরাঙা
কামিনী
কাল বাসক
কালমেঘ
কালোজাম
কিরণময়ী
কিরীটিনী
কেয়া/কেতকী
কেশরাজ
কলমী
কুল
করল্লা
কাউ
কাশ
কন্টিকারী
কানাই
কতবেল
কলা
কাঁঠাল
কমলা
কাঁটা নটে/ক্ষুদুইরা
কামরাঙা
কাঠবাদাম


খেজুর


গন্ধভাদালি
গন্ধরাজ
গুল নার্গিস
গুলাচি/কাঠগোলাপ/গুলঞ্চ/গোলকচাঁপা/গৌরচাঁপা/গুলঞ্চচাঁপা
গ্লাডিওলাস/বৈজয়ন্ত
গুলাল
গ্লিরিসিডিয়া
গাঁদা
গাব
গামারী
গোকুল/গুইয়া বাবুল
গোলাপ
গিমা
গাঁজর
গগন শিরিষ


ঘৃতকুমারী
ঘন্টাফুল
ঘেঁটু/ভাঁট/ভাঁটি
ঘোড়া নিম/গোঁড়া নিম
ঘাগড়া


চন্দ্রপ্রভা
চন্দ্রমুখী/দুধিয়া লতা
চন্দ্রমল্লিকা
চাঁপা/চাম্পা
চামেলী
চালতা
চিতা
চেরী/খইফুল
চাল কুমড়া/জালি কুমড়া
চিচিঙ্গা


ছাগল কুঁড়ি
ছাগলবতী
ছাতিম
ছোট কাঞ্চন
ছাঁচী


জুঁই/যুঁথী/যুথিকা
জবা
জয়ন্তী/কুরুবক
জ্যাকারান্ডা
জ্যাকোবিনিয়া
জাফরান
জাম্বুরা/বাতাবিলেবু
জারুল
জিনিয়া
জেত্রোফা
জগডুমুর
জিকা/ঝিকা
জহরবাজ
জামরুল/আরমুজ
জলপাই


ঝুমকোজবা
ঝুমকোলতা/ঝুমকা
ঝাঁটি/ঝিন্টি (সাদা/নীল)
ঝাড়বালা
ঝিঙে


টগর/দুধফুল/মহাশ্বেতা
ট্যাবেব্যুইয়া


ডমরুপাণি
ডালিম
ডালিয়া
ডেইজি
ডেফোডিল
ডেউয়া
ডুমুর
ডাঁটা
ডাব/নারিকেল


ঢোলকলমী


তুলসী
তাল
তাল সুপারী
তিসি
তেজপাতা
তেঁতুল
তেলশুর
তিতবেগুন
তুঁত
তরমুজ


থানকুনি


দুপুরচণ্ডী/বান্দুলী
দাঁতরাঙা
দেবকাঞ্চন
দোপাটি/গৌরীশঙ্কর
দোলনচাঁপা


ধুতুরা
ধুন্দুল
ধইঞ্চা


নয়নতারা
নাগকেশর
নাগবল্লী/মুসেণ্ডা/ভাইবোন
নাগলিঙ্গম/শিবফুল
নাগেশ্বর/নাগকেশর
নার্গিস
নিম/মহানিম
নিশিন্দা
নীল চিতা
নীল বাসক
নীল শালুক
নীলঘন্টা
নীলজবা
নীলপদ্ম
নীলমণিলতা/প্যাট্রিয়া
নীলাম্বরী
নুনিয়া
নটে/আম ক্ষুদুইরা
নীল


পুত্রঞ্জীব
পত্রলেখা
পদ্ম (লাল/সাদা)
পুদিনা
পুন্নাগ
পপি
প্রভাতরাণী
পরশপিপুল
পলাশ/কিংশুক
পাদাউক
পান্থপাদপ
পারুল
পারিজাত/মান্দার/পালতে মান্দার
পিটুনিয়া
পিয়াল
পেনজি
পেয়ারাফুল
পেল্টোফোরাম
পিটকিলা/মেণ্ডা
পানিফল
পানিবল্লাশ
পাট


ফুখজিয়া
ফণীমনসা
ফুরুস
ফুলকপি
ফলসা
ফুটি/চিনাল/কাঁকুর


বকফুল
বকুল
বনজাঈ
বন্ধুক
বনসুপারি
বরুণ
ব্রহ্মকমল
ব্লিডিং হার্টস /রুধিরা
বাগানবিলাস/বোগেনভিলিয়া
বাবলা/কাঁটা বাবলা/জিলাপী
বার্ড অফ প্যারাডাইস
বিগোনিয়া
বিলাই খামচি
বিষকাটালী
বেরিয়া
বেল
বেলি
বোতল ব্রাশ
বোতাম ফুল
বাঁধাকপি
বথুয়া
বৈঁচি/পেলাগোটা
বেগুন
বাঁশ
বরবটি
বাদাম/চীনাবাদাম
বাঙ্গী


ভূঁইচাঁপা
ভেণ্ডা
ভেন্না/রেড়ি/ভেরেণ্ডা
ভূঁই কুমড়া


মুক্তাঝুরি
মুচকুন্দ
মধুজবা/লঙ্কাজবা
মধুমঞ্জরী/মাধুরীলতা
মধুমটর
ম্যাগনোলিয়া
মল্লিকা
মহুয়া
মাখনা
মাধবী/মাধবীলতা
মালঞ্চ
মালতী/মালতীলতা
মিনজিরি
মিলেশিয়া
মেথি
মেহগিনি
মেহেদী
মোমচীনা
মোরগফুল
মেথী
মুলা
মরিচ
মরিচা
মিষ্টি আলু
মেরীগোল্ড


রক্তকমল
রক্তকরবী
রক্তকাঞ্চন
রক্তচিত্রক
রক্তজবা
রক্তদ্রোণ
রক্তরাগ
রঙ্গন/একজোড়া (লাল/সাদা/হলুদ/গোলাপী/কমলা)
রজনীগন্ধা
রঞ্জনা/রক্তচন্দন
রুদ্রপলাশ
রূপসী
রাজচম্পক/ম্যাগনোলিয়া
রাধাচূড়া
রামসর
রাস্না
রশুন


লুটকী/ফুটকী
লুপিন
লবঙ্গ লতা
লাউ
লাঙুলী লতা
লান্টানা
লাল সোনাইল
লিচু
লিয়্যুইয়া
লিলি-লিলিফুল/রওশন ফুল/রশুন ফুল/কানুর
লটকা/লটকন/ভুবি
লেবু


শটী
শ্বেত অতসী
শ্বেত দ্রোণ
শাপলা/কুমুদ
শারঙ্গ
শাল
শালুক
শিবঝুল/শিবজটা
শিমুল
শিয়ালকাঁটা
শিয়াল-মুত্রা/শিয়ালমতি
শিরিষ
শিশু
শেফালী/শিউলী/শেফালিকা
শসা
শাক আলু
শ্বেত চন্দন
শ্যাওড়া
শরীফা


স্কারলেটকর্ডিয়া
সুখদর্শন
স্টারগেজার
স্থল্পদ্ম
সন্ধ্যামনি/সন্ধ্যামালতি/কৃষ্ণকলি
স্পাইডার লিলি
সুপারি
সফেদা
স্বর্ণচাঁপা
স্বর্ণচামেলী
স্বর্ণলতা
সর্পগন্ধা
সুরভী/গিরিনীম
সূর্যমুখী
সুলতান চাঁপা/নাগ চাঁপা
সহস্র জুঁই
সাদা হুড়হুড়ি
সীম
সোনাঝুরি
সোনাপাতি/ট্যাকমা
সোনালু/সোদাঁল/সোনাইল/কর্নিকার/বান্দরলাঠি
সাঁই বাবলা
সুজীফল
সাতকড়া
পাঁকুড়
সফেদা


হলিহক
হাতিশুঁড়
হাস্নুহেনা/হাস্নাহেনা
হিজল
হেলেঞ্চা
হলুদ

ক্ষ


মন্তব্য

হিমু এর ছবি


অমরাবতী


জ্যাকারান্ডা
জবা


ঝাড়বালা


বেলি


রক্তকরবী


মান্দার/মাদার



হাঁটুপানির জলদস্যু আলো দিয়ে লিখি

ষষ্ঠ পাণ্ডব এর ছবি

জবা দিয়েছি রক্তজবা নামে।

মান্দার আছে পারিজাত-এর বিকল্প নাম হিসেবে।

আপনার নাম যোগ করার পদ্ধতিটি চমৎকার। এমনটিই চেয়েছিলাম। আরো ভাবুন, আরো নাম দিন।



তোমার সঞ্চয়
দিনান্তে নিশান্তে শুধু পথপ্রান্তে ফেলে যেতে হয়।


তোমার সঞ্চয়
দিনান্তে নিশান্তে শুধু পথপ্রান্তে ফেলে যেতে হয়।

প্রকৃতিপ্রেমিক এর ছবি

কালমেঘ-এর নাম শুনেছিলাম দেখিনি কখনো।
শিয়াল-মুতরা গাছটা চিনি ফুলটা হাতিশুঁড়ের মত (হাতিশুঁড়ের স্থানীয় নাম হতে পারে)

ষষ্ঠ পাণ্ডব এর ছবি

কালমেঘের ফুল নিয়ে আমার সন্দেহ আছে। গাছ দেখেছি, ফুল দেখিনি।

শিয়াল-মুত্রা/শিয়ালমতি হলুদ রঙের ফুল নাকফুলের মত। গাছ অপেক্ষাকৃত কাষ্ঠল, ল্যান্টানার মত ঝাড় হয়। হাতিশুঁড় বীরুৎ জাতীয়, ফুল সবুজ বেসের উপর সাদা।



তোমার সঞ্চয়
দিনান্তে নিশান্তে শুধু পথপ্রান্তে ফেলে যেতে হয়।


তোমার সঞ্চয়
দিনান্তে নিশান্তে শুধু পথপ্রান্তে ফেলে যেতে হয়।

হিমু এর ছবি


অমরাবতী
অন্তমোড়া
অশ্বত্থ


আগর


কাঠমালতী
কাঠগোলাপ
কুঞ্জলতা
কলাবতী
কুঁচ
কলকাসুন্দা


চন্দ্রপ্রভা


জ্যাকারান্ডা
জবা


ঝাড়বালা


তুলসী
তাল
তিসি
তেজপাতা
তেঁতুল


থানকুনি


ডালিম


নীলকন্ঠ
নার্গিস
নিশিন্দা
নীলপদ্ম
নীলাম্বরী


পান্থপাদপ
পুন্নাগ
পুদিনা
পপি


ফুখজিয়া


ব্রহ্মকমল
বাবলা
বিলাই খামচি
বিষকাটালী
বেলি


মালঞ্চ
মেথি


রক্তকরবী
রক্তকমল
রুদ্রপলাশ
রক্তচিত্রক
রক্তরাগ
রঞ্জনা বা রক্তচন্দন
রূপসী


সর্পগন্ধা
স্বর্ণলতা


শিয়ালকাঁটা



হাঁটুপানির জলদস্যু আলো দিয়ে লিখি

হিমু এর ছবি

অনেকদিন আগে একবার এক্সপ্লোরারস ক্লাবের কয়েকজন মিলে দল বেঁধে গেলাম বলধা গার্ডেনে। সাইকী আর সিবিলি, দুই সেকশনেই ঢুকেছিলাম ছবি তুলতে। বরুণ বকশীর তোলা সেই ছবিগুলি দেখি তাঁকে বলে ফ্লিকারে দেয়ার ব্যবস্থা করবো।

বোটানিক্যাল গার্ডেনে দল বেঁধে চক্কর মারলে বেশ কিছু ভালো ছবি তোলা যেতে পারে।



হাঁটুপানির জলদস্যু আলো দিয়ে লিখি

ষষ্ঠ পাণ্ডব এর ছবি

আমি কিন্তু আগেই অনুরোধ করেছিলাম বলধা গার্ডেন, রমনা পার্ক আর কার্জন হলে দল বেঁধে প্রত্যেকটিতে চারদিন করে সময় ব্যয় করতে। এই তিনটা জায়গা কাভার করলে বিশাল কাজ হয়ে যাবে।

ঢাকার বিভিন্ন স্থানে যে বানিজ্যিক নার্সারীগুলো আছে সেগুলোও কিন্তু ভালো সোর্স।



তোমার সঞ্চয়
দিনান্তে নিশান্তে শুধু পথপ্রান্তে ফেলে যেতে হয়।


তোমার সঞ্চয়
দিনান্তে নিশান্তে শুধু পথপ্রান্তে ফেলে যেতে হয়।

মূলত পাঠক এর ছবি

অ/আ:
অ্যাকাসিয়া/আকাশমণি (Acacia/Salus populi)
অ্যালামন্ডা (বাংলা নাম জানা নেই, হলুদ ফুল: Allamanda cathartica L., ছবি এখানে)

উ:
উচ্ছেফুল (ছবি)

জ:
জাম্বুরা/বাতাবিলেবু'র ফুল (ছবি)

প:
পেয়ারাফুল (ছবি)

ব:
বার্ড অফ প্যারাডাইস (লিঙ্ক, বাংলা নাম কী?)
ব্লিডিং হার্টস (Clerodendrum, এর বাংলাও জানা নেই, ছবি)

র:
রাজচম্পক (Magnolia grandiflora)

স:
স্বর্ণচাঁপা (ছবি)
সুপারির ফুল (ছবি)

একটা খুব কাজের ওয়েবসাইটের নাম দিই, নানাভাবে সার্চ করা যায়, প্রচলিত ও বিজ্ঞানসম্মত নাম দিয়ে, ফুলের রঙ দিয়ে, গাছের ধরণ দিয়ে (লতা/গুল্ম ইত্যাদি):
http://www.flowersofindia.net/

আজ আর সময় নেই, দৌড় মারি।

হিমু এর ছবি

যেসব ফুলের বাংলা নাম জানা নেই, সেগুলোর বাংলা নাম দেয়া যায় না? ব্লিডিং হার্টসের বাংলা হিসেবে রুধিরা কেমন শোনায়?



হাঁটুপানির জলদস্যু আলো দিয়ে লিখি

মূলত পাঠক এর ছবি

ভিক্ষু বুদ্ধদেবের বইটায় অনেক বাংলা নাম আছে। দেশে রয়েছে বইটা, নইলে টপাটপ এখুনি দিয়ে দিতাম।

একটা নাম মনে পড়ছে, গ্লাডিওলাস-এর: বৈজয়ন্ত।

হাসান মোরশেদ এর ছবি

রুধিরা মানে কি? রক্তাক্ত হৃদয় ?
-------------------------------------
জীবনযাপনে আজ যতো ক্লান্তি থাক,
বেঁচে থাকা শ্লাঘনীয় তবু ।।

-------------------------------------
জীবনযাপনে আজ যতো ক্লান্তি থাক,
বেঁচে থাকা শ্লাঘনীয় তবু ।।

মুস্তাফিজ এর ছবি

অ্যালামন্ডা

এটা কি অ্যালামন্ডা?

Golden Trumpet

...........................
Every Picture Tells a Story

মূলত পাঠক এর ছবি

একটা কনসলিডেটেড তালিকা বানিয়ে নীড়পাতার চূড়োয় টানিয়ে দিন না, আর কাউকে মাঝে মাঝে আপডেট করতে হবে। নতুন নাম দিতে গিয়ে একটা তালিকা দেখলেই হবে সেক্ষেত্রে।

রাগিব এর ছবি

এখান থেকে তালিকা নিতে পারেন - এগুলো এর মধ্যেই বাংলা উইকিতে আছে।

* অঞ্জন
* অনন্ত লতা
* অশোক

* আকন্দ

* উদয়পদ্ম
* উর্বশী
* উলট চন্ডাল

* একাঙ্গী

* কনকচাঁপা
* করবী
* কসমস
* কাঞ্চন
* কাঠ মালতী
* কাঠগোলাপ
* কুঞ্জলতা
* কুসুম ফুল
* কেয়া
* ক্যামেলিয়া

* গন্ধরাজ

* চন্দ্রপ্রভা
* চন্দ্রমল্লিকা

* ছাগল কুঁড়ি

* জাফরান

* টগর

* ডম্রুপানি

* দাঁতরাঙ্গা
* দোলনচাঁপা

* নয়নতারা
* নাগকেশর
* নীল চিতা
* নীলকন্ঠ
* নীলমনি লতা

* পদ্ম
* পারুল
* পুন্নাগ
* পেনজি

* বকফুল
* বকুল
* বনজাঈ
* বন্ধুক
* বেলি ফুল
* বোতল ব্রাশ
* বোতাম ফুল

ব আরও আছে

* ব্রহ্মকমল
* ব্লিডিং হার্ট

* মহুয়া
* মিনজিরি

* রক্তকমল
* রক্তকরবী
* রক্তজবা
* রক্তরাগ
* রঙ্গন
* রঞ্জনা
* রামসর
* রুদ্রপলাশ

* লাল সোনাইল
* লুটকি
* লুপিন

* শাপলা
* শারঙ্গ
* শিউলী ফুল

* সুখদর্শন
* স্টারগেজার
* স্বর্ণচাঁপা
* স্বর্ণচামেলী

----------------
গণক মিস্তিরি
ভুট্টা ক্ষেত, আম্রিকা
ওয়েবসাইট | কুহুকুহু

----------------
গণক মিস্তিরি
জাদুনগর, আম্রিকা
ওয়েবসাইট | শিক্ষক.কম | যন্ত্রগণক.কম

মূলত পাঠক এর ছবি

বাঃ এইটে এদ্দিন দেখিনি কেন! কত ফুল চিনলাম। থাংকু, গণকমিস্তিরি।

রণদীপম বসু এর ছবি


আমলকি
অ্যালবিজিয়া
আকরকণ্ট


ইপিল-ইপিল
ইউক্যালিপটাস


কামরাঙা
কালোজাম


খেজুর


গাব
গ্লিরিসিডিয়া


ঝিঙে


ট্যাবেব্যুইয়া


ডেফোডিল
ডেইজি


তেতুল
তাল


ধুন্দুল


পরশপিপুল
পেল্টোফোরাম
পাদাউক
পান্থপাদপ
পুত্রঞ্জীব


বেরিয়া
বেল
বনসুপারি
বাওবাব


ভেরেণ্ডা


মিলেশিয়া
মেহগিনি
ম্যাগনোলিয়া


লিয়্যুইয়া
লিচু


শিশু
শাল


স্কারলেটকর্ডিয়া
সফেদা
সীম

-------------------------------------------
‘চিন্তারাজিকে লুকিয়ে রাখার মধ্যে কোন মাহাত্ম্য নেই।’

রাগিব এর ছবি

হিমুর কল্যাণে বাংলা উইকিতে আজকের নতুন সংযোজন -

নীল শালুক

----------------
গণক মিস্তিরি
ভুট্টা ক্ষেত, আম্রিকা
ওয়েবসাইট | কুহুকুহু

----------------
গণক মিস্তিরি
জাদুনগর, আম্রিকা
ওয়েবসাইট | শিক্ষক.কম | যন্ত্রগণক.কম

রণদীপম বসু এর ছবি

রাগিব ভাই, পিতৃহীন পাতা মানে কী ? উইকির 'নয়নতারা' ফুলের পাতায় গিয়ে এই ঘোষণাটি দেখলাম ! বেশ কৌতুহল হলো !

-------------------------------------------
‘চিন্তারাজিকে লুকিয়ে রাখার মধ্যে কোন মাহাত্ম্য নেই।’

মূলত পাঠক এর ছবি

নিবন্ধগুলো যে হায়ারার্কি মেনে পোস্টেড হয়, এই নিবন্ধগুলোর সেইরকম নয় বলেই বোধ হয়। পাতা বলতে পৃষ্ঠা মীন করেছেন তো?

রাগিব এর ছবি

orphan পাতা, অর্থাৎ যেসব পাতার লিংক অন্য কোনো পাতায় নেই, তাদেরকে পিতৃহীন ট্যাগিং করেছে বট স্ক্রিপ্ট।

----------------
গণক মিস্তিরি
ভুট্টা ক্ষেত, আম্রিকা
ওয়েবসাইট | কুহুকুহু

----------------
গণক মিস্তিরি
জাদুনগর, আম্রিকা
ওয়েবসাইট | শিক্ষক.কম | যন্ত্রগণক.কম

ইফতেখার এর ছবি

কাঁটানটেঃ Amaranthus spinosus (Family: Amaranthaceae)
শাকনটে/নটেশাকঃ Amaranthus viridis (Family: Amaranthaceae)

সবজান্তা এর ছবি

আগ বাড়ায়া একটা কথা কই, রাখতে পারুম নাকি জানি না। সামনের সপ্তাহে অনেকগুলা ফুলের ছবি তোলার জন্য ফুলপ্রেমী একজনের লগে আমার পয়েন্ট এন্ড শুট ক্যামেরাটা নিয়া বাইর হমু...

প্রতিটা ফুলের সাথে তো ছবি লাগবে, তাই না ?


অলমিতি বিস্তারেণ

মূলত পাঠক এর ছবি

বাঃ এই হলো খাঁটি সুখবর, তোলেন ছবি। আমার এখানে দেশী ফুল কমই আছে, না হলে আমিও একটা ট্রাই মারতাম।

পটলবাবু [অতিথি] এর ছবি

পুষ্পতরু কথাটি দিয়ে ফ্লোরা মিন করলেন মনে হলো - শিওর নই।

সেই প্রসঙ্গে ছোট্টো একটা তথ্য, সাড়ে চোদ্দর এই ফিগারটা আরো বেশি সরকারীভাবে।

India is rich in flora. Available data place India in the tenth position in the world and fourth in Asia in plant diversity. From about 70 per cent geographical area surveyed so far, 47,000 species of plants have been described by the Botanical Survey of India (BSI), Kolkata. The vascular flora, which forms the conspicuous vegetation cover, comprises 15,000 species.

[ রেফারেন্স : ইন্ডিয়াডটগভডটইন ( জাতীয় পোর্টাল ) ]

আপনাদের উদ্যোগকে আন্তরিক শুভেচ্ছা।

হিমু এর ছবি

ছয়টি পাতা যোগ করলাম। বাকিরা ঝাঁপিয়ে পড়ুন।



হাঁটুপানির জলদস্যু আলো দিয়ে লিখি

হিমু এর ছবি

কাঁঠালিচাঁপার ওপর এক পাতা যোগ করলাম। ফোটোগ্রাফারদের সক্রিয় অংশগ্রহণ দরকার এখন।



হাঁটুপানির জলদস্যু আলো দিয়ে লিখি

মুস্তাফিজ এর ছবি


কার্পাস তুলা Gossypium herbaceum

সজনে ফুল


লজ্জাবতী

...........................
Every Picture Tells a Story

সৈকত পোদ্দার এর ছবি

আমি অনেক গুলো ফুলের ফটো তুলেছি কিন্তু অধিকাংশ এর নাম জানিনা

প্রথমত কেউ নিচে দেওয়া লিংক এর ফুলের নাম টা বলবেন।
http://www.flickr.com/photos/saiket/4613888917/

আমার সব গুলো ফুলের তোলা ছবি এখানে
http://www.flickr.com/photos/saiket/sets/72157623281414023/detail/

কৃষ্ণচূড়া, ডালিম ছাড়া বাকি ফুল গুলো এর নাম কেও দিলে খুশি হব।

ষষ্ঠ পাণ্ডব এর ছবি

একটু অপরিচিত ফুলের ছবি তোলার সময় ফুলের সাথে গাছ আর পাতার ছবিও তুলুন তাতে সনাক্তকরণ সহজ হয়। আপনার দেয়া ফুলের ছবি থেকে গাছ-পাতা কিছু বোঝা যাচ্ছেনা। এমনকি ফুলটা কত বড় সেটাও বোঝা যাচ্ছেনা। সেগুলোর ছবি থাকলে সাথে দিয়ে দিন, কেউ না কেউ ফুলটা ঠিকই চিনিয়ে দিতে পারবেন।



তোমার সঞ্চয়
দিনান্তে নিশান্তে শুধু পথপ্রান্তে ফেলে যেতে হয়।


তোমার সঞ্চয়
দিনান্তে নিশান্তে শুধু পথপ্রান্তে ফেলে যেতে হয়।

টিউলিপ এর ছবি

আমার মনে হচ্ছে এটা মুসান্ডা। এটা মিলিয়ে দেখতে পারেন।
___________________

রাতের বাসা হয় নি বাঁধা দিনের কাজে ত্রুটি
বিনা কাজের সেবার মাঝে পাই নে আমি ছুটি

___________________

রাতের বাসা হয় নি বাঁধা দিনের কাজে ত্রুটি
বিনা কাজের সেবার মাঝে পাই নে আমি ছুটি

সৈকত পোদ্দার এর ছবি

@ ষষ্ঠ পাণ্ডব, আমি ছবিগুলো এই পোষ্ট দেখার আগেই তুলেছি, পরবর্তী সময় পাতা সহ তোলার চেষ্টা করব,

@ টিউলিপ , আপনি সঠিক , আমি আপনার দেওয়া নাম এর সূত্র ধরে নেট এ সার্স দিয়ে অফিসিয়াল নামটা পেলাম Mussaenda philippica (white)
http://commons.wikimedia.org/wiki/Category:Mussaenda_philippica

@সবাই
নার্সারী থেকে,
এই ফুলটার নাম বলল কোটব্রাস
http://www.flickr.com/photos/saiket/4634679452/1

এবং এই ফুলটার নাম বলল ডেণ্টাস
http://www.flickr.com/photos/saiket/4614434545/

কিন্তু ওদের দেওয়া নাম এর সূত্র ধরে ইন্টারনেত এ তেমন কিছু পেলাম না।

তবে একটা ফুলের নাম নিশ্চিত করলাম তা হলো Euphorbia milii
http://www.flickr.com/photos/saiket/4613892459/

Chandan Chandra Deb  এর ছবি

ফুলটি দেখলাম, নামটি ডায়ান্থাস (এ পরিবারে অনেক প্রজাতির ফুল আছে।)

benuborna এর ছবি

ধন্যবাদ এই লিঙ্কের মাধ্যমে আমাদের দেশের অনেক ফুলের নাম জানলাম কিন্তু ছবি না দেয়ায় অপূর্ণতা রয়ে গেলো। আশা করি ভবিষ্যতে ছবি সংযোজন করবেন।

পাঠক এর ছবি

ওরে আমি তো অনেক আগে থেকেই বানায়া রাখছি

http://www.somewhereinblog.net/blog/mohdfiendblog

ষষ্ঠ পাণ্ডব এর ছবি

আমার দুর্ভাগ্য এবং অক্ষমতা যে আমার পোস্টটা দিয়ে আপনাকে কিছুই বোঝাতে পারি নাই।


তোমার সঞ্চয়
দিনান্তে নিশান্তে শুধু পথপ্রান্তে ফেলে যেতে হয়।

রু (অতিথি) এর ছবি


চা


ঘাস ফুল

ষষ্ঠ পাণ্ডব এর ছবি

সংযোজনের জন্য ধন্যবাদ।

১. চা ফুল দেখিনি কখনো। কারো কাছ থেকে শুনিওনি। এটা দেখতে কেমন বলতে পারেন?

২. ঘাস ফুল নামটা একটু বিভ্রান্তিকর। ঘাস নয় এমন গাছের ফুলকে ঘাস ফুল বলা হয়, আবার ঘাসেরও ফুল হয়। বাংলাদেশে প্রাপ্ত ঘাসের অনেকগুলো প্রজাতি থাকায় তাদের ফুলগুলোও ভিন্ন ভিন্ন রকমের হয়।


তোমার সঞ্চয়
দিনান্তে নিশান্তে শুধু পথপ্রান্তে ফেলে যেতে হয়।

Sumaia এর ছবি

ভূইচাঁপার কোন ছবির লিংক কি পাওয়া যাবে?

অতিথি লেখক এর ছবি

অনেক অনেক ফুলের নাম শিখলাম। আচ্ছা, আমাদের অঞ্চলে ‘কানশিষা’ বলে একটা ফুল হয়; ছোট ছোট গাছে খুব ছোট ছোট সাদা ফুল। সুন্দর, ছবি নেই বলে দিতে পারছি না। আর শাকের ফুলও যদি ফুলই, তাহলে উত্তরবঙ্গে ‘বাবুর শাক’ আর ‘রসুন শাক’ বলে দু’টো শাক পাওয়া যায়। সুন্দর হলদে রঙের ফুল হয় এই শাকগুলোতে।

দেবদ্যুতি

নতুন মন্তব্য করুন

এই ঘরটির বিষয়বস্তু গোপন রাখা হবে এবং জনসমক্ষে প্রকাশ করা হবে না।
Image CAPTCHA