যারা এখনো সচল হননি বা হতে চান

সন্দেশ এর ছবি
লিখেছেন সন্দেশ (তারিখ: মঙ্গল, ১৮/০৯/২০০৭ - ৯:১০অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

প্রিয় সচলেচ্ছুবৃন্দ,

আপনাদের অনেকেই নিবন্ধন করছেন নিয়মিত। কিন্তু কারও সদস্যপদই সক্রিয় হচ্ছে না। তাদের প্রতি সনির্বন্ধ অনুরোধ, দয়া করে অতিথি লেখক হিসেবে পোস্ট ও মন্তব্য করতে থাকুন।

লেখায় অবশ্যই নিজের নিবন্ধিত নাম জানাবেন। অন্যথায় লেখা প্রকাশের যোগ্যতা হারাবে। মডারেশনের পরেই লেখা প্রকাশিত হবে। নিয়মিত ও সুলেখকদের দ্রুত সচল করা হবে।

আপনাদের ধন্যবাদ

অতিথি লগইন: "অতিথি লে...প্রিয় সচলেচ্ছুবৃন্দ,

আপনাদের অনেকেই নিবন্ধন করছেন নিয়মিত। কিন্তু কারও সদস্যপদই সক্রিয় হচ্ছে না। তাদের প্রতি সনির্বন্ধ অনুরোধ, দয়া করে অতিথি লেখক হিসেবে পোস্ট ও মন্তব্য করতে থাকুন।

লেখায় অবশ্যই নিজের নিবন্ধিত নাম জানাবেন। অন্যথায় লেখা প্রকাশের যোগ্যতা হারাবে। মডারেশনের পরেই লেখা প্রকাশিত হবে। নিয়মিত ও সুলেখকদের দ্রুত সচল করা হবে।

আপনাদের ধন্যবাদ

অতিথি লগইন: "অতিথি লেখক" বা "guest_writer",
পাসওর্য়াড: guest

বিশদ


মন্তব্য

রিয়াদ এর ছবি

নিবন্ধন করছি বেশ কিছুদিন হল, দ্বিতীয় আরেকটা ই-মেইল দিয়ে নিবন্ধন করলাম, কিন্তু সচল হতে পারলাম না । একজন বলল ব্যক্তিগতভাবে যোগাযোগ করে নিতে হবে! নিয়মটা পছন্দ হল না । নিবন্ধনের অপেক্ষা বা নিজেরে অতিথি ভাবতে হয়তো বেশীদিন ভালো লাগবো না ।
~

অতিথি লেখক এর ছবি

হায় ... কত কত গিট্টু ... লেখা শুরুর আগেই ... তবে অভ্র বাবা বেশ ভাল ...লিখে লিখে আমার বেশ আনন্দ হচ্ছে ...

হিমু এর ছবি

মাহবুবুল হক এবং রিয়াদ, আপনারা দয়া করে অতিথি ব্লগার হিসেবে পোস্ট দিন। পোস্টের শেষে যে নিক নিয়ে নিবন্ধন করেছেন তা উল্লেখ করুন। অবশ্য আপনারা যখন এ পোস্টে মন্তব্য করেছেন তখন পোস্টের বক্তব্য আপনাদের কাছে পরিষ্কার বলেই মনে হচ্ছে।

সচলায়তনে রেজিস্ট্রেশনের সাথে সাথে অ্যাকাউন্ট সচল করা হয় না। আমরা আপনাদের লেখা পড়ার জন্য সাগ্রহে অপেক্ষা করছি, অতিথি হিসেবে পোস্ট করুন প্লিজ। ব্যক্তিগত যোগাযোগের প্রয়োজন নেই, আপনার লেখাই আপনার দূত।


হাঁটুপানির জলদস্যু

অতিথি লেখক এর ছবি

মৃত্যুঞ্জয় নাম দিয়ে আজ নিবন্ধন করলাম, এখন অনুমোদন পাবার অপেক্ষায় আছি। কখন পাবো কে জানে!!!

হিমু এর ছবি

মৃত্যুঞ্জয়, আপনি দয়া করে নিয়মিত পোস্ট করুন এবং মন্তব্যে অংশ নিন। ধন্যবাদ।


হাঁটুপানির জলদস্যু

অতিথি লেখক এর ছবি

দু'দিন আগে সারওয়ার চৌধুরী নামে রেজিস্টার করেছি। কবে নাগাদ অকে হতে পারে?

হিমু লিখেছেন:
মৃত্যুঞ্জয়, আপনি দয়া করে নিয়মিত পোস্ট করুন এবং মন্তব্যে অংশ নিন। ধন্যবাদ।

আরিফ জেবতিক এর ছবি

@ নতুন সদস্যপদ প্রদানের দায়িত্বপ্রাপ্ত সচলবৃন্দ:

আমার মনে হয় একটি নির্দিষ্ট সংখ্যক পোস্ট ও কমেন্টের কথা উল্লেখ করা যেতে পারে,যে অন্তত: এতোটি পোস্ট ও কমেন্টের পর নিক এর রেজিষ্ট্রেশন হবে কি হবে না সেই সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।

তাহলে উদ্যোগী নতুন সদস্যদের পক্ষে বুঝতে এবং একটি আইডিয়া পেতে সুবিধা হয়।

সোহেল চৌধুরী এর ছবি

আমি পুরোপুরি একমত। সচলায়তনে নিবন্ধন করেছি অনেকদিন আগে। প্রথম কিছুদিন দু'একটা লেখা দিয়েছি যার কিছু প্রকাশও হয়েছে। তারপর আস্তে আস্তে ধৈর্য হারিয়ে ফেলেছি। একবার মনে আছে, একটা ব্যাপারে সচলায়তনে ই-মেইলে যোগাযোগ করে ছিলাম। আজ পর্যন্ত তার কোন উত্তর পাইনি। অন্ততঃ একটা অটো-রিপ্লাই থাকতে পারতো। আজকের বিশ্বে ভালমানের যেকোন প্রতিষ্ঠানে যখনই যোগাযোগ করা হয়, একটা রিপ্লাই পাওয়া যায়। সচলায়তনও সেরকম রেস্পন্সিভ হবে আশা করে ছিলাম। যাইহোক, সচলায়তনে প্রায় প্রতিদিনই আসি, কিন্তু অতিথি হিসেবে লগ-ইন করতে ভাল লাগেনা। সম্ভবতঃ আমি সচলায়তনের সদস্য হওয়ার যোগ্য নই। আমার এ নিয়ে তেমন কোন আক্ষেপও নেই।

অতিথি লেখক এর ছবি

আরিফ জেবতিক,
আপনাকে ধন্যবাদ মন্তব্যের সাড়া দেওয়ার জন্য। আপনার মন্তব্য পড়ে কেবল "অনুভবের বিষয়" ছাড়া আর কোনো মানদণ্ড খুঁজে বের করতে পারলাম না। বিষয়টা আরেকটু খোলাসা করে বললে আমার জন্য সুবিধা হত আরকি। যাক কথা প্যাঁচানোর ধান্দা আমার নেই। এখানে লেখালেখি করার ইচ্ছা আছে। দেখি কতগুলো লেখা বা মন্তব্য পারস্পরিক "অনুভবের বিষয়" টিকে নিক কনফার্মের ক্ষেত্রে ভূমিকা রাখতে সাহায্য করে।

শুভেচ্ছাসহ
জুয়েল বিন জহির

আরিফ জেবতিক এর ছবি

"অনুভবের বিষয়" ছাড়া আর কোন মানদন্ড নেই,তাই সেটি খুজেঁ বের করতে পারেন নি ।

আপনার আগ্রহে আরেকটু খোলাসা করা যাক ।

একজন "সদস্য হতে ইচ্ছুক " লেখককে তার নিজের মতো করেই এখানে পোস্ট করতে হবে ।সাধারন নিয়মে যে লেখকের লেখার সাথে অন্যরা আগে থেকে পরিচিত নন,তেমন লেখকদের ক্ষেত্রে ৭/৮টি পোস্ট প্রকাশিত হলেই বাকি পাঠকরা বুঝে নেন ।
তার চাইতে বড়ো বিষয় হচ্ছে অংশগ্রহনের ক্ষেত্রে সেই লেখকের ইচ্ছাটাকে বড়ো করে দেখা হয় ।আপনি বাকি লেখকদের সাথে কমিউনিকেট করছেন কি না,সচলে আপনি নিয়মিত লিখছেন/কমেন্ট করছেন কি না এসব দেখে বুঝা যায় যে আসলেই আপনি সচলায়তনের সদস্য হওয়ার জন্য পুরো আগ্রহী কি না ।অনেককেই দেখা গেছে হুট করে রেজিষ্ট্রেশন করার পর আর দেখা নেই ।উনি কিন্তু কমিউনিটি থেকে নিজেও লাভবান হলেন না,কমিউনিটিকেও লাভবান করলেন না ।আমরা সচলায়তনে সত্যিকার "সচল" সদস্য চাই ।

এখানে লেখালেখির আগ্রহ প্রকাশ করে আপনি আমাদেরকে সম্মানিত করেছেন ।গভীর আগ্রহে আপনার লেখা পড়ার জন্য অপেক্ষা করবো ।

অতিথি লেখক এর ছবি

আমি একজন অতিথি কিন্তু আমার বিশ্বাস, সচলের নিয়মটা ঠিক আছে, আরিফ ভাইয়ের সাথে একমত, অর্জন করে নেয়া সদস্যপদে যে আনন্দ থাকবে, তার মজা অন্যরকম। কাজেই আমার সহঅতিথি ভাইরা, ধৈর্য ধরে লেখুন, সবুরে মেওয়া ফলবে।

সাইফ

অতিথি লেখক এর ছবি

জানিনা কাকে উদ্দেশশ করে লিখতে হবে,
হে গায়েবী সচলায়তনের কর্মকর্তারা,
আমি বেশ কিছুদিন ধরে অতিথি লেখক হিসেবে লিখছি।আমার লিখা- পাপ,মা,একটি আদিম ছবি,সমীকরণ এই চারটি কবিতা সচলায়তনে প্রকাশিত হয়েছে।(ভাই কবিতা গুলা কিন্তু সেইরকম,খুব ভাল ,চরম, বিলিভ মি...প্লিজ...না না বিশ শাশ করতেই হবে...)

যাই হোক,এখন প্রতিদিন অতিথি হয়ে থাকতে ভাল্লাগেনা।প্রতিদিন রাতে ভাইগ্না যিফ্রান(যিফ্রান খালেদ)কে কবিতা শুনাই।যিফ্রান মহা বিরক্ত ,"মামা কানের কাছে ভন ভন বন্ধ করেন।" আমি বলি,তোর সচলায়তন আমার এক্টার বেশী লিখা নেয় না,তাহলে বাকিটা তোকেই শুনতে হবে।ভাইগ্না কষটো করে শুনে যায়।

ভাইগ্না যানে আজ রাতে কবিতা না শুনলে,কাল তো নতুন মোবাইল এর লাইন,ইন্টারনেট এর লাইন,bank account,লন্ডনের অলি গলি কিছুই চিনা হবেনা,কিছুই কিনা হবে না।

বুঝলেন ভাই কবিরা হবে শান্ত,ভদ্র,মানুষের জন্য আকুল,ব্যকুল।আমি হলাম ধংসাত্তক,একেবারে মঈন ইউ আহমেদ।

এখন,সচল করবেন না যিফ্রানের উপর অত্তাচার চল্বে?(এইটা একটা ধমক ছিল)

-নিঝুম
(ভাই বানানে প্রচুর ভুল,আমার অভ্র তে প্রব্লেম হছছে)

অতিথি লেখক এর ছবি

প্রতœ-ডায়রীর পাতা
মৃদুল মাহবুব

কি হলো জীবন কে অন্য কোন ঝাপসা ভাষায় অনুবাদ করে! শুধু সংকেত নেমে আসে; মানুষতো চলে যায় এপার ওপার ভিন্ন বোধেÑ এই হলো অজন্ম কষ্ট লঙ্ঘন, অনুতাপে উল্টে ওঠা। সাইরেন বাজে, আমি কি শব্দ হয়ে পার হচ্ছি বিজন নগর, রাজকীয় দার।

ঘুমন্ত মানুষকে কত ভাবেই না মারা যেতে পারেÑ হাতুড়ি পেরেক ব্লেড চকমকি পাথরের প্রাচীন কুঠার বালিশ মদের বোতল, এমনকি চিহ্নহীন বরফের চাকু। স্বপ্নে তাকেও খায়ানো যেতে পারে বিষাক্ত দুধের ীর। নীল পাখি ঝোপের আড়ালে পা থেকে খুলছে নখের হিংস্রতাÑ আমাদের অন্ধকারে হেঁটে এলো সফল নগর পতনের গান, অপূর্ব অনিচ্ছা। ত্বকের নিচেই রক্ত স্রোতসিনী, ঢেউ, নিহত হাঙরের শিরদাঁড়াÑ ঘসে ঘসে মুছে ফেলা যায় আমার বিষণœ কঙ্কালের স্কেচ। ভেসে এসেছ ভাঙন, কোথায় লুকাবো ঝাপসা ভাষা, ‘রক্ত কেদ’।

...........................................................................................

কবিতা পাঠ করুন। সদস্যপদ নিয়ে এখনো ভাবছি না কিছু। কাল থেকে অথবা পরে কোন দিন ভেবে দেখবো।

mridulmahbub@gmail.com

অতিথি লেখক এর ছবি

ল্ইানে আছি, সময় হলে ডাক দিয়েন প্রিয় মডুবৃন্দ

রেনেসা
-

অতিথি লেখক এর ছবি

আপনার নাম : চিরহরিত্
আমার ইমেইল : চিরহরিত্@জিমেইল.কম (chiroharit@gmail.com)

বাংলা ভাষার একটি ওয়েব ঠিকানার সন্ধান, মনে মনে অনেক দিন থেকেই খুঁজে ফিরছিলাম, সচলায়তন বুঝি সেই প্রয়োজনীয়তা একটু দেরী করে হলেও বুঝতে পেরেছে। আর এই একটি কারনে সচলায়তন কে জানাই অসংখ্য সূভেচ্ছা।

" আমারে তুমি অশেষ করেছ, এমনি লীলা তব,
ফুরায়ে ফেলে আবার ভরেছ, জীবন নব নব।

ধন্যবাদান্তে
চিরহরিত্

অচেনা এর ছবি

সেলাম।

আনোয়ার সাদাত শিমুল এর ছবি

ক্যাম্নে কি?

সৌরভ এর ছবি

ক্যামনে কী?


আবার লিখবো হয়তো কোন দিন

অপর্ণা সান্যাল এর ছবি

সচল হইনি কেন ?.....

অতিথি লেখক এর ছবি

আজ সোমবার। দিনটি স্মরনীয় হয়ে থাকবে।

অতিথি লেখক এর ছবি

কবে হব সচল?

হিমু এর ছবি

মন্তব্য আর পোস্ট দিতে হয় যে আগে?

লিখুন প্রাণ খুলে।


হাঁটুপানির জলদস্যু

প্রকৃতিপ্রেমিক এর ছবি

প্রিয় সচলেচ্ছু ভাই/বোন:

আপনাদের আগ্রহ দেখে আমি সত্যিই নিজেকে ভাগ্যবান মনে করছি। আপনারা যদি এই পোস্ট ভালোমতো পড়ে থাকেন তাহলেই বুঝতে পারবেন সচলায়তন নিয়মিত (এবং অবশ্যই ভাল) লেখকদেরই খুঁজছে। (এটা একান্তই আমার নিজের মন্তব্য, সচলায়তনের মডারেটরদের মতামত বা অবস্থানের সাথে এর বিন্দুমাত্র সম্পর্ক নাই। আমি তাঁদের কাউকে আজ পর্যন্ত সামনাসামনিও দেখিনি)

তাই, আপনারা নিয়মিত লেখা বা মন্তব্য পোস্ট করতে থাকুন। মোট কথা সচলায়তেন অংশগ্রহণ করুন। একটা ব্যাপার হয়তো ঠিক যে পরিচিত লেখকের লেখাই পাঠক আগে পড়ে। আপনারা সেই অর্থ খানিকটা পিছন থেকে দৌড় শুরু করবেন, তাতে সন্দেহ নাই। তাই কিছু কৌশল অবলম্বন করুন যেমন--

(ক) প্রথমত: আকর্ষণীয় শিরোনাম দিন। শিরোনামই কিন্তু আসল, তারপরে লেখক (অন্তত আমার কাছে তাই)
(খ) প্রথম প্যারাতেই লেখার মূলভাব দুই/তিন লাইনেই দিয়ে দিন।
(গ) আপনার নিজের কথাই লিখুন, আপনার অভিজ্ঞতার কথাই লিখুন।
(ঘ) এবং ভুলেও আপনার লেখা একই সাথে অন্য কোথাও (যেমন অন্য ব্লগে) প্রকাশ করবেন না। তাহলে কিন্তু যেই লাই সেই কদু হবে।

হয়তো ভাবছেন এত কড়াকড়ি কেন? আচ্ছা, আমার নিজের ভাবনা দিয়েই এর উত্তর দেই: একটা কথা বিশ্বাস করবেন কীনা জানিনা, সচল হয়েছি অনেকদিন হয় কিন্তু এখনো মনে হয় সচল না থাকলে এখানে যোগ দেয়ার স্বার্থকতা থাকবেনা। এরকম অনুভুতির কেন জন্ম হল তার উত্তরেই রয়েছে আপনার প্রশ্নের উত্তর। একটু রহস্যময় জবাব হয়ে গেল, হা হা ...

মোট কথা হলো নিয়মিত লিখা দিন, আমরা আয়েশ করে পড়ি, আর আপনি ক্রেডিট পেতে থাকুন। একদিন অজান্তেই দেখবেন ঠিকঠিকই সচল হয়েছেন।

হিমু এর ছবি
অতিথি লেখক এর ছবি

আমি সামিউল ইসলাম। বাংলা একটি সাইট দেখতে ভালই লাগে। তাই নাম নিবন্ধন করলাম। কিন্তু একি ঝামেলা। এখন অপেক্ষা করতে হবে সচলায়তন সচল হবার জন্য। জিনিসটা একেবারেই ভাল লাগল না।

হিমু এর ছবি

প্রিয় সামিউল ইসলাম,

সচল হবার জন্যে অতিথি লেখক হিসেবে আপনাকে কিছু লিখতে হবে, মন্তব্যে অংশগ্রহণ করতে হবে। তা না হলে এই অপেক্ষার প্রহর বেশ দীর্ঘ হতে পারে বলে আশঙ্কা করছি। শুধু নাম নিবন্ধন করে আপনি সচল হতে পারবেন না সম্ভবত।

ধন্যবাদ।


হাঁটুপানির জলদস্যু

অতিথি লেখক এর ছবি

এই নিয়ে তিনটি ব্লগ লিখলাম। একটাতে নাম দিতে ভুলে গেলাম। ক্যাডেট_ক্যাডেট লেখাটি। আর আমি কবে সচল হতে পারবো তার কোন সীমারেখা কি আছে। আপনাদের দেয়া পাসওয়ার্ডটি ভুলে গেছি।

অতিথি লেখক এর ছবি

অতিথি হিসেবে লেখা দিলাম; মডারেশনের তালিকায় আছে বোধহয় ।
লেখার শেষে নাম, ইমেইল দিতে বলা হয়েছে; কর্তৃপক্ষের সুবিধার জন্য নাম, ইমেইল লেখার শেষে জুড়ে দিতে আপত্তি নেই; তবে লেখাটা ব্লগে সবার জন্য উন্মুক্ত হলে মনে হচ্ছে নামের পাশাপাশি ইমেইলটিও থাকবে। এভাবে উন্মুক্ত ইমেইল আইডি প্রকাশে সবাই স্বাচ্ছন্দবোধ করতে নাও পারে ।
মডারেশনের সময় কর্তৃপক্ষ যাতে ইমেইল এর অংশটি খেয়াল করেন।

-------------------
আইরিন সুলতানা

অতিথি লেখক এর ছবি

মডারেশন প্যানেলে গতি দরকার..সেই ৮ তারিখে একখানা পোস্ট দিয়েছি অতিথি লেখক হিসেবে সেটা এখনও ছাড়পত্র পায়নি । এভাবে চলতে থাকলে সদস্যপদ পেতে কতদিন লাগবে সেটা ভেবে কূল-কিনারা পাচ্ছিনা ............ !!!!!

-------------------
আইরিন সুলতানা

হিমু এর ছবি

প্রিয় আইরিন সুলতানা,

সাধারণত একটি লেখা ২৪ ঘন্টার মধ্যেই মডারেশনের মুখোমুখি হয়। ২৪ ঘন্টা পরও যদি আপনার লেখা প্রকাশিত হতে না দেখেন, ধরে নিতে পারেন সেটি প্রকাশের জন্যে অনুমোদিত হয়নি।

কোন লেখা প্রকাশিত না হওয়ার সম্ভাব্য তিনটি কারণ উল্লেখ করছি।

১. সচলায়তন বেশ কিছু বিষয়ের প্রতি শ্রদ্ধা পোষণ করে, এবং লেখাটির বক্তব্য এই বিষয়গুলির প্রতি বিদ্বেষ, বিদ্রুপ বা আক্রমণমূলক।

২. লেখাটির উপাদানে এমন কিছু আছে যা কপিরাইট সংক্রান্ত জটিলতার সৃষ্টি করে।

৩. লেখাটির যথেষ্ঠ গুণগত মানসম্পন্ন নয়।

আপনার প্রতি অনুরোধ রইলো, অতিথি লেখক হিসেবে নিয়মিত লিখে যাবার। সচলায়তনে সদস্য হবার জন্যে একটু ধৈর্যধারণের জন্যে সবিনয় অনুরোধ জানাচ্ছি।

ভালো থাকুন। ধন্যবাদ।


হাঁটুপানির জলদস্যু

গোলন্দাজ এর ছবি

আমি লেখক নই। ভাল লিখা আমাকে দিয়ে মনে হয় হবেনা। তবে আমি যে একজন ভাল পাঠক তাতে সন্দেহের কোন অবকাশ নাই। এখন বলুনতো আমি সচল হব কিভাবে?

গোলন্দাজ

হিমু এর ছবি

প্রিয় গোলন্দাজ,

আপনি একটি অপেক্ষাকৃত জটিল প্রশ্ন করেছেন। সচলের সদস্য হিসেবে আমরা প্রত্যাশা করি সেসব লেখকদের, যাঁরা নিয়মিত ভালো লেখেন। সচলের সকলেই পাঠপিপাসু, তাই সকলকেই বাকিদের এই তৃষ্ণামোচনের ভার নিতে হয়। সচল হবার জন্যে আপনার কাছেও আমাদের একই প্রত্যাশা রইলো। ধন্যবাদ।


হাঁটুপানির জলদস্যু

নন্দিনী এর ছবি

আমি নন্দিনী ॥ অনেকদিন ধরে সচলায়তনের পাঠক, (পাঠিকা?!) এবার লেখক হবার ইচছা জাগিছে মনে ! ঠাই পেলে ধন্য হই ।

সুমন চৌধুরী এর ছবি

আপনাকে এবং আপনার সুন্দর ইচ্ছাকে স্বাগতম। আমাদের অতিথি লেখকের ইউজারনেম পাসওয়ার্ডের সদব্যবহার করলেই আমরা আপনার লেখার সাথে পরিচিত হতে পারবো।



ঋণম্ কৃত্বাহ ঘৃতম্ পীবেৎ যাবৎ জীবেৎ সুখম্ জীবেৎ

নন্দিনী এর ছবি

স্বাগতম জানানোর জন্য ধন্যবাদ । অবশ্যই লেখার চেষ্টা করব, অন ত্র কিছু কিছু লিখিও । দেখা যাক কতখানি কি হয় ! মানুষের অসাধ্য কিছুই নাই । হাসি
নন্দিনী

কারে কয় মানুষ ?

অতিথি লেখক এর ছবি

ami nastiker dharmakatha. ekhane bangla lekhar system ki?? mous die lekha khub jhamelar kaj. kivabe sohoje banglai type korte parbo? ekhane ki fonetik e type kora jai?

jahok, ami aj nibondhon korlam.
kobe je sochol hobo jani na,
amar ekta proshno silo.......
ami somewhereinblog e likhtam, kintu oder razakar priti dekhe thakte parlam na, sob post draft koresi, segulo ki ekhane post korte parbo???

হিমু এর ছবি

কন্ট্রোল + অল্ট + পি চাপ দিলে ফোনেটিক লিখতে পারার কথা। পি এর পরিবর্তে ইউ চাপ দিলে ইউনিজয়।

আপনার অন্য কমিউনিটি ব্লগে প্রকাশিত পুরনো লেখা এখানে আর পোস্ট না করার অনুরোধ করছি।


হাঁটুপানির জলদস্যু

অতিথি লেখক এর ছবি

অনেকদিন থেকে চেস্টায় আছি সচল হওয়ার । নিয়ম টা বড্ড কঠিন । স্যাম এ বিরক্ত । তাই চেয়েছিলাম সচলে লিখতে । উপায় কি জানান ।

রায়হান আবীর এর ছবি

ভাই নিয়মটা মোটেই কঠিন নয়। স্যাম এর মতো এটাও যেন ব্লগের পরিবর্তে ফোরাম না হয়ে যায় তাই এই নিয়মটা খুবই জরুরি। আপনি দারুন দারুন লেখা পাঠাতে থাকেন। মন্তব্যে অংশ নিন। আপনার পাঠক গড়ে তুলুন। তারপর হঠাৎ একদিন দেখবেন সচল হয়ে গেছেন। আর আগের লেখাগুলো এখানে আপলোড না করলেই ভাল। শুভ ব্লগিং।

অতিথি লেখক এর ছবি

অচল থাকতে ভালো লাগছে না। সচল হলে খুশি হতাম। উলুম্বুশ নামে নিবন্ধন করেছি। মেইল হল . লিখা কেমন তা জানিনা একটা লিখা দিয়েছিলাম গতকাল। সচল ভাইদের পছন্দ হলে হয় আর কি... আচ্ছা যেটা জানতে চাচ্ছিলাম কিভাবে বুঝব আমি সচল হলাম। সচল নিবন্ধন সচল হলে কি আপনারা আবার মেইল দিবেন?

এস এম মাহবুব মুর্শেদ এর ছবি

থেমে থাকবেন না। হাত খুলে লিখে যান। সচল হলে অটো একটা ইমেইল যাবে আপনার কাছে।

====
চিত্ত থাকুক সমুন্নত, উচ্চ থাকুক শির

একজন প্রবাসী এর ছবি

আরে অতিথি হিসেবে থাকার মজাই আলাদা

অতিথি লেখক এর ছবি

অনেক দিন থেকেই সচলায়তন পড়ি তবে আজকেই নিবন্ধন করলাম। আমার অনেক প্রিয় লেখক/ব্লগার আছেন এখানে। ভাল লাগছে। আশা করছি দ্রুত সচল হব।
--
কৈলাশ

অতিথি লেখক এর ছবি

নাস্তিকের ধর্মকথা
===============
হিমু,
আপনার জবাবটি আগে চোখে পড়েনি। (এবং আপনি যে মডারেটর আগে বুঝিনি- কেননা, আমার এ পর্যন্ত পোস্টগুলোতে আপনাকেই নিয়মিত পাঠক মনে করেছিলাম!!!)।

এবং আমি আপনার অনুরোধটি রক্ষা করতে পারিনি (আপনার অন্য কমিউনিটি ব্লগে প্রকাশিত পুরনো লেখা এখানে আর পোস্ট না করার অনুরোধ করছি। ), আসলে আমি আমার সা.ইনে মুছে ফেলা পোস্টগুলোই এখানে পোস্ট করেছি বা করছি। এজন্য আমি খুবই দুঃখিত। এর জন্য কি আমি সচল হতে পারবো না???

নতুন পোস্ট অবশ্যই এখানে আমি নিয়মিতই পোস্ট করতে থাকবো, এবং এখানকার পোস্টগুলোতেও নিয়মিত কমেন্ট করা, ডিবেটে অংশ নেয়ার ইচ্ছাও আছে (যদিও কমেন্ট সাথে সাথে না আসাতে ডিবেটে বা আলোচনায় অংশ নেয়াটা ঠিক জমে না, তাই অনেকসময় ইচ্ছা থাকলেও মন্তব্য করা হয়ে ওঠেনা!!), আশা করি- আমাকে সচল করার জন্য বিবেচনা করা হবে।

আরেকটি কথাঃ
আমি আমার সা.ইনের পোস্টগুলো হারাতে চাই না। সেগুলো এখানে আনতে চাই (এখানকার পাঠকও সেগুলো পড়তে পারবেন- অসুবিধা কি??)- এতে কি খুব সমস্যা??? তবে, এটুকু বলছি- সা.ইনের লেখাগুলো আপাতত খুব কম দিবো, তার বদলে নতুন সব লেখা দেয়ার চেস্টা করবো।

সবশেষে দুটি প্রশ্নঃ
১। অনেকের ক্ষেত্রেই দেখা যায়- নামের জায়গায় "অতিথি লেখক" না এসে "একটি না" (যাচাই করা হয়নি)- এটা আসে। এটা কাদের ক্ষেত্রে হয়?? আমারটাও যদি এরকম করা যেত, তবে লেখার মধ্যে নাম-ইমেইলের ঝামেলা থাকতো না। এটা কি সম্ভব??
২। লেখার মাঝখানে ইচ্ছামত জায়গায় ছবি যোগ করা যায় কি করে? লেখার ফন্ট কালার চেঞ্জ করা যায় কি করে? এসব নিয়ম কোন জায়গায় গেলে পাবো??

আপনাকে অনেক ধন্যবাদ।

হিমু এর ছবি

প্রিয় নাস্তিকের ধর্মকথা,

আপনি অতিথি লেখক হিসেবে লগ ইন করে লিখছেন বলে অতিথি লেখক দেখাচ্ছে। যদি লগ ইন না করে লেখেন, তাহলে একটি নাম ব্যবহার করতে পারেন।

লেখায় চিত্রসংযোগ বা অক্ষরবিন্যাসের জন্যে জিজ্ঞাসা নামে একটি বিভাগ আছে, সাইটের একদম নিচে দেখতে পাবেন।

আপনার নিয়মিত অংশগ্রহণের জন্যে ধন্যবাদ।


হাঁটুপানির জলদস্যু

nasim এর ছবি

ড্রিমস্টোর নামে ব্লগার হয়েছি।বেশ কয়েক সপ্তাহ আগে।এখন ও এক্টিভ হয়নাই

nasim এর ছবি

সচলায়তন কতৃপক্ষ,
আপনাদের সাইটে মেম্বার হউয়ার প্রক্রিয়া দেখে খুব হাসি পেল।কতদিন হল নিবন্ধন করলাম।এখন ও কারযকর হওয়ার কোন নাম নাই।সত্যি ই হাস্যকর।বাস করেন সাইবার এর যুগে,আইপড কালচার এ, অথচ প্রক্রিয়া হল সেই ইন্টারনেট চালু হওয়ার প্রথম দিকের অবস্থা।মানুষের ব্যস্ত্ততা দিনদিন বেড়ে চলেছে।এতকিছুর পর ব্লগ করবে,তাতে আপনারা ভাগার দিয়েছেন।অথচ অন্যদিকে তাকিয়ে দেখুন,এক মিনিট এ এসব করে ফেলা যায়।একানে -ই বোজা যায় আমরা একনো কত পিছিয়ে আছি।তাই সিস্টেম পরিবরতন করুন দয়া করে।

p:s: আপনাদের ওদ্যেগটা অবশ্য compliment পাওয়ার যোগ্য।

হিমু এর ছবি

প্রিয় nasim,

আপনি হেসে চলুন প্রাণ খুলে। কিন্তু দয়া করে বানানের প্রতি যত্নবান হোন।


হাঁটুপানির জলদস্যু

প্রকৃতিপ্রেমিক এর ছবি

মজার মন্তব্য ও ততোধিক মজার প্রতিমন্তব্য। (বিপ্লব)
...............................
খাল কেটে বসে আছি কুমিরের অপেক্ষায়...

অতিথি লেখক এর ছবি

অতিথি হিসাবে কতকাল পরবাসী হয়ে থাকার পরে সচল হোয়া সম্ভব সেই ব্যাপারে একটু পরিষ্কার ধারনা দেয়া থাকলে উৎসাহ উদ্দীপনা অনেকাংশে বৃদ্ধি পাবার সম্ভাবনা দেখা দেয়....

অবশ্য উপরের আলোচনা থেক কিছুটা ধারনা হয়েছে......

যা থেক বুঝলাম অতিথি লেখেক লেখা র ধরন এবং বিষয়বস্তু , নিষ্ঠা এবং তার পূর্ব পরিচিতির বিস্তৃতি র বিবেচনা টা মুখ্য সচল হবার জন্য ........

সেই সব বিচারে আমার কতদিন লাগতে পারে সচল হতে জানতে পারি কি...অরূপ , হিমু কেউ কি বলতে পার আমাকে.....
( অরূপ যতদূর জানি তুমি এন ডি সির ১৯৯৭ ব্যাচের তাই তুমি টা ব্যবহার করলাম )

মামুন ম. আজিজ ( পথিক!!!!!!!)

অতিথি লেখক এর ছবি

বরাবর
সচলায়তন কতৃপক্ষ,
ঠিকানা অজ্ঞাত।

বিষয়: সদস্যপদের জন্য ফরিয়াদ।

জনাব,
আমি হরিপদ কেরাণী। অতিশয় নাদান একজন মানুষ। এই ব্লগের সদস্য হওয়ার নিয়ম কানুন কিছুই জানিনা। তবে দরখাস্ত করেছি। বলা হচ্ছে এটা বিবেচনাধীন। তাই আমার এই দ্বিতীয় দরখাস্তের অবতারণা।

কেরাণীগিরি করতে করতে নাড়ী,ভুরি আর ঘিলু একাকার।থাকি কিনু গোয়ালার গলিতে। বেতন পঁচিশ টাকা,খেতে পাই দত্তদের বাড়ীর ছেলেকে পড়িয়ে। এই অতিশয় মুদ্রাস্ফিতির যুগে পঁচিশ টাকায় একটা বার্ড ফ্লুওয়ালা মুরগীও জোটেনা। তাই ঘুষ দেওয়ার মতো সামর্থও নেই। নেই কোন ক্ষমতাধর মামা, চাচা কিংবা তালই। তবে পুরাতন ব্লগ "সামহোয়ারইনব্লগ" এর অনেক সদস্য আমাতে চিনতেন।

হুজুরের নিকট আমার আকুল আবেদন এই যে, আমাকে এই ব্লগের সদস্যপদ প্রদান করে সচল করা হোক। আমার খুব ইচ্ছা পুরাতন সদস্যদের সাথে আবার কোলাকুলি করি (মহিলা সদস্য ব্যতীত)।

ভবদীয়

হরিপদ কেরাণী
কিনু গোয়ালার গলি,
শেয়ালদা রেলষ্টেশন রোড,
কলকাতা, ভারত।

CC:
(১) এই ব্লগের মহামাণ্য মডারেটর
(২) পুরাতন সহব্লগারবৃন্দ অব "সামহোয়ারইনব্লগ"।
(৩) এই ব্লগ এর ভাগ্যবান "সচল" লেখক সমাজ।

অতিথি লেখক এর ছবি

অসংখ্য ধন্যবাদ।আশা রাখছি সচল হবার।
কম্পিত পদক্ষেপে শুরু হল পথচলা।

অতিথি লেখক এর ছবি

আমি ক্যামেলিয়া আলম
উপরের আবেদন, নিবেদন এবং অনুরোধগুলো আমারও
বেশ কিছুদিন হলো সচলায়তনে রেজিস্ট্রি করেছি
মাঝে মাঝে লিখি, মাঝেমাঝে কমেন্ট করি।

আর পড়ি প্রায়ই

আমার কি কোনো গতি হবে সচলায়তনে?

ক্যামেলিয়া আলম

অতিথি লেখক এর ছবি

যে বা যাঁরা মডারেটর আছেন, তাদের উদ্দেশ্যে একটিই প্রশ্ন করতে চাই? ই-মেইল এর ঠিকানা কি উন্মুক্তভাবে না দিলেই নয়?

রায়হান আবীর এর ছবি

আপনার লেখার নীচে কিংবা উপরে মেইল এর ঠিকানা দিতেই হবে এমন কোন কথা নেই। যে নামে রেজিস্ট্রেশন করেছেন সেটা দিয়ে দিন।

(আমি কিন্তু অতি সাধারণ একজন সচল।)
---------------------------------
এভাবেই কেটে যাক কিছু সময়, যাক না!

অতিথি লেখক এর ছবি

রবিন নামে রেজিস্ট্রেশন করলাম গত ১৮-০৪-০৮ তারিখে। আর প্রথম অভ্র ব্যবহার করলাম। চমঙকার বাঙলা লিখতে পারছি।ধন্যবাদ সচলায়তন।অপেক্ষায় আছি কবে নাগাদ সচল হবো?তবে নিয়মিত পড়ে যাচ্ছি-সচল হই আর না হই পড়তে তো আর কোন সমস্য নেই।

অতিথি লেখক এর ছবি

কয়েকদিন লেখা যাচাই করে সদস্যপদ দেয়ার স্টাইলটা বেশ ভাল। এতে আজেবাজে ব্লগারের ভীড় কম হবে, আশা করা যায়। আমি মাত্র এক সপ্তাহ ধরে ব্লগ লিখছি বা কমেন্ট করছি। তবে বেশিরভাব ক্ষেত্রেই কমেন্ট করে ইমেইল এড্রেস দিতে মনে থাকছে না; পুরনো অভ্যাস কী না...

রিজভী

অতিথি লেখক এর ছবি

প্রিয় মডারেটর
আমি রণদীপম বসু। সা-ইন ব্লগে নিয়মিতই লিখছি। লিখি মুক্তমনা.কম ও সাতরং.অরগ-এও। ইচ্ছে ছিল সচলায়তনেও লিখবো। কিন্তু আপনাদের জটিল নিয়মের মধ্যে মন্তব্য করতে গিয়ে ঘোল খেয়ে ভয় পেয়ে গেছি। রেজিস্ট্রেশান করেছি তো ঠিক, ই-মেইল এ আপনাদের হিব্রুপাঠ না হয় পরে উদ্ধার করবো। কিন্তু নতুন পোস্ট যে দেবো এরকম কোন নতুন পোস্টের বা ব্লগের অপশন চোখে পড়ছে না, সেটা কি আমি নির্বোধ বলেই ?
মন্তব্যের পরেও হয়তো উপায় খুঁজবো। পেলে তো ভালোই। না পেলেও আপনাদের সবাইকে লেখক পাঠক সহ অভিনন্দন ও ধন্যবাদ।
রণদীপম বসু

obanchhito এর ছবি

আমি চেষ্টা করছি অতিথি হিসেবে লগ ইন করতে। কিন্তু কোন এক কারণে সফল হচ্ছি না।

The username অতিথি লেখক has not been activated or is blocked.

রুপী মেসেজ পাচ্ছি। আমি কি কোথাও ভুল করছি?

অতিথি হিসেবে লেখা দেবার উপায় কি?

তাছাড়া যদিও আমার নিবন্ধন সচল হয়নি , আমি অবাঞ্ছিত নামে লিখতে গেলেই বলছে-

The name you used belongs to a registered user.

and also i am not being able to use my email address that i used to register..
.. একটু সাহায্য করলে অসীম উপকৃত হব।

মিশু এর ছবি

আজ আমি প্রথম একটি পোস্ট করলাম। বিমান বন্দরের মূর্তি নিয়ে। দয়া করে মডারেশন ধ্রুত করে বাধিত করবেন।

সন্দেশ এর ছবি

আপনার লেখাটি খুব সল্প সময়ের মধ্যে আরেকটি ব্লগ প্লাটফরমে প্রকাশিত হওয়ায় সচলায়তনে প্রকাশ করা গেল না। দুঃখিত।

অতিথি লেখক এর ছবি

আমি অতিথি হিসেবে লিখতে পারছি এই মন্তব্য কিন্তু এখানে আমি কি করে আমার নাম লিখব এবং সাথে সাথে ইমেইল কি করে জানাতে পারি? এখানে কি সরাসরি এখানেই লিখে দিব? নাকি অন্য স্থানে লিখতে হবে? এই ব্যপারে কিছু লিখলে ভালো হত।
ধন্যবাদ

লীন [অতিথি] এর ছবি

বুদ্ধিটা ভালোই। সবখানেই স্প্যামিং বেশী দেখি। কিন্তু এখানে না।
সচলের নিয়ম কড়া হইলেও আমার ভালো লাগছে। যদিও আমাকে এখনও সচল করা হয় নাই। তবু কমেন্ট তো করতে পারছি। ধইন্যবাদ।

মিশু [অতিথি] এর ছবি

"Sorry, but your quota for blog has been exceeded. Please try again in ২৪ ঘন্টা" -এই ‌message-টার মানে কি?

আমি কি শুধু একটাই পোস্ট দিতে পারব? নাকি একদিনে অতিথি একাউন্ট থেকে একটাই পোস্ট প্রকাশিত হয়?

মিশু

অতিথি লেখক এর ছবি

[পান্থ বিহোস] আমি এ পর্যন্ত দুটি লেখা পোস্ট করেছি। একটি অন্য ব্লগেও দিয়েছিলাম। কিন্তুক তখন জানতাম না অন্য ব্লগের লেখা এখানে দেয়া যায় না। দ্বিতীয় লেখাটিতে ইমেইল এড্রেস দিইনি। কারণ জানতাম না সাথে ইমেইল এড্রেস দিতে হয়। এখন বোধহয় আগের চেয়েও বেশি বুঝতে শিখেছি। তাই নতুন পোস্ট দেয়ার ইচ্ছে। মন্তব্য করেছি বেশ কয়েকটি। কিছু প্রকাশও হয়েছে। তবে কম।

bihoshk@yahoo.com

অতিথি লেখক এর ছবি

সদস্য হবার নিয়মটি মোটেও পছন্দ হলো না।

মামুন হক [অতিথি] এর ছবি

হন হন কইরা এক বছর হইয়া গেল নিবন্ধন করছি , চুল দাড়িতে পাক ধরে গেল আপেখখায় থাইকা কিন্তু সচল হইতে পারলাম না। এই পাকনামীর মানে টা কি? সস্তা ধান্দাবাজী বাদ দিয়া সবার জন্য এই কামরাটা উন্মুক্ত করে দিল কার জাত যাইব?

হিমু এর ছবি

হে দামী ধান্ধাবাজ মামুন হক, আপনি চক্ষু দুটি মেলে সচলের প্রথম পাতায় দেয়া লিঙ্কে নতুন অতিথিদের জন্য করণীয়গুলো পড়ে দেখুন। আর যদি এই গলাবাজি সম্বল করেই সচল হতে চান, তাহলে বরং বিদায় হোন। খুদাপেজ।



হাঁটুপানির জলদস্যু আলো দিয়ে লিখি

সিরাত এর ছবি

সেইরকম একটা কমেন্ট হিমু ভাই, যত বারই পড়ি তত বারই হাসি!

অতিথি লেখক এর ছবি

হে দামী ধান্ধাবাজ মামুন হক

যদি এই গলাবাজি সম্বল করেই সচল হতে চান, তাহলে বরং বিদায় হোন। খুদাপেজ।

গড়াগড়ি দিয়া হাসি

-----------------
সুবোধ অবোধ

অতিথি লেখক এর ছবি

কেমনে কেমনে জানি ১৫ টা লেখা প্রকাশিত হয়ে গেছে। তবুও আইজ পর্যন্ত একখান একাউন্টের দেখা পাইলাম না!! ওঁয়া ওঁয়া
মডু ভাই রা আমারে ভালু পায় না!!! ওঁয়া ওঁয়া
বহুত ধৈয্য নিয়া অপেক্ষা করিচ্চি!!! চিন্তিত

--------------------------
সুবোধ অবোধ

নীড় সন্ধানী [অতিথি] এর ছবি

সচল হবার দরকার কী? অতিথি তো অধিক সম্মানিত....আদর আপ্যায়ন বেশী...হে হে। তবে লেখা পোষ্ট করার সাথে সাথে চা-বিস্কুটের ব্যবস্থা থাকলে মন্দ হোত না। সাথে বিড়ি ফ্রী।

যারা সচল হননি বলে হতাশায় ভুগছেন তাদের জন্য সচল না হবার কয়েকটা উপকারিতার কথা বলি। সচল না হলে-
১. লেখার মান উন্নত করা যায়।
২. আরো ভালো লেখার প্রচেষ্টা থাকে।
৩. লেখায় বৈচিত্র আনার আগ্রহ থাকে।
৪. চিন্তাশক্তির প্রসার ঘটে

মোদ্দাকথা এখানে সচল হতে যে বাধা, সেটাই লেখক (আমি বলি শব্দশিল্পী) হবার পথে সবচেয়ে বড় বন্ধু। আমি নিজে কয়েকশো ব্লগ লিখেছি বিভিন্ন ব্লগে। কিন্তু আমার পছন্দের মানসম্পন্ন লেখা দশটিও হবে না। আমার পছন্দের যে ব্লগার এখানে বা অন্যব্লগে আছে, তাদের অসাধারন চমৎকার লেখাগুলো পড়লে লেখালেখি ছেড়ে দিতে ইচ্ছে হয়। কিছু কিছু ব্লগার এত সুন্দর বাংলা কী করে যে লেখে! মনে হয় না আরো হাজারটা ব্লগ লিখলেও আমি তাদের মতো সুন্দর বাংলা লিখতে পারবো। তবু কী লেখালেখি ছাড়তে পেরেছি? ছাড়িনি। কারন অনুভুতি(আমি বলি চুলকানি) প্রকাশের ভালো মাধ্যম লেখালেখি।

তাই হাতখুলে, প্রানখুলে লিখুন। শব্দশিল্পী হতে পারুন বা না পারুন, অনুভুতির তো একটা গতি হবে!

[বি:দ্র:-ভাইডি, বেশী জ্ঞানের কথা বলে ফেললাম না তো? চোখ টিপি ]

মামুন হক [অতিথি] এর ছবি

শ্রদ্ধেয় হিমু ভাই,
অগ্র পশ্চাত না ভাবিয়া, সচলের কার্য পদ্ধতি সম্বন্ধে সম্মুক অবগত হওয়ার চেষ্টা না করিয়াই সচল হইবার অভিপ্রায়ে আপনাকে পেরেশান করার জন্য আমি অত্যন্ত দুঃক্ষিত।
অতিথি হিসেবে আপনাদের এখানে বেশ আছি এবং আপনাদের সদয় আতিথেয়তা পুর্ন মাত্রায় উপভোগ করিতেছি।
নিজ গুনে ক্ষমা করবেন।

অতিথি লেখক এর ছবি

আচ্ছা অতিথি লেখকের কোন লেখা যদি প্রকাশিত না হয় তবে কি তা মুছে ফেলা হয়? কারণ আমি গতকাল একটি লেখা দিলাম সেটা কীর্তিকলাপে একবার দেখেছিলাম তার পরপরই আর খুঁজে পাইনি এমনকি প্রকাশিতও হয়নি। একটু জানালে ভাল হয়। ধন্যবাদ

অতিথি লেখক এর ছবি

আমার মতামতের জন্য আমি দুক্ষিত. কিন্তু না বলে পারলাম না.

আপনাদের রেজিস্ট্রেশন প্রণালীটা অতি, অকম্পিউটারসুলভ। স্প্যাম প্রতিরোধে হয়তো কার্যকর, কিন্তু অতিথি লেখক হিসেবে সবাই লিখবে, এটা আসলে ঠিক মেনে নিতে পারছি না। প্রত্যেকে নিজ একাউন্টে এ লগ ইন করে লিখতে পারা উচিত. দরকার হলে একতম প্রাথমিক পর্যায়ের ইউজার দের নাম অতিথি লেখক হিসেবেই দেখাবে. পরে তাদের প্রমোশন হলে নাম আসল নামে দেখাবে.

আর যদি সবাই কে লেখক মর্যাদা না দিতে চান, অন্তত লেখক আর পাঠকের আলাদা একাউন্ট রাখুন. এবং পাঠক বা লেখক একাউন্ট রাখবার জন্য কিরকম একটিভিটি দরকার তা অঙ্কের ফিগারে উল্লেখ করুন . আপনাদের নিবন্ধনের আর লেখা জমা দেবার এই অদ্ভূত নিয়ম জানলে হয়তো অনেকেই নিবন্ধন করতো না , তাই আপনাদের উচিত "নিবন্ধন করুন" লিঙ্ক এ ক্লিক করলে আগে এই নিয়ম গুলা দেখানো.

আর আপনাদের reject লেখা গুলো কে আর্কাইভ করার একটা উদ্যোগ থাকলে ভালো হত . (অবশ্যই যেগুলা স্প্যম নয় )

উপদেশ দেবার জন্য দুঃখিত।

----------------------------------------------------------
সাজিদ মুহাইমিন চৌধুরী
me(at)sajidmc.net
www.sajidmc.net

বেগুনী-মডু এর ছবি

আপনার উষ্মার কথা জেনে আন্তরিক ভাবে দুঃখ প্রকাশ করছি। আপনার আপত্তি সত্বেও এই পরীক্ষিত পথ থেকে সচলায়তন সরে আসবে না। সচলায়তনের মডারেশনের মূল উদ্দেশ্য বুঝতে হয়তো ভুল হচ্ছে আপনার।

খেয়াল করবেন, সচলে "লেখক" বা "পাঠক" বলে কিছু নেই। আছেন শুধুই অতিথি, অতিথি সচল, এবং পূর্ণ সচল। যে-কেউ লিখতে বা পড়তে পারেন, এতে বাধা নেই।

সচলায়তন অতিথিদের উদার ভাবে স্বাগত জানায়। নিয়মিতই এখানে নতুন অতিথিদের লেখা প্রকাশিত হচ্ছে। সচলে কিছুটা সময় কাটালেই দেখতে পাবেন কতটা আন্তরিক ভাবে তাঁদের বরণ করে নেওয়া হয়।

আতিথ্যের সময়টুকু কারও পরীক্ষা নেবার জন্য নয়। এই সময়টুকু দেওয়া হয় পরষ্পরকে ভালো ভাবে চেনার জন্য। লেখার সাহিত্যগুণ বিচারে কেউ পূর্ণ সচল হন না। এর পেছনে পর্যাপ্ত পরিমাণ সুস্থ মিথষ্ক্রিয়া ও সচলের মেজাজ বুঝতে পারার ভূমিকাই বিবেচ্য। এই পরিচয়পর্বটিই সচলের সুস্থ পরিবেশের ভিত্তি।

লেখনীর পরীক্ষা নেওয়া হয় না বলেই অতিথিদের পুরনো লেখা প্রকাশ করা হয় না। সচল আপনাদের কাছ থেকে মানসম্পন্ন, অনন্য লেখা প্রত্যাশা করে।

এই পরীক্ষিত ও পরিবেশবান্ধব পথেই সকলে সচলায়তনের দুয়ার অতিক্রম করছেন। আশা করি আপনিও কালে এর মর্ম উপলব্ধি করবেন। অন্যথায় আমাদের অপারগতার জন্য দুঃখ প্রকাশ করছি।

সচল থাকুন, সচল রাখুন।

অতিথি লেখক এর ছবি

হমম আমি পরে আরেকটু ঘুরে অবশ্য নিজেই বুঝতে পেরেছিলাম বেপারটা. লেখা সরাসরি না প্রকাশ হওয়াতে কিছুটা বিরক্ত হয়েছিলাম , এবং বিরক্ত অবস্থাতে পোস্ট করাটা উচিত হয় নি . সেজন্য আন্তরিক ভাবে দুখিত. আশা করি অনন্য লেখা দিয়ে সচল হতে পারবো.

তবে, টার্মস আন্ড কন্ডিশন এর কথাটা আসলেই উল্লেখ করলে ভালো হত. বেশির ভাগ সাইটে এ ব্যবস্থা রয়েছে. এবং এতেকরে প্রাথমিক ভাবে যারা সচল এর ভাবাদর্শের সাথে একমত নন তারা আর signup করবে না।

----------------------------------------------------------
সাজিদ মুহাইমিন চৌধুরী
me(at)sajidmc.net
www.sajidmc.net

অতিথি লেখক এর ছবি

লিখতে পারার মাঝে একধরনরে আনন্দ কাজ করে, সচল হবার বিষয়টা যদিও আপেক্ষিক নয়।
সচল হলে লেখক আরো বেশী সাচ্ছন্দ্য বোধ করবে।

==============================
রুবেল শাহ্

নাজমুস সামস [অতিথি] এর ছবি

অনেকিদন হাচল মানে হাফ সচল হয়ে আছি। সচল হতে চাই। কবে হবে সচলফাক?
নাজমুস সামস

অতিথি লেখক এর ছবি

sachalayatan এর পক্ষ থেকে বলা হয়েছে mail address গোপন রাখা হবে। কিন্তু আবার অতিথি লেখকদের বলা হয়েছে লিখা অথবা কমেন্ট এর শেষে নাম আর mail address দিতে। কথাটা স্ববিরোধী হয়ে গেল না???

আমি ভেবেছিলাম হয়ত moderation এর পর mail address টা show করা হবে না।

বর্ণ

 নৈশী(guest_writer) এর ছবি

আমি নিয়মিত অসংখ্য ভুল করে করে খুড়িয়ে খুড়িয়ে অচল অতিথি লেখক হয়েছি । নিজের অজ্ঞতা দূর করার জন্য আপনাদের মেইল করলে সাহায্য পেতে পারি? এ পর্যন্ত যেভাবে আমি লগইন করেছি এখন করতে গিয়ে পারলাম না। কি হলো বুঝতে পারছি না। লেখা শেষে ইমেইল জুড়ে দেয়া কী জরুরী?

নৈশী।

অনুপম ত্রিবেদি এর ছবি

অননলাইনে অনেক ব্লগ পেজ পাওয়া যায়, যেখানে লিখলেই কেউ লেখক হয়ে যায়। আসলে ব্যপারটা অন্যরকম এই সচলায়তনে (আমার ধারনা)। আপনি কতটুকু মান সম্মত লিখেন, মন্তব্য করেন & আপনার লেখা গুলো SUBMIT করার গতি কতটুকু সেটাই এখানে মূল বিবেচ্য।

আমি ব্যক্তিগত ভাবে এই নিয়ম এর একজন সমর্থক। লিখুন, মন্তব্য করুন & লেখা চালিয়ে যান, সচল হতে খুব বেশি অপে্ক্ষা করতে হবেনা।

-----------------------------------------------------------------------------
সকলই চলিয়া যায়,
সকলের যেতে হয় বলে।

==========================================================
ফ্লিকারফেসবুক500 PX

অতিথি লেখক এর ছবি

ভন্ড_মানব বলছি

আমি নিবন্ধন করেছি গতকাল।এক খানা লেখা পোস্ট ও করলাম অতিথি লেখক হিসাবে।কিন্তু লেখা টা যে কই পোস্ট হলো তা আর খুঁজ়ে পাচ্ছি না :(।আমার লেখা টি কোথায় পোস্ট হলো তা কি কেউ বলবেন? আর আমার লেখার ব্যাপারে কোন মন্তব্য আসলে তা কোথা থেকে দেখতে পারবো?

সচল কারো কাহ থেকে উওরের আশায় থাকলাম।নয়তো উৎসাহে ভাটা পরতে সময় লাগবে না কিন্তু খাইছে
ধন্যবাদ।

প্রকৃতিপ্রেমিক এর ছবি

আমি যতটা জানি সে মোতাবেক আপনার লেখা এখন 'কিউ'তে আছে। কোন এক মডু ওটা পড়বেন, তারপর ছাড়পত্র দিবেন হাসি ততক্ষণ অপেক্ষা করতে হবে। প্রকাশ হলে প্রথম পাতাতেই প্রকাশ হওয়ার কথা। তখন সবাই পড়তে ও মন্তব্য করতে পারবে।

ভন্ড_মানবের লেখা পড়তে মঞ্চায়।

অতিথি লেখক এর ছবি

বুঝতে পারছি আমার প্রথম লেখাটির কপালে 'ঘচ্যাৎ' ই জুটেছে। যাই হোক আমি চেষ্টা জারি রাখছি। তবে একটা কথা পোস্ট বা মন্তব্যের সাথে ই-মেইল ঠিকানা জুড়ে না দিলেই কি নয়।

ধন্যবাদ।

সন্দেশ এর ছবি

নিবন্ধিত নিকটি উল্লেখ করবেন।

অতিথি লেখক এর ছবি

আমি দুটি লেখা গত চার পাঁচ দিনের মধ্যে পাঠিয়েছি।এর কোনটিই 'আমার কীর্তিকলাপ' এ দেখছি না।তবে কি লেখা গুলো ইতিমধ্যে বাতিল হয়ে গেছে নাকি 'কিউ'তে আছে? ইয়ে, মানে...
এক বুক আশা নিয়ে জবাবের অপেক্ষায় থাকলাম। হাসি

ভন্ড_মানব

সন্দেশ এর ছবি

অতিথিরা লেখা সংরক্ষণ করার কয়েক ঘন্টার মধ্যেই তা প্রকাশিত বা অপ্রকাশিত হয়। সর্বোচ্চ ২৪ ঘন্টার পরও যদি প্রকাশিত না হয়, তাহলে ধরে নিতে হবে, তা প্রকাশ করা হবে না।

উৎসাহ হারাবেন না, লিখতে থাকুন।

অতিথি লেখক এর ছবি

কমেন্ট গুলা পইড়া বুঝলাম অনেক কিসু যা আগে বুঝি নাই! এখন শান্তি লাগতাসে হাসি

মেঘনাদ সচলায়তন ৯১