মেঘ আর বৃষ্টির কথোপকথন - ২

চশমাওয়ালি এর ছবি
লিখেছেন চশমাওয়ালি [অতিথি] (তারিখ: মঙ্গল, ১৮/০৮/২০০৯ - ৮:০০অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

একটা চটকানা দিব।
এইটা কী ধরনের কথা?
এইটা কী ধরনের কাজ?
মানে? নিজের বউকে আদর করা নিষেধ নাকি?
ইলেক্ট্রিসিটি চলে গেলে অন্ধকারে গায়ে হাত দিলে সেটাকে আদর বলে না, ছোটলোকি বলে।
বাহ্ বিয়ে করা বউ, অন্ধকার আর আলোতে কী?
তেমন কিছু না - এইবার তো খালি গালি দিলাম এর পর কখনো চড় থাপ্পড় খেলে নালিশ করতে এসো না।
মানে কী? আমি কি পাশের বাড়ির মেয়ের গায়ে হাত দিয়েছি যে চড় থাপ্পড় খেতে হবে!
শোন এটাকে বলে রিফ্লেক্স। মেয়েরা অন্ধকারে কিংবা ভীড়ের মধ্যে স্বাভাবিক ভাবেই ভীষন সচেতন হয়ে থাকে। তখন গায়ে হাত পড়লে জামাই না রাস্তার লোক বোঝার আগেই চড় থাপ্পড় শুরু হয়ে যাবে মনে রেখ।
আমার মনে রাখার দরকার নাই। আমি তো আর অন্য কারো সাথে এমন করতে যাচ্ছিনা।
থাক্ আর ঢং করতে হবে না। সাহস থাকলে যে সব মেয়েদের সাথেই করতে সেটা বুঝতে আমার বাকি নাই। বউ এর সাথে তো আর সাহস লাগে না তাই সব বাহাদুরি এইখানে।
তুমি আমাকে কী ভাব?
তুমি যা তাই ভাবি।
আমি কী?
তুমি একটা অসভ্য ছোটলোক। বাইরে বাইরে ভালোমানুষী দেখাও আর ভেতরে ভেতরে তুমি….তুমি একটা ইয়ে । তুমি আসলে খুব নির্দয় একটা ছেলে - ছোট বাচ্চাদের একদম দেখতে পারো না।
ওরে বাবা এর মধ্যে আবার ছোট বাচ্চা আসলো কেমন করে?
সত্যি কথা চাপা থাকে না। এইরকম হুটহাট বের হয়ে পড়ে।
তোমার মাথা। আমার তো মটুসটু ফর্সা বাচ্চা ভালই লাগে।
মিথ্যে কথা।
কেন?
তা না হলে আমি এতবার মানা করার পরেও তুমি শুনলে না কেন?
কী?
বল্লাম না আজ কিছু লাগবে না। তুমি তো শুনলে না।
বৃষ্টি, এত অবুঝ হও কেন তুমি মাঝে মাঝে? আমরা কী এখনি এত বড় দায়িত্ব নেওয়ার জন্যে তৈরি?
অবশ্যই তৈরি।
সব কিছুতেই জেদ করলে চলে না।
জেদের কী দেখলে এখানে? আমি জানি আমি তৈরি । তুমি ছোট বাচ্চা পছন্দ কর না তাই তুমি তৈরি না।
ফালতু কথা বলো না। সবকিছু তোমার একার ইচ্ছেয় করতে চাও। আমি এখন এসব ঝামেলা চাই না।
আমি চাই।
তাহলে যা করার একাই কর। আমাকে টান কেন!
বাহ্। একা একা কি বাচ্চা হয়?
এই তো বুঝতে পারছ। ব্যাপারটা দুজনকেই চাইতে হয়।
বেশ তো। তুমি না চাইলে আমি একাই বাচ্চা বানাব। বল কেমন চাই তোমার? নীল চোখ-ফর্সা না চিংকু না কি নরমাল বাংলাদেশি?
সবকিছু কে টুইষ্টেড করে ফেলা একটা অভ্যাস হয়ে গেছে তোমার।
বা রে তুমি কিছু করবে না আবার আমি চেষ্টা করলেও চলবে না - স্বার্থপর একটা!
ছেলেমানুষী করো না।
আমার জীবনে চাওয়া পাওয়ার কিছু নেই। সবকিছু তোমার ইচ্ছে মত। আসলে বাইরে যে যাই বলুক বাংলাদেশে মেয়েদের জন্যে সময়টা থেমে আছে বেগম রোকেয়ার আমলেই। স্বামীর আদেশেই সব!
তুমি যে এত সিরিয়াস তখন তো আর বুঝি নাই। আমাকে আরেকটু বুঝিয়ে বলতে; জোর করতে। আমার তো জোরাজুরি করতে ভালই লাগে।
ইস্‌সি রে! জোর করলে তুমি কত রাজি হতে। কোনদিন পেরেছি?
সত্যি আজকে মনে হয় রাজি হয়েই যেতাম।
তাই আজকে সত্যি রাজি হতে?
নিশ্চয়ই হতাম।
তাহলে শোন, সবগুলো প্যাকেট আগেই আমি পিন দিয়ে ফুটো করে রেখেছিলাম। একদম বাতিল হয়ে গেছে সব! ওগুলো দিয়ে বেলুনও ফোলাতে পারবে না আর!


মন্তব্য

শাহেনশাহ সিমন এর ছবি

গড়াগড়ি দিয়া হাসি

বেচারা বাচ্চা! বড় হয়ে শের শুনবেঃ

না তুম শায়ের হো না শায়েরকা ভাতিজা....নাতিজা খাইছে

_________________
ঝাউবনে লুকোনো যায় না

শাহেনশাহ সিমন এর ছবি

গড়াগড়ি দিয়া হাসি

বেচারা বাচ্চা! বড় হয়ে শায়ের শুনবেঃ

না তুম শায়ের হো, না শায়েরকা ভাতিজা... নাতিজা খাইছে

_________________
ঝাউবনে লুকোনো যায় না

অতিথি লেখক এর ছবি

খুবই মজা পেলাম।

সাজিয়া
shazia.shahnaz[at]gmail.com

অরন্য এর ছবি

বেশ মজা পেলাম লেখাটা পড়ে, চালিয়ে যান...

জি.এম.তানিম এর ছবি

ওরে!

গড়াগড়ি দিয়া হাসি
----------------------------------------------------------------
কাচের জগে, বালতি-মগে, চায়ের কাপে ছাই,
অন্ধকারে ভূতের কোরাস, “মুন্ডু কেটে খাই” ।

-----------------------------------------------------------------
কাচের জগে, বালতি-মগে, চায়ের কাপে ছাই,
অন্ধকারে ভূতের কোরাস, “মুন্ডু কেটে খাই” ।

সবজান্তা এর ছবি

বাহ ! দারুণ ঝরঝরে আপনার লেখার হাত !

চলুক

লেখায় পাঁচ তারা।


অলমিতি বিস্তারেণ

চশমাওয়ালি এর ছবি

আপনাদের মন্তব্যের জন্য ধন্যবাদ।
লিখতে ভয় লাগে, বাংলা বানান আর বাক্য গঠনে খুব অপরিপক্ক আমি। এখানে লিখতে পেরে কী যে উপকার হচ্ছে আমার সে আমি জানি আর জানে আমার আল্লায়। কারন সচলের পাঠকরা বহুত সেয়ানা, ভুলভ্রান্তি হলে মোটেও ছেড়ে কথা কয়না হাসি

---------------------------------------------
ল্যাসিক করাতে ভয় পাই আর লেন্স ভাল লাগে না।

---------------------------------------------
ল্যাসিক করাতে ভয় পাই আর লেন্স ভাল লাগে না।

সুলতানা পারভীন শিমুল এর ছবি

দেঁতো হাসি

...........................

সংশোধনহীন স্বপ্ন দেখার স্বপ্ন দেখি একদিন

...........................

একটি নিমেষ ধরতে চেয়ে আমার এমন কাঙালপনা

এস এম মাহবুব মুর্শেদ এর ছবি

ভালো হয়েছে। চলুক

====
চিত্ত থাকুক সমুন্নত, উচ্চ থাকুক শির

ইশতিয়াক রউফ এর ছবি

খুশি হয়ে গেছিলাম আমার প্রিয় খাইষ্টা লেখিকার লেখা দেখে। ভেবেছিলাম পড়বো না এখন। প্রিভিউটুকু পড়ে ঢুকে পড়লাম। এখন ভ্যাক-ভ্যাক করে হাসছি আর বাকিরা অবাক হয়ে দেখছে। জট্টিল লেখা। এতো ঝরঝরে আর "জীবনমুখী"! চোখ টিপি

শুধু পাঁচ তারায় হবে না, প্রিয় পোস্টেও রাখলাম। ঠিক করেছি সচলের সব খাইষ্টা লেখার একটা তালিকা/সংকলন বানাবো। খাইছে

চশমাওয়ালি এর ছবি

ইশতিয়াক ভাই, তারা পেয়ে আর আপনার মন্তব্যে অনেক খুশি হলাম। কিন্তু কথাটা কি "প্রিয় খাইষ্টা লেখিকার লেখা" হবে নাকি "প্রিয় লেখিকার খাইষ্টা লেখা" হবে? মাইন্ড করব কিনা বুঝতে পারছি না। চিন্তিত

---------------------------------------------
ল্যাসিক করাতে ভয় পাই আর লেন্স ভাল লাগে না।

---------------------------------------------
ল্যাসিক করাতে ভয় পাই আর লেন্স ভাল লাগে না।

ইশতিয়াক রউফ এর ছবি

ঐ হইলো। আমি খাইষ্টা লেখার বিশেষ অনুরক্ত পাঠক তো, তাই এটা অনেক বড় প্রশংসা হিসেবেই বলা। মাইন্ড করার কোনোই কারণ নাই। অধমের বলায় ভুল ছিলো, স্বীকার করে নিচ্ছি। দ্বিতীয়টা আগেই হয়ে গেছেন লেখার গুণেই। বানান ভুল নেই, ঝরঝরে লেখা, উলটা আমাকেই মন্তব্য লেখার সময় সাবধান থাকতে হয়... নাহ, অনিকেত দা' এখানে ঢুঁ মারলে আপনাকে লাখ খানেক তারা দিয়ে ভাসিয়ে দেবেন... দেঁতো হাসি

মুস্তাফিজ এর ছবি

চশমাওয়ালি লিখেছেন:
"প্রিয় খাইষ্টা লেখিকার লেখা" হবে নাকি "প্রিয় লেখিকার খাইষ্টা লেখা"

চিন্তিত

...........................
Every Picture Tells a Story

অতন্দ্র প্রহরী এর ছবি

দারুণ লাগল। খুবই মজার হো হো হো

কথোপকথন থামাবেন না। সিরিজ চলুক...

অতিথি লেখক এর ছবি

মজার তো!

ধন্যবাদ সুন্দর লেখার জন্য।

দুষ্ট বালিকা এর ছবি

ওগো মিতা... ফাটিয়ে দিয়েছেন... [আরও ভালো ভাবে বলতে চাইলে অবশ্য বলতে হবে ফুঁটিয়ে দিয়েছেন...:P] গড়াগড়ি দিয়া হাসি

---------------------
নামে কি'বা আসে যায়...

**************************************************
“মসজিদ ভাঙলে আল্লার কিছু যায় আসে না, মন্দির ভাঙলে ভগবানের কিছু যায়-আসে না; যায়-আসে শুধু ধর্মান্ধদের। ওরাই মসজিদ ভাঙে, মন্দির ভাঙে।

মসজিদ তোলা আর ভাঙার নাম রাজনীতি, মন্দির ভাঙা আর তোলার নাম রাজনীতি।

হিমু এর ছবি

এই পোস্টের একটু নিচে আরেকটা পোস্ট আছে। শিরোনাম হচ্ছে, বাংলাদেশের জনসংখ্যা সম্পদ নাকি বোঝা। একটু ওপরে আরেকটা পোস্ট আছে, তার শিরোনাম, জনসংখ্যার ভারে বাংলাদেশ। এইবার বুঝলাম ক্যাম্নেকী।



হাঁটুপানির জলদস্যু আলো দিয়ে লিখি

চশমাওয়ালি এর ছবি

হিমু ভাইয়ের মত বস মানুষের বুঝতে এতক্ষণ লাগলে তো চিন্তার কথা।
হাসি

---------------------------------------------
ল্যাসিক করাতে ভয় পাই আর লেন্স ভাল লাগে না।

---------------------------------------------
ল্যাসিক করাতে ভয় পাই আর লেন্স ভাল লাগে না।

পান্থ রহমান রেজা এর ছবি

গড়াগড়ি দিয়া হাসি
সৈরম মামা! চালিয়ে যান!
.....................................................................................................

আমি অতো তাড়াতাড়ি কোথাও যেতে চাই না;
আমার জীবন যা চায় সেখানে হেঁটে হেঁটে পৌঁছুবার সময় আছে,
পৌঁছে অনেকক্ষণ ব'সে অপেক্ষা করার সময় আছে।

দুর্দান্ত এর ছবি

চশমাওয়ালী তাইলে মামী না?

কিংকর্তব্যবিমূঢ় এর ছবি

চমৎকার লাগলো চলুক
................................................................................................
খাদে নামতে আজ ভয় করে, নেই যে কেউ আর হাতটাকে ধরা ...

অমিত আহমেদ এর ছবি

অবশেষে দ্বিতীয় পর্ব!

চমৎকার লেগেছে।

দু'জনের কথা আরোপিত মনে হয় না একদম। আর এই জিনিসটাই ভালো লাগে।


ওয়েবসাইট | ব্লগস্পট | ফ্লিকার | ইমেইল

s-s এর ছবি

খুব মিষ্টি - হাসি বড্ড কথোপকথন ঘেঁষা হয়ে যাচ্ছে যদিও, পূর্ণেন্দু পত্রী কি বেশি বেশি পড়া হয়:)?

মূলত পাঠক এর ছবি

খুব মজার লাগলো। পর্বে পর্বে লেখা হলেও এটা একেবারে সাবলম্বী একটা ছোটো গল্পও হতে পারে। যেমন ঝরঝরে ভাষা তেমনি রসের স্রোত।

কাজী আফসিন শিরাজী এর ছবি

খুবই মজা পেলাম... হাহাহাহাহা......

দুর্দান্ত এর ছবি

হাউ ছুইট! (এর বাংলা কি?)

চশমাওয়ালি এর ছবি

"হাউ ছুইট" এর সঠিক বাংলাটা বলতে পারব না তবে নেকু স্টাইলে "ওলে কুতুপুতু" বলা যেতে পারে।

---------------------------------------------
ল্যাসিক করাতে ভয় পাই আর লেন্স ভাল লাগে না।

---------------------------------------------
ল্যাসিক করাতে ভয় পাই আর লেন্স ভাল লাগে না।

সবজান্তা এর ছবি

হা হা হা হা...

আপনার চমৎকার রসবোধে ক্রমাগত আনন্দ পাচ্ছি। আপনি তো সাংঘাতিক !!! দেঁতো হাসি


অলমিতি বিস্তারেণ

oishi এর ছবি

oshadharon golpo!!!!!!eita amar first time shacholayoton e....ebong prothom barei fan!!!!

সুহান রিজওয়ান এর ছবি

নাউজুবিল্লাহ দেঁতো হাসি
আপামণির লেখা ভালৈসে...
কথোপকথন অতি বাস্তব ।

---------------------------------------------------------------------------
- আমি ভালোবাসি মেঘ। যে মেঘেরা উড়ে যায় এই ওখানে- ওই সেখানে।সত্যি, কী বিস্ময়কর ওই মেঘদল !!!

_________________________________________

সেরিওজার গল্প

ভুতুম এর ছবি

লেখাটা বড় দুষ্ট হয়েছে। চোখ টিপি

---------------------------------------------------------------------
সোনা কাঠির পাশে রুপো কাঠি
পকেটে নিয়ে আমি পথ হাঁটি

-----------------------------------------------------------------------------
সোনা কাঠির পাশে রুপো কাঠি
পকেটে নিয়ে আমি পথ হাঁটি

দময়ন্তী এর ছবি

গড়াগড়ি দিয়া হাসি
দারুণ৷ হাসি
হিন্দীতে একটা গালি আছে "ফাটা কন্ডোম কি অওলাদ'৷ ওর বাংলাটাও বেশ চালু৷
--------------------------------------
"নিভন্ত এই চুল্লিতে মা
একটু আগুন দে
আরেকটু কাল বেঁচেই থাকি
বাঁচার আনন্দে৷'

-----------------------------------------------------
"চিলেকোঠার দরজা ভাঙা, পাল্লা উধাও
রোদ ঢুকেছে চোরের মত, গঞ্জনা দাও'

জাহিদ হোসেন এর ছবি

লেখার ভংগীটি ভালো লেগেছে। এই জাতীয় একটা জোক পড়েছিলাম অনেক দিন আগে। শুধু কথাবার্তা দিয়ে গল্প লেখাটা বেশ কঠিন, আর তাতে সব ধরণের গল্প বলাও যায়না। পরের পর্বটির অপেক্ষায় রইলাম।
_____________________________
যতদূর গেলে পলায়ন হয়, ততদূর কেউ আর পারেনা যেতে।

_____________________________
যতদূর গেলে পলায়ন হয়, ততদূর কেউ আর পারেনা যেতে।

চশমাওয়ালি এর ছবি

আপনাদের সবার মন্তব্যের জন্যে অনেক ধন্যবাদ। আসলে এটার আর দু'টো পর্ব এখনো বাকি আছে। দেখি শেষতক এটাকে যেভাবে চাচ্ছি সেভাবে উপস্থাপন করতে পারি কিনা।

---------------------------------------------
ল্যাসিক করাতে ভয় পাই আর লেন্স ভাল লাগে না।

---------------------------------------------
ল্যাসিক করাতে ভয় পাই আর লেন্স ভাল লাগে না।

এনকিদু এর ছবি

চলুক চলুক


অনেক দূরে যাব
যেখানে আকাশ লাল, মাটিটা ধূসর নীল ...


অনেক দূরে যাব
যেখানে আকাশ লাল, মাটিটা ধূসর নীল ...

সমুদ্র এর ছবি

দারুণ হয়েছে!
আমার এক বন্ধু সত্যিকারেই "বেলুন ফোলাতো" ছোটকালে, সেই গল্প মনে পড়ে গ্যালো হাসি

"Life happens while we are busy planning it"

দৃশা এর ছবি

ঘটনা টটনা পরে... মাগার লেখার ধরণটা বেশ মজার।

দৃশা

রেনেসাঁ [অতিথি] এর ছবি

আপনার শব্দের গাঁথুনি অসাধারণ। বিশেষ ধন্যবাদ ব্যনারটির জন্য।

আশফাক আহমেদ এর ছবি

এটা জোস হইসে

-------------------------------------------------

ক্লাশভর্তি উজ্জ্বল সন্তান, ওরা জুড়ে দেবে ফুলস্কেফ সমস্ত কাগজ !
আমি বাজে ছেলে, আমি লাষ্ট বেঞ্চি, আমি পারবো না !
আমার হবে না, আমি বুঝে গেছি, আমি সত্যি মূর্খ, আকাঠ !

অতিথি লেখক এর ছবি

অসাধারণের চেয়েও বেশি কিছু।কিন্তু আপনি কই?চশমা হারায় গেল নাকি??

সুবর্ণনন্দিনী

নতুন মন্তব্য করুন

এই ঘরটির বিষয়বস্তু গোপন রাখা হবে এবং জনসমক্ষে প্রকাশ করা হবে না।
Image CAPTCHA