ছাগুচিত্র - ৩

অকুতোভয় বিপ্লবী এর ছবি
লিখেছেন অকুতোভয় বিপ্লবী (তারিখ: সোম, ০২/০১/২০১২ - ৩:৩৭পূর্বাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

জামাত-শিবির আর নয়া-রাজাকার,
এ ছাড়া কি ছাগলের খোমা নেই আর!
তাই বুঝি হয়ে থাকে! এটা তবে কী!
নতুন এক ছাগলের ছবি এঁকেছি চোখ টিপি

ছবি: 
11/11/2009 - 2:15pm

মন্তব্য

সুজন চৌধুরী এর ছবি
মুস্তাফিজ এর ছবি

হেহেহে !! মজার হৈছে!

...........................
Every Picture Tells a Story

অনার্য সঙ্গীত এর ছবি

হেহেহে !! মজার হৈছে!

______________________
নিজের ভেতর কোথায় সে তীব্র মানুষ!
অক্ষর যাপন

উচ্ছলা এর ছবি

হেহেহে !! মজার হৈছে!

অকুতোভয় বিপ্লবী এর ছবি

খাইছে

------------------------------------
সময় এসেছে চল ধরি মোরা হাল,
শক্ত কৃপাণে তুলি বরাহের ছাল।

দ্রোহী এর ছবি

খাড়ান, ভাইজানেরা বেসবল ব্যাট নিয়ে আইতাছে। দেঁতো হাসি

ত্রিমাত্রিক কবি এর ছবি

এইটা ভালৈছে ... ছাগুব্যাঙ্কে দিনে দিনে নতুন সব ছাগু জমা হইতেছে ... বড়ই দুঃখজনক

_ _ _ _ _ _ _ _ _ _ _ _ _ _ _
একজীবনের অপূর্ণ সাধ মেটাতে চাই
আরেক জীবন, চতুর্দিকের সর্বব্যাপী জীবন্ত সুখ
সবকিছুতে আমার একটা হিস্যা তো চাই

অকুতোভয় বিপ্লবী এর ছবি

হ্যাঁ, আসলেই দুঃখজনক মন খারাপ

------------------------------------
সময় এসেছে চল ধরি মোরা হাল,
শক্ত কৃপাণে তুলি বরাহের ছাল।

চরম উদাস এর ছবি

হো হো হো

রাব্বানী এর ছবি

হো হো হো

ইস্কান্দর বরকন্দাজ এর ছবি

দেঁতো হাসি

..................................................................
আমি ছুঁয়ে দিতে চাই সেই বৃষ্টিভেজা সুর...

দায়ীন (frdayeen) এর ছবি

হো হো হো

গৌতম এর ছবি

হো হো হো

.............................................
আজকে ভোরের আলোয় উজ্জ্বল
এই জীবনের পদ্মপাতার জল - জীবনানন্দ দাশ

হাসিব এর ছবি

বুয়েটের লোগোটা হয়তো সমসাময়িক ঘটনার জন্য। আসলে ঐ জায়গাটায় অন্য আরো অনেক লোগোই বসানো সম্ভব।

অকুতোভয় বিপ্লবী এর ছবি

সঠিক।
তবে বুয়েটে আমার ব্যক্তিগত অভিজ্ঞতা হল - আমি "সোনার ছেলে" গ্রুপের মধ্যে ছাগল ছাড়া খুব, খুব কমই দেখেছি।
আজকে ঈশান মার খেয়েছে নির্মমভাবে খুবই ঠুনকো কারণে। আমি হলে থাকার সময় জুনিয়র এক সোনার ছেলে পায়ে পাড়া দিয়ে গ্যাঞ্জাম বাধিয়েছিল খুবই মামুলি কারণে, প্রায় হাতাহাতি অবস্থা। আমি এক পর্যায়ে বলেছিলাম - তুই আমার রুমে আসিস, তোকে ফ্যানের সাথে ঝুলিয়ে পেটাব। তখন আরেক বন্ধুর মধ্যস্থতায় কাইজ্যা থেমেছিল।

------------------------------------
সময় এসেছে চল ধরি মোরা হাল,
শক্ত কৃপাণে তুলি বরাহের ছাল।

সা দা চো খ এর ছবি

বাহারী ছাগুদের ছবি দেখতে দেখতে নিজের আঁকা ব্লগ জগতের ছাগু সম্রাটের ছবি শেয়ার করার লোভ সামলাতে পারলাম না। হাসি

স্যাম এর ছবি

চলুক

অকুতোভয় বিপ্লবী এর ছবি

হুম।

------------------------------------
সময় এসেছে চল ধরি মোরা হাল,
শক্ত কৃপাণে তুলি বরাহের ছাল।

তানিম এহসান এর ছবি

চলুক

অনিন্দ্য রহমান এর ছবি

জনমছাগু বিবর্তনের ধার ধারে না।


রাষ্ট্রায়াত্ত শিল্পের পূর্ণ বিকাশ ঘটুক

তাপস শর্মা এর ছবি

কেয়া বাত উত্তম জাঝা!

অছ্যুৎ বলাই এর ছবি

'ছাগু' শব্দটা রাজাকারের ছাওপোনার জন্য সংরক্ষিত রাখেন, নাহলে সবই হরেদরে এক সেরে বিক্রয় হয়ে যায়, শব্দটার ধার কমে।

আওয়ামী লীগ, বিএনপির আকাম আর জামায়াতে ইসলামীর আকাম এক পাল্লায় উঠার জিনিস না। ছাত্রসংঘ আর ছাত্রদল-ছাত্রলীগের আকামও একই ট্যাগে বসে না। মুরগী মিলনের খুন আর একাত্তরের গণহত্যা দুইটা ভিন্ন জিনিস। এই দুই জিনিস এক পাল্লায় উঠালে প্রকৃত ছাগুদেরকে একটা প্ল্যাটফর্ম দেয়া হয়।

---------
চাবি থাকনই শেষ কথা নয়; তালার হদিস রাখতে হইবো

গৌতম এর ছবি

'ছাগু' শব্দটা রাজাকারের ছাওপোনার জন্য সংরক্ষিত রাখেন, নাহলে সবই হরেদরে এক সেরে বিক্রয় হয়ে যায়, শব্দটার ধার কমে।

একমত।

.............................................
আজকে ভোরের আলোয় উজ্জ্বল
এই জীবনের পদ্মপাতার জল - জীবনানন্দ দাশ

নুসায়ের এর ছবি

চলুক

অকুতোভয় বিপ্লবী এর ছবি

আওয়ামী লীগ, বিএনপির আকাম আর জামায়াতে ইসলামীর আকাম এক পাল্লায় উঠার জিনিস না। ছাত্রসংঘ আর ছাত্রদল-ছাত্রলীগের আকামও একই ট্যাগে বসে না।

আমি এই কথাটার সাথে একমত। কিন্তু আমি মনে করি ছাগু জিনিসটা আসলে ব্যাপকভিত্তিক অর্থে ব্যবহার করার জিনিস। কারণ গুণগত বিচারে কিন্তু দিনশেষে এইগুলি একই জিনিস। সেজন্যেই আমি মনে করি ছাগু শব্দটা খালি রাজাকারের ছাওদের জন্য না, কাজকামে যাদেরই গ্যাঞ্জাম থাকবে তাদের জন্যেই বরাদ্দ হবে।

------------------------------------
সময় এসেছে চল ধরি মোরা হাল,
শক্ত কৃপাণে তুলি বরাহের ছাল।

অনিন্দ্য রহমান এর ছবি

ওস্তাদ সবকিছুরে ব্যাপকার্থে ব্যবহার করাটা সেইফ না।


রাষ্ট্রায়াত্ত শিল্পের পূর্ণ বিকাশ ঘটুক

অকুতোভয় বিপ্লবী এর ছবি

কিঞ্চিৎ গ্যাঞ্জাম যে হয় না তা নয়। জেনারেলাইজেশনের চান্স ব্যাপক।

------------------------------------
সময় এসেছে চল ধরি মোরা হাল,
শক্ত কৃপাণে তুলি বরাহের ছাল।

অনিন্দ্য রহমান এর ছবি

জেনারালাইজেশন ছাগুদের প্রিয়তম অস্ত্রের একটা।


রাষ্ট্রায়াত্ত শিল্পের পূর্ণ বিকাশ ঘটুক

অকুতোভয় বিপ্লবী এর ছবি

হ।

------------------------------------
সময় এসেছে চল ধরি মোরা হাল,
শক্ত কৃপাণে তুলি বরাহের ছাল।

অনিন্দ্য রহমান এর ছবি

সহমত


রাষ্ট্রায়াত্ত শিল্পের পূর্ণ বিকাশ ঘটুক

তানিম এহসান এর ছবি

চলুক

আঁকাইন এর ছবি

চলুক হাহাহাহা দেঁতো হাসি
জটিল হইছে ছাগু হাগু গুলা হাসি

============================
শুধু ভালোবাসা, সংগ্রাম আর শিল্প চাই।

সুহান রিজওয়ান এর ছবি

গুল্লি

মৌচাকে ঢিল এর ছবি

হেহেহহে!!! চলুক! খাইছে

নতুন মন্তব্য করুন

এই ঘরটির বিষয়বস্তু গোপন রাখা হবে এবং জনসমক্ষে প্রকাশ করা হবে না।