বৃথাদিনলিপি ১

উজানগাঁ এর ছবি
লিখেছেন উজানগাঁ (তারিখ: শনি, ১০/১২/২০১১ - ৯:১১অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

০১.

পড়ছিলাম ঋতুপর্ণঘোষের সাক্ষাৎকার। কবেকার জানি না। অনেক আগের হয়তো। কথা বলছিলেন তার বিজ্ঞাপন ও ছবি বানানোর নানা অনুষঙ্গ নিয়ে। ছবিতে রং-এর ব্যবহার নিয়েও বললেন অল্প-স্বল্প। একজায়গায় জানালেন নিজের ছবিকে “ঋতুপর্ণ ঘোষের ছবি” বলে বিজ্ঞাপিত করার অনাগ্রহের কথা। বললেন, বায়ান্ন জনের ছবি কখনো ঋতুপর্ণের একার ছবি হতে পারে না। আর এক জায়গায় ক্যামেরার সামনে কখনো কাজ করবেন কী না প্রশ্নের উত্তরে স্ট্রেইট এবং খুব কনফিডেন্টলি বললেন, “না”।

MEMORIES_IN_MARCH

এই কিছুদিন হলো ঋতুপর্ণের একটা ছবি দেখলাম ‘মেমোরিজ ইন মার্চ’। ফটোগ্রাফি ভালো, অনেক জায়গায় অসাধারণ, অপার্থিব মনে হয়েছে। ছবির মূল আকর্ষণ ঋতুপর্ণ-র নিজের অভিনয় সাথে দীপ্তি নাভাল। আর হ্যাঁ ইদানিং ঋতুপর্ণের ছবিতেও স্ক্রিনের এমাথা থেকে ওমাথা অব্দি “অ্যা ফিল্ম বাই ঋতুপর্ণ ঘোষ” হরহামেশাই ঝুলে থাকতে দেখা যায়।

০২.

দীপ্তি নাভালকে আমার বিশেষ পছন্দ। অভিনেত্রী হিসাবে তিনি অসাধারণ। ‘বিউটি উইথ ব্রেইন’ বাক্যটা তার সাথে ভালোই যায়। একজন সত্যিকারের শিল্পীর জীবন অতিক্রম করছেন তিনি। ছবি আঁকা, লেখালেখি, ফটোগ্রাফি, ডিরেকশান এরকম অনেক কিছুর সাথেই তিনি সম্পৃক্ত। কিছুদিন আগে বের হল তার ছোটগল্পের সংকলন "দ্যা মেড তিব্বেতিয়ান"।

Deepti-Naval

তারও আগে বিচ্ছিন্নভাবে কিছু কবিতা পড়া হয়েছিলো তার কাব্যগ্রন্থ "ব্ল্যাক উইন্ড এন্ড আদার পোয়েমস" থেকে। নিসর্গ তাড়িত বলেলেও মনে হয় খুব একটা ভুল বলা হবে না। প্রকৃতি তার লেখায়, চিত্রকর্মে, দিনযাপনে নানাভাবে ভাগ বসিয়েছে। মানালিতে কাটানো শৈশবটা এর পেছনের অনুষঙ্গ হিসেবে আসতে পারে সম্ভবত।

দীপ্তি নাভালকে আরো জানতে ঢু মারেন এখানে


মন্তব্য

সবজান্তা এর ছবি

আপনার এরকম লেখা কি আগে পড়েছি ? মনে করতে পারছি না। এরকম টুকরো টুকরো মনোলগ কিংবা চিন্তার প্যারাগ্রাফ ব্যাপারটা আপনার লেখাতে বোধহয় আগে দেখিনি !

লেখা ভালো লেগেছে, তবে আরো একটু বড় লিখতে পারতেন। একদম সাইজ জিরো ধরনের স্লিম হয়ে গেলো লেখাটা !

উজানগাঁ এর ছবি

হা হা, আমার কাছেও সাইজ জিরোই মনে হয়েছিল কিন্তু অপু ভাইরে সেটা কে বুঝাবে?

তারেক অণু এর ছবি

দেখতে হবে।

উজানগাঁ এর ছবি

দেখতে পারেন। ভালো লাগার সম্ভাবনা আছে। চোখ টিপি

সুমাদ্রি এর ছবি

ধন্যবাদ উজানদা, এই সুযোগে ভদ্রমহিলার ওয়েবসাইটে ঘুরে আসা গেল।

আশফাক আহমেদ এর ছবি

লেখা বেশ লেগেছে।
তবে ঋতুপর্ণ ঘোষ ও দীপ্তি নাভাল সম্পর্কে আরেকটু লিখলে আরো ভালো লাগতো হয়তো

-------------------------------------------------

ক্লাশভর্তি উজ্জ্বল সন্তান, ওরা জুড়ে দেবে ফুলস্কেফ সমস্ত কাগজ !
আমি বাজে ছেলে, আমি লাষ্ট বেঞ্চি, আমি পারবো না !
আমার হবে না, আমি বুঝে গেছি, আমি সত্যি মূর্খ, আকাঠ !

উজানগাঁ এর ছবি

তা লেখাই যেতো। কিন্তু less is more বলে একটা কথা আছে না? চোখ টিপি

তাপস শর্মা এর ছবি

ছবিটা আমারও ভালো লেগেছিল। দীপ্তি নাভাল এর প্রতিভা এবং দক্ষতা প্রশ্নাতীত। তবে নতুন ভূমিকায় ঋতুপর্ণ ঘোষকে কিন্তু খারাপ লাগেনি। 'আমি যা আমি তা' এটিটিউড এর ছায়াই এই ছবি। আর ছবিটি রিলিজ করার পর টলিউডের আনাচে কানাচে কিন্তু শোনা যাচ্ছিল( নিন্দুকেরা বলেন ) - শুধুমাত্র আমি আমার মতো,- মানে ঋতুপর্ণ ঘোষ উনার ( খাইছে ) মতো তাকে প্রতিষ্ঠা পাইয়ে দেওয়ার জন্যই নাকি এই প্রযোজনা।

তবে যাই হোক পরিচালক হিসেবে উনার দক্ষতা প্রশ্নাতীত নিঃসন্দেহে। কারণ, রে-সেন-ঘটক এবং তারপর তপন সিংহের পর যা ''বাবা কেন চাকর'' এর লাইন লেগেছিল । বাংলা ছবি কিন্তু এই পরিচালকের হাত ধরে অনেক পূর্ণতা পেয়েছে......

উজানগাঁ এর ছবি

ঋতুপর্ণকে আমার খারাপ লাগেনি ছবিতে। নিজের ছবিতে কাজ করতে যাওয়াটা নিঃসন্দেহে অনেক সাহসী সিদ্ধান্ত ছিল।

অনুপম ত্রিবেদি এর ছবি

লেখা দিছস ভালু কথা কিন্তু এতো ছুডু ক্যা?

নেক্সট টাইম, এইসব টুনটুনি প্যাক গুলারে কমপ্ল্যান খাওয়াইয়া একটু বড় করিস।

যাহ, তারা দাগাইলাম ... কয়টা ... কমুনা ...

==========================================================
ফ্লিকারফেসবুক500 PX

উজানগাঁ এর ছবি

আওয়াজ নীচে। চোখ টিপি
একটা পোস্ট দে তারপর লম্বা লম্বা কথা বল। :পি

সুপ্রিয় দেব শান্ত এর ছবি

আপনের কি অইছে? ছবি পোস্ট দেন না ক্যন? অনেকদিন আপনার তোলা নতুন কুনু ছবি দেখিনা।

নিবিড় এর ছবি

হুম, এই অভিনেত্রীর নাম তাইলে দীপ্তি নাভাল। অনেক আগে ডিশের ভিডিও চ্যানেলে পুরাতন কালের এক হিন্দি ছবি চালিয়েছিল, নায়িকা ছিলেন দীপ্তি নাভাল (তখন নাম জানতাম না)। ভিডিও চ্যানেলে সিনেমা শুরুর দিকে একবার নাম দেখায় আর পরে দেখায় না তাই সিনেমার নামধাম কিংবা অভিনেত্রীর নামধাম জানার কোন উপায় নাই তারউপর তখন গুগল মামার সাথে পরিচয় হয় নায়।আজকে অনেকদিন পর আপনার লেখায় নামটা জেনে খুব মজা লাগল হাসি

উজানগাঁ এর ছবি

হাসি

hawaimitai এর ছবি

দেখবো আসা করি। ছবির গান গুলা ক্যামন

ঋতুপর্ণার তিতলি ছবির "মেঘ পিওন" গানটা খুব ই জোস । এর মত কি কুন গান আছে...

উজানগাঁ এর ছবি

আমার কাছে বেশ ভালো লাগলো মিউজিক। শুনে দেখতে পারেন। একটা গানের কিছু অংশ পেলাম ইউ টিউবে। ভালো লাগবে আশা করছি।

সৈয়দ নজরুল ইসলাম দেলগীর এর ছবি

দারুণ লাগলো পড়তে
এরকম তো মাঝে মধ্যে লিখলেও পারেন

______________________________________
পথই আমার পথের আড়াল

উজানগাঁ এর ছবি

চাইলেও হয় না আসলে। দুনিয়াজুড়া পচুর গিয়াঞ্জাম। চোখ টিপি

আপনার লেখাও তো অনেকদিন দেখি না। ছাড়ের একটা আজকে রাতে। :পি

সৈয়দ নজরুল ইসলাম দেলগীর এর ছবি

আমি তো লেখা দেই না, লেখা দিবো বলে কথা দেই...
এর কোনো দাম দিলেন না? চোখ টিপি

______________________________________
পথই আমার পথের আড়াল

উজানগাঁ এর ছবি

এর জন্যে শাস্তি প্রযোজ্য নিঃসন্দেহে। চোখ টিপি

যাযাবর ব্যাকপ্যাকার এর ছবি

আমি তো লেখা দেই না, লেখা দিবো বলে কথা দেই...

আমার মুখের কথাটা নজরুল ভাই নিজেই বলে দিয়েছেন। আর কী! <দীর্ঘশ্বাস>

___________________
ঘুমের মাঝে স্বপ্ন দেখি না,
স্বপ্নরাই সব জাগিয়ে রাখে।

মুস্তাফিজ এর ছবি

দীপ্তি নাভালকে ভালা পাই

...........................
Every Picture Tells a Story

উজানগাঁ এর ছবি

দেঁতো হাসি

চরম উদাস এর ছবি

দেখতে হবে ছবিটা চলুক

উজানগাঁ এর ছবি

দেখে ফেলেন।

ইফতি এর ছবি

ভালো লেগেছে অনেক।তবে কেমন জানি কলম খুলতে গিয়েও আতকে গেছেন, পড়া শুরু করেই দেখি শেষ............।

উজানগাঁ এর ছবি

আসলে এইটা সিরিয়াস কোনো লেখা না। প্রচুর বিষয় মাথায় আসে যেগুলো নিয়ে পরে লিখবো ভাবলেও কখনই আর লেখা হয় ওঠে না। তাই ভাবলাম মাথায় প্রাথমিক অবস্থায় যা আসে তাই টুকে রাখা যায়। পরে কখনও সময়-সুযোগ হলে বিস্তারিত লেখা যাবে। সেরকম ভাবনা থেকেই দিনিলিপিগুলো লেখা আর কি।

অছ্যুৎ বলাই এর ছবি

লেখার আকার ব্যাপার না, ভাব প্রকাশ হলেই হলো। আর ছোট লেখা আমার বিশেষ পছন্দ। ছবির ভিলেন যদি শেষমেষ জেলেই যায়, তাইলে ৩ ঘন্টাও যা, ২ ঘন্টাও তাই। ১ ঘন্টা সময়ই লাভ। চোখ টিপি

'ভালো ছবি'র প্রতি আমার আগ্রহ কম। তবে আপনার পোস্টের কারণেই দীপ্তি নাভালের ছবি দেখতে হবে।

---------
চাবি থাকনই শেষ কথা নয়; তালার হদিস রাখতে হইবো

উজানগাঁ এর ছবি

দেখে ফেলেন।

ভালো ছবি/খারাপ ছবির তকমা আমার নিজেরও পছন্দ না। একেকজনের কাছে একেকরকম অর্থ বহন করে শব্দগুলো।

যাযাবর ব্যাকপ্যাকার এর ছবি

আমাকে কে যেন বলছিলো অনেকদিন পরে লিখলাম... চিন্তিত যাক! সবার লেখার বাঁধ ভাঙছে এতেই খুশি! হাসি

দীপ্তি নাভালের অভিনীত সিনেমা দেখেছি ছোটবেলায় কিন্তু এখন নাম মনে করতে পারছি না কোনটার। ভদ্র মহিলাকে ভালো লাগে, কিন্তু তাঁর যে এত গুণ তা জানতাম না।
অন্যদিকে বাংলা সিনেমা খুব কম দেখা হয়, বিশেষ করে পশ্চিমবঙ্গের। কিন্তু এই কয়দিন আগেই রুচি বদলের জন্যেই অনেকটা আঁকাইনের কাছ থেকে পাওয়া সিনেমার মাঝ থেকে 'উৎসব' দেখা হলো। বেশ ভালো লেগেছে, সাধারণ কাহিনি নিয়ে চমৎকারভাবে তৈরি। আমি ঋতুপর্ণের আর কিছু দেখিনি, শুধু নামই শুনেছি। 'উৎসব' ভালো লেগেছে শুনে অপ্র আরও কিছু নাম সাজেস্ট করেছে। আমার কাছে অপ্রের থেকে পাওয়া 'সব চরিত্র কাল্পনিক' আছে, এইটা দেখবো এর পরে। তারপর 'মেমোরিজ ইন মার্চ' দেখার ইচ্ছা রাখছি।

এখন থেকে মাঝে মাঝেই এমন বৃথাদিনলিপি আশা করা যায় তাহলে? হাসি

___________________
ঘুমের মাঝে স্বপ্ন দেখি না,
স্বপ্নরাই সব জাগিয়ে রাখে।

অতন্দ্র প্রহরী এর ছবি

ঋতুপর্ণর নাম দেখে ঢুকলাম। আশা নিয়ে পড়া শুরু করামাত্রই দেখি শেষ! এ কেমন হলো! ঋতুপর্ণর সিনেমা ভালো লাগে আমার। বেশিরভাগই দেখা। এবং দেখাগুলোর মধ্যে বেশিরভাগই খুব পছন্দের। ওর সিনেমায় সুর-সঙ্গীত-কবিতার ব্যবহার আমার কাছে অসাধারণ লাগে। যদিও এটা ঋতুপর্ণর নির্দেশনার না, "মেমোরিজ ইন মার্চ" সিনেমাটা বেশ ভালো লেগেছিল। অভিনেতা হিসাবে খারাপ লাগে নি। নিজের লেখা জন্য হয়ত চরিত্রটা ভালোমতো বুঝতে এবং ফুটিয়ে তুলতে পেরেছে।

দীপ্তি নাভালকে আগেও কোথাও দেখেছি, মনে করতে পারছি না এখন। এই সিনেমায় অসাধারণ লেগেছে তাকে। তার লেখালেখির খবর জানতাম না। জানার পর পড়ার আগ্রহ হচ্ছে। বিশেষ করে "দ্য ম্যাড টিবেটান"। নামটা খুব আকর্ষণীয়।

এ ধরনের লেখা পড়তে বেশ লাগে। সময় পেলেই লিখে ফেলুন টুকটাক এরকম।

অতন্দ্র প্রহরী এর ছবি

মনে পড়েছে! বহু আগে "ইশক কামিনা" খ্যাত "শক্তি" সিনেমায় দেখেছিলাম দীপ্তি নাভালকে। আরও অন্য কোথাও দেখে থাকতে পারি। এককালে হিন্দি সিনেমা দেখতাম প্রচুর!

প্রৌঢ় ভাবনা এর ছবি

দীপ্তি নাভালের বেশ কিছু ছবি যেমন, ৮০র দশকের 'কথা', 'কিছিছে না ক্যাহনা', 'হোলি', 'রঙবিরঙি', 'মোহন যোশী হাজির হো', 'দামুল' থেকে আজকের 'জীন্দেগী না মিলেগী দোবারা' পর্যন্ত্য দেখা হয়েছে। ঋতুপর্ণ অভিনীত কোন ছবি এখনও দেখা হয়ে ওঠেনি।
দীপ্তি নাভাল আমার প্রিয় অভিনেত্রীদের একজন। ঋষিকেশ মুখার্জী তাঁকে নিয়ে বেশকিছু বই করেছেন।

মুশাররাত এর ছবি

দীপ্তি নাভাল সম্বন্ধে জানতে পেরে বেশ ভালো লাগছে। ভদ্রমহিলা নিজের সাইটে যে পরিমিতি বোধ নিয়ে নিজেকে প্রকাশ করেছেন, তা সত্যিই প্রশংসনীয়।

নিলয় নন্দী এর ছবি

এই সুযোগে দিপ্তী নাভাল অভিনীত চাশমে বাদদুর ছবির একটা গান জুড়ে দিচ্ছি।
শুনে দেখুন, হৈমন্তী শুক্লার গাওয়া গানটি সত্যিই অসাধারণ।

http://www.youtube.com/watch?v=btEihqzggYw

নতুন মন্তব্য করুন

এই ঘরটির বিষয়বস্তু গোপন রাখা হবে এবং জনসমক্ষে প্রকাশ করা হবে না।
Image CAPTCHA