মেঘলা দিনে হেরকুলেস

হিমু এর ছবি
লিখেছেন হিমু (তারিখ: সোম, ১৪/০৯/২০০৯ - ২:৫৫পূর্বাহ্ন)
ক্যাটেগরি:


কাসেল শহরের ল্যান্ডমার্ক হচ্ছে এর প্রাচীন দুর্গ হেরকুলেস। গ্রীক অতিমানব হেরাক্লেস এর টিউটোনিক উচ্চারণ হেরকুলেস। কাসেল শহরের নামই এসেছে এই দুর্গের ল্যাটিন নাম থেকে। কেউ কাসেলে বেড়াতে এলে এখানটা হয়ে যান।

হেরকুলেস একটা বেশ উঁচু পাহাড়ের একেবারে চূড়ায় তৈরি করা। নিচে তাকালে চোখে পড়ে দু'টি প্রাসাদ, আর বিস্তৃত কাসেল শহর। কাসেলের বুক চিরে একেবারে সোজা একটি রাস্তা আছে, ভিলহেল্মসহোয়য়ার আলে, সেটি একেবারে হেরকুলেস বরাবর।

হেরকুলেসে প্রতি রোববার বেলা আড়াইটায় ভাসারষ্পিল (পানির খেল) বলে একটি শিশুতোষ ঘটনা ঘটানো হয়। দুর্গের চূড়া থেকে পানি ছাড়া হয়, সে পানি গড়িয়ে গড়িয়ে এর ধাপ বেয়ে নামে বহু নিচ পর্যন্ত। দু'টি শিঙাধারী সেন্টরের মূর্তি আছে ইস্রাফিলের ভঙ্গিতে, সেই শিঙা থেকে রমজানের সাইরেনের মতো পোঁওওওওও করে আওয়াজ বের হয়। এই আওয়াজ আর পানির খেলা দেখার জন্যে পর্যটকরা জড়ো হন। নিতান্তই মামুলি দৃশ্য, আমার মতে। এরচে বরং হেরকুলেসের নিচে হাবিখটসভাল্ড (বাজপাখির জঙ্গল)-এর জঙ্গলটা অনেক বেশি সুন্দর, যদিও বহুদূর হাঁটতে হয়। শীতে সেখানে গিয়েছিলাম, গ্রীষ্মে আর যাওয়া হয়নি। পরের হপ্তায় আবার হানা দেবো ভাবছি।

আজ ঘুম থেকে ধীরেসুস্থে উঠে চা বানাচ্ছি, মেঘলা দিনটার চেহারা দেখে মনটা খারাপ হয়ে গেলো। চৌধুরীকে ফোন দিয়ে বললাম বলাই পরিবারসহ হেরকুলেসে গেলে কেমন হয়। বলাই ব্যস্ত, তাই শেষমেশ আমি আর চৌধুরীই গেলাম। বৃষ্টিমগ্ন দিন, একটু পর পর রোদ আর বৃষ্টির চক্র চলছেই। এর মাঝেই কষ্টেসৃষ্টে লেন্স বাঁচিয়ে গোটা কয়েক ছবি তুললাম। ৮৫টা ছবি থেকে এইচডিআর করে আর বেছেবুছে সাতটা পেলাম শেয়ার করার মতো।


১.
বৃষ্টিস্নাত হেরকুলেস



২.
বৃষ্টিস্নাত হেরকুলেস



৩.
বৃষ্টিস্নাত হেরকুলেস



৪.
বৃষ্টিস্নাত হেরকুলেস



৫.
বৃষ্টিস্নাত হেরকুলেস



৬.
বৃষ্টিস্নাত হেরকুলেস



৭.
বৃষ্টিস্নাত হেরকুলেস


মন্তব্য

তানবীরা এর ছবি

হিমু, এই হেরকুলেসেতো আমরা যাই নাই। পাঁচতারা আর সামনের বারে ফটোগ্রাফী কোর্স পাক্কা।
---------------------------------------------------------
রাত্রে যদি সূর্যশোকে ঝরে অশ্রুধারা
সূর্য নাহি ফেরে শুধু ব্যর্থ হয় তারা

*******************************************
পদে পদে ভুলভ্রান্তি অথচ জীবন তারচেয়ে বড় ঢের ঢের বড়

হিমু এর ছবি

আপনি মনোযোগী না। আমার মূল্যবান লেকচারের মাঝখানে যেইভাবে হুড়মুড় কইরা খাইতে চইলা গেলেন, তাতেই বুঝলাম, কোর্স ফি না বসাইলে আপনারে দিয়া ছৈল্ত ন দেঁতো হাসি



হাঁটুপানির জলদস্যু আলো দিয়ে লিখি

তানবীরা এর ছবি

কোর্স ফী হইলো = কাবিখা। তুমি কি খেতে চাও বলো, রেঁধে খাওয়াবো। আর আমারে ক্যাম হাতে কইরা হাতে কলমে শিখাতে হইবো। থিওরী মনে থাকে না।
---------------------------------------------------------
রাত্রে যদি সূর্যশোকে ঝরে অশ্রুধারা
সূর্য নাহি ফেরে শুধু ব্যর্থ হয় তারা

*******************************************
পদে পদে ভুলভ্রান্তি অথচ জীবন তারচেয়ে বড় ঢের ঢের বড়

হিমু এর ছবি
ধুসর গোধূলি এর ছবি

- আমার ইশকুলে আসেন। ১০% কমিশনে ভর্তি চলিতেছে। আমি দরকার হৈলে আপনারে শিখায়া কোর্স শেষে ক্যামেরা গিফট করুম। এইবার কন, কী কী আছে ম্যেনুতে?
___________
চাপা মারা চলিবে
কিন্তু চাপায় মারা বিপজ্জনক

হাসিব এর ছবি

ফটুক দেখতে ভালো হৈছে । মাগার নকল নকল হৈছে ।

মৃত্তিকা এর ছবি

এ তো দেখি পুরো এনিমেশান মুভির স্টিল ফটো!! দারুণ লাগলো।

কিংকর্তব্যবিমূঢ় এর ছবি

বস একটা প্রশ্ন ছিল ... এইচডিআর কোন সফটওয়ার দিয়া করেন? আমি ফটোম্যাট্রিক্স দিয়ে চেষ্টা করসি, কিন্তু জেপিইজি হিসাবে সেইভ করার অপশন পাচ্ছি না ... [বেকুবের মত শোনাইতেসে জানি কিন্তু আসলেই পাচ্ছি না দেঁতো হাসি ]
................................................................................................
খাদে নামতে আজ ভয় করে, নেই যে কেউ আর হাতটাকে ধরা ...

হিমু এর ছবি
ধুসর গোধূলি এর ছবি
কিংকর্তব্যবিমূঢ় এর ছবি

হ্যাঁ, এখন ওমনেই করি, কিন্তু টোন প্রসেসিং করতে গেলে এইচডিআরের চকচকা ভাবটা থাকে না ... ডিরেক্ট এইচডিআরটা সেইভ করা যায় কিনা সেটা জানতে চাচ্ছিলাম ...

একটা কনভার্টার পাইসিলাম কিন্তু সেই শালা বিশাল একটা ডেমো ভার্সনের সীল মেরে দেয়, সীল তুলতে গেলে পয়সা চায় ...
................................................................................................
খাদে নামতে আজ ভয় করে, নেই যে কেউ আর হাতটাকে ধরা ...

ধুসর গোধূলি এর ছবি
কিংকর্তব্যবিমূঢ় এর ছবি

খানিকটা যায় গা ইয়ে, মানে...
................................................................................................
খাদে নামতে আজ ভয় করে, নেই যে কেউ আর হাতটাকে ধরা ...

ধুসর গোধূলি এর ছবি

- এইরম চকচকা, ঝকঝকা আর ঝাকানাকা এইচডিআর কইরা আমার এট্টা ফটুক উঠাইয়া দিসতো, খোমাখাতায় টাঙ্গামু। আমার বেবাক ফটুক খালি আন্ধাকোন্ধা দেখা যায়। দেঁতো হাসি
___________
চাপা মারা চলিবে
কিন্তু চাপায় মারা বিপজ্জনক

তানবীরা এর ছবি

ফটু উঠাইয়া কুনু লাব হবে না, মাতারি কইলে মাইয়ারা নারকেলের মালার মতো মুন্ডু ফুটাইয়া দিবেক, হ কইলাম।
---------------------------------------------------------
রাত্রে যদি সূর্যশোকে ঝরে অশ্রুধারা
সূর্য নাহি ফেরে শুধু ব্যর্থ হয় তারা

*******************************************
পদে পদে ভুলভ্রান্তি অথচ জীবন তারচেয়ে বড় ঢের ঢের বড়

ধুসর গোধূলি এর ছবি

- নারকেল দিয়া মালা বানায় নাকি আবার? চিন্তিত
গলায় নারকেলের মালা ঝুলালে তো নিজেরে মা-কালী, মা-কালী লাগার কথা!
___________
চাপা মারা চলিবে
কিন্তু চাপায় মারা বিপজ্জনক

হাসিব এর ছবি

নেক্সটটাইম এট্টু স্নুপাউডার ঘইষা ক্যাম্রার সামনে খাড়াইয়ো । তাইলেই হৈবো ।

ধুসর গোধূলি এর ছবি
হিমু এর ছবি
সৌরভ এর ছবি

কী সোন্দর ছবি। বিদেশ-বিদেশ লাগে।


আবার লিখবো হয়তো কোন দিন

বর্ষা [অতিথি] এর ছবি

প্রথম ৩টা ছবির আকাশ দেখে মাথা খারাপ হয়ে গেলো। উজ্জ্বল প্রাণবন্ত সবুজের মাঝে কি বিষন্ন আকাশ।
৭ নম্বর ছবিটায় মনে হলো টাইমমেশিন এর মুভির কোনো স্টিল।

মেহদী হাসান খান এর ছবি

মন খারাপ হলে এখানে যান? এত সুন্দর জায়গায় গেলেতো মন আরো খারাপ হবার কথা... ১,২,৩ দেখে মুগ্ধ! ৫, ৭ এইচডিআর এ ফর্দাফাই মানুষ দেখে মজা পাইলাম হাসি

বস, ১০মিমি ওয়াইড!! খাইসে!!!

হিমু এর ছবি

এই লেন্সটা আক্ষরিক অর্থেই খাইসে আমারে। কণ্টক মুকুট শোভা আর কি।



হাঁটুপানির জলদস্যু আলো দিয়ে লিখি

প্রকৃতিপ্রেমিক এর ছবি

আমার কাছে ১ আর ৩ সবচেয়ে ভালো লাগলো।

মামুন হক এর ছবি

আমার কাছেও ১ আর ৩ সবচে ভাল্লাগলো। ফটুতে ভুত-প্রেতের জ্বালাতন ভালো লাগেনা হাসি ৭টার মধ্যে ২টা ভাল্লাগছে = ২৮.৫৭% , সেই হিসাবে হিমুর ভাগে কয়টা তারা পরার কথা? সঠিক উত্তরদাতাকে তানবীরা আপা নিজ হাতে রেঁধে ভরপুর খাওয়াবেন হাসি

কীর্তিনাশা এর ছবি

ওরে কী ছবি রে........... !!! চলুক

-------------------------------
আকালের স্রোতে ভেসে চলি নিশাচর।

-------------------------------
আকালের স্রোতে ভেসে চলি নিশাচর।

শাহেনশাহ সিমন এর ছবি

_________________
ঝাউবনে লুকোনো যায় না

সুহান রিজওয়ান এর ছবি

আমার ৩-৪ বেশি ভাল্লাগসে।
---------------------------------------------------------------------------
- আমি ভালোবাসি মেঘ। যে মেঘেরা উড়ে যায় এই ওখানে- ওই সেখানে।সত্যি, কী বিস্ময়কর ওই মেঘদল !!!

দ্রোহী এর ছবি

সুন্দর সব ছবি! হেরকুলেসে যাইতে হবে একসময়!

কাজী আফসিন শিরাজী এর ছবি

স্বাদে ছন্দে মধুয়া...

দুর্দান্ত এর ছবি

খউপ ছুন্দর। আমার ফেবারিট দুই লম্বরটা।

মুস্তাফিজ এর ছবি

আমার কাছে জায়গাটা পছন্দ হইছে।

...........................
Every Picture Tells a Story

হিমু এর ছবি
নজমুল আলবাব এর ছবি
পরী [অতিথি] এর ছবি

ছবি সুন্দর হৈছে।১, ২, ৩ বেশি।আল্লায় কপালে রাখলে যামু আর কি কোনদিন :-/ মন খারাপ

তীরন্দাজ এর ছবি

ছবি গুলান সুন্দর হইছে। আমি এইসব পারি না!
**********************************
কৌনিক দুরত্ব মাপে পৌরাণিক ঘোড়া!

**********************************
যাহা বলিব, সত্য বলিব

সমুদ্র এর ছবি

ছবিগুলা ভালো হইছে। ১ আর ৬ বেশি।
হয়তো যাব কোন একদিন হেরকুলেস দেখতে। হাসি

"Life happens while we are busy planning it"

সাইফ তাহসিন এর ছবি

জটিলস্য জটিল, ফটুক তুলার কোর্স খুলবেন কবে? অবশ্য আমার আগে ছবি তুলার বাক্স কিনতে হইব।

=================================
বাংলাদেশই আমার ভূ-স্বর্গ, জননী জন্মভূমিশ্চ স্বর্গাদপি গরিয়সী

হিমু এর ছবি

সাইব্বাই, কিনে ফ্যালেন একখান। তারপর শুরু করে দ্যান। সামারার ছবি তুলে তুলে হাত পাকান।



হাঁটুপানির জলদস্যু আলো দিয়ে লিখি

নতুন মন্তব্য করুন

এই ঘরটির বিষয়বস্তু গোপন রাখা হবে এবং জনসমক্ষে প্রকাশ করা হবে না।