বাঘের কম্বল

অতিথি লেখক এর ছবি
লিখেছেন অতিথি লেখক (তারিখ: বিষ্যুদ, ১১/০৬/২০১৫ - ৫:৩৯অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

বাঘের কম্বল
আকাশলীনা নিধি

এক দেশে ছিল এক বাঘ। সেই দেশে ছিল অনেক অনেক শিত।
বাঘ সুনেছে মানুষ নাকি কম্বল গায়ে দেয়। আর ওখানে একটা বুড়ি থাক্ত।
বুড়ির বাড়ি যেতে হলে ঊচা পাহার হেটে নদী পার হয়ে ভেরার বাগান পার হয়ে যেতে হয়।

তারপর বাঘ ভাবল আমার জদি কম্বল থাকে আর শিত লাকত না।
বাঘ তারপর পাহার হেটে নদী পার হয়ে ভেরার বাগান পার হয়ে বুড়ির কাছে গেল।
গিয়ে বুড়িকে বলল আমাকে একটা কম্বল বানিয়ে দাও।
বুড়ি বলল কম্বল বানাতে ঊল লাগবে, ঊল এনে দাও।
বাঘ গেল ভেরার কাছে। ভেরাকে বলল আমাকে ঊল দাও।
ভেরা বলল ভাল্লুক আমার বাচ্চাকে খেয়ে ফেলেছে। তুমি যদি আমার বাচ্চাকে এনে দাও তাহলে দেব।
বাঘ গেল ভাল্লুকের কাছে। গিয়ে বলল ভেরার বাচ্চাকে ফিরিয়ে দাও।
ভাল্লুক বলল দেখছ আমার পেটটা দেখছ? মধু এনে দাও আমি মধু খাব।
বাঘ গেল মৌমাছির কাছে। গিয়ে বলল মধু দাও।
মৌমাছি বলল তুমি আগে কৃষিকে বল ফুল দিতে।
বাঘ তখন গেল কৃষির কাছে। গিয়ে বলল ফুল দিতে।
কৃষি ফুল দিল। বাঘ সেই ফুল দিল মৌমাছিকে।
মৌমাছি ফুল থেকে মধু বানিয়ে দিল।
বাঘ মধু নিয়ে ভাল্লুকের কাছে গেল। ভাল্লুক মধু খেয়ে ভেরার বাচ্চাকে ফিরিয়ে দিল।
বাঘ ভেরাকে তার বাচ্চা দিল। ভেরা ঊল দিল।
বাঘ উল বুড়িকে দিল। বুড়ি কম্বল বানিয়ে দিল। বাঘ ওটা নিয়ে অনেক খুশি হয়ে গেল।

* কারিগরি সহযোগিতায় নিধির বাপ
* বানান অপরিবর্তিত


মন্তব্য

সুবোধ অবোধ এর ছবি

হাততালি লেখা -গুড়- হয়েছে
(কিটক্যাটের ইমো থাকলে গুড় না দিয়া কিটক্যাট এর ইমো দিতাম।)

অতিথি লেখক এর ছবি

আচ্ছা তাহলে পরেরবার কিটক্যাট না এনে ইমো এনো

নিধি

অতিথি লেখক এর ছবি

হাততালি নিধির জন্য ভালবাসা আর কারিগরি সহযোগিতার জন্য নিধির বাপের জন্য আপনারে অসংখ্য -ধইন্যাপাতা- । নিধি আরও আরও গল্প লেখুক হাসি । বানানগুলো এত্ত মজার, ছোটবেলার স্কুলের খাতা উঁকি মেরে গেল একঝলক।

দেবদ্যুতি

অতিথি লেখক এর ছবি

পরেরবার আরো মজার মজার গল্প লেখবো, কমিক্সও লেখবো

ইয়ামেন এর ছবি

নিধি তো প্রথম লেখাতেই তার বাবাকে ছাড়িয়ে গেছে। অভিনন্দন! গুরু গুরু

--------------------------------------------------------------------------------------------------------------------

সব বেদনা মুছে যাক স্থিরতায়
হৃদয় ভরে যাক অস্তিত্বের আনন্দে...

অতিথি লেখক এর ছবি

ধন্যবাদ

নিধি

অনার্য সঙ্গীত এর ছবি

নিধি, গল্প অসাধারণ হয়েছে। বাঘটার আরো গল্প থাকলে সেগুলোও লিখে ফেল। গরমকালে বাঘটা কী করে? তার কি তালপাখা আছে?

সচলায়তনের সবচে কম বয়সী ব্লগারকে সচলায়তনে স্বাগতম হাততালি

______________________
নিজের ভেতর কোথায় সে তীব্র মানুষ!
অক্ষর যাপন

অতিথি লেখক এর ছবি

না তালপাখা নেই, পরেরবার আরো বাঘের গল্প লেখবোনে

নিধি

এক লহমা এর ছবি

হাততালি লেখা -গুড়- হয়েছে
"ভাল্লুক বলল দেখছ আমার পেটটা দেখছ? মধু এনে দাও আমি মধু খাব।" - আমার কতা বলচে! হাসি

--------------------------------------------------------

এক লহমা / আস্ত জীবন, / এক আঁচলে / ঢাকল ভুবন।
এক ফোঁটা জল / উথাল-পাতাল, / একটি চুমায় / অনন্ত কাল।।

এক লহমার... টুকিটাকি

অতিথি লেখক এর ছবি

তোমার মধু খুব পছন্দ বুঝি, দাদাভাই? সুন্দরবনের খাঁটি মধু পাঠিয়ে দেব তবে তোমার জন্য হাসি

দেবদ্যুতি

অতিথি লেখক এর ছবি

তোমার পেট কি ভাল্লুকের মতো বড়?

নিধি

এক লহমা এর ছবি

ঠিক ধরেছ হাসি

--------------------------------------------------------

এক লহমা / আস্ত জীবন, / এক আঁচলে / ঢাকল ভুবন।
এক ফোঁটা জল / উথাল-পাতাল, / একটি চুমায় / অনন্ত কাল।।

এক লহমার... টুকিটাকি

নিটোল এর ছবি

দারুণ দারুণ! হাততালি

_________________
[খোমাখাতা]

অতিথি লেখক এর ছবি

ধন্যবাদ

নিধি

শেহাব এর ছবি

গরমকালে বাঘের কিন্তু ফ্যান লাগবে। পরের গল্পের জন্য অপেক্ষা করছি।

অতিথি লেখক এর ছবি

ফ্যান না এসি দিলেই হবে

নিধি

ত্রিমাত্রিক কবি এর ছবি

সবাই তো কিছু না কিছু কিছু পেল, কিন্তু বেচারি বুড়ি কি কিছু পাবে না? পরের গল্পে বেচারি বুড়িকে কিছু দেয়ার ব্যবস্থা করো, নিধি। অনেক শুভেচ্ছা আর ভালোবাসা।

_ _ _ _ _ _ _ _ _ _ _ _ _ _ _
একজীবনের অপূর্ণ সাধ মেটাতে চাই
আরেক জীবন, চতুর্দিকের সর্বব্যাপী জীবন্ত সুখ
সবকিছুতে আমার একটা হিস্যা তো চাই

অতিথি লেখক এর ছবি

আচ্ছা বুড়িকেও ভাল্লুকের মতো মধু দিয়ে দিবোনে

নিধি

রানা মেহের এর ছবি

গল্প খুব ভালো হয়েছে মা।
কিন্তু একটু ছোট হয়ে গেলনা?
বাঘ কম্বল গায়ে দিয়ে আরো কী কী করলো সেটা নিয়েও একটা গল্প লিখে ফেল।

-----------------------------------
আমার মাঝে এক মানবীর ধবল বসবাস
আমার সাথেই সেই মানবীর তুমুল সহবাস

অতিথি লেখক এর ছবি

ঠিক আছে লেখবো

নিধি

ইশতিয়াক রউফ এর ছবি

বাহ!! দারুণ!

অতিথি লেখক এর ছবি

অনেক অনেক ধন্যবাদ

নিধি

স্যাম এর ছবি

দারুণ নিধি!

(ওর কন্ঠে এ গল্পটা শুনতে কেমন লেগেছে নিধির বাপ? নিধির অডিও ব্লগ হতে পারে?)

সৈয়দ নজরুল ইসলাম দেলগীর এর ছবি

প্রথমে এই গল্প খাতায় লিখেছিলো বেশ কিছুদিন আগে। আজকে ব্লগে তোলার সময় আবার নিজে পড়ছিলো আর কারেকশন করে বলে দিচ্ছিলো। সে যেভাবে বলেছে সেভাবেই লিখেছি।
অডিও ব্লগের আইডিয়াটা ভালো। নেক্সট গল্প তাইলে অডিওসহ

______________________________________
পথই আমার পথের আড়াল

মর্ম এর ছবি

গল্পের পাশাপাশি গ্লপ শোনার ব্যবস্থার প্রতিশ্রুতির জন্য 'নিধির বাপ'-এর জন্য আগাম ধন্যবাদ পপকর্ন লইয়া গ্যালারীতে বইলাম

~~~~~~~~~~~~~~~~
আমার লেখা কইবে কথা যখন আমি থাকবোনা...

অতিথি লেখক এর ছবি

আমি তো বলিনি, আমি তো ভেবে ভেবে লিখেছি

নিধি

সত্যপীর এর ছবি

কৃষি লোকটা মানুষ ভালো। বাকিরা খালি এইটা দাও ঐটা দাও।

ভাল্লুকটারেও পছন্দ হয়েছে। অনন্ত জলিল ভাল্লুক। অসম্ভবকে সম্ভব করাই যার কাজ। ভেড়ার বাচ্চা খেয়ে আবার ফিরত ও দিল কেমন সুন্দর!

..................................................................
#Banshibir.

অতিথি লেখক এর ছবি

ও তো চাবায়নি। ওর লম্বা হাত দিয়ে মুখ থেকে বের করে দিয়েছে

নিধি

জি.এম.তানিম এর ছবি

দারুণ! দেঁতো হাসি

-----------------------------------------------------------------
কাচের জগে, বালতি-মগে, চায়ের কাপে ছাই,
অন্ধকারে ভূতের কোরাস, “মুন্ডু কেটে খাই” ।

অতিথি লেখক এর ছবি

ধন্যবাদ

নিধি

মর্ম এর ছবি

নিধি, আরো অনেক অনেক অনেক অনেক গল্প আমাদের জন্য লিখ, কেমন? আর গল্প শোনাবে আস্তে আস্তে? কী ভালই না লাগবে আমাদের!

অটঃ নিধি বোধ করি সচল পরিবারের দ্বিতীয় প্রজন্মের প্রথম লিখিয়ে। ওকে 'সচল' করে দেয়া না? নিদেন পক্ষে 'হাচল'? ও নিজের নামেই লিখুক। হাততালি

~~~~~~~~~~~~~~~~
আমার লেখা কইবে কথা যখন আমি থাকবোনা...

অতিথি লেখক এর ছবি

ঠিক আছে

নিধি

এস এম মাহবুব মুর্শেদ এর ছবি

অডিও বা ভিডিওব্লগ চাই। শুভকামনা নিধি মামনি। গল্প খুব ভালো হয়েছে। তুমি বাবার চাইতেও বড় লেখক/গল্পকার হবে এই আশা করি।

অতিথি লেখক এর ছবি

অনেক ধন্যবাদ আর ঠিক আছে

নিধি

নজমুল আলবাব এর ছবি

ওরে বাবারে বাবা, বাঘ দিয়ে শুরু হলো একেবারে!!!

কাকতাল আর কারে বলে, এইদিকেও বাঘ চর্চ্চা হলো। তিষ্ঠো, তুলে দেবানে। দেঁতো হাসি

অতিথি লেখক এর ছবি

তো কি মৌমাছি দিয়ে শুরু করবো?

নিধি

দুষ্ট বালিকা এর ছবি

অনেক সুন্দর হয়েছে নিধিমা! দেঁতো হাসি

তুমি এটাকে পড়ে শুনাবা আমাদের জন্য?

অনেক শুভকামনা!

**************************************************
“মসজিদ ভাঙলে আল্লার কিছু যায় আসে না, মন্দির ভাঙলে ভগবানের কিছু যায়-আসে না; যায়-আসে শুধু ধর্মান্ধদের। ওরাই মসজিদ ভাঙে, মন্দির ভাঙে।

মসজিদ তোলা আর ভাঙার নাম রাজনীতি, মন্দির ভাঙা আর তোলার নাম রাজনীতি।

অতিথি লেখক এর ছবি

এখন না পরে

নিধি

টিউলিপ এর ছবি

গল্পটা পড়ে মন ভালো হয়ে গেল! কি চমৎকার একটা গল্প। অনেক অনেক শুভকামনা।

___________________

রাতের বাসা হয় নি বাঁধা দিনের কাজে ত্রুটি
বিনা কাজের সেবার মাঝে পাই নে আমি ছুটি

অতিথি লেখক এর ছবি

অনেক অনেক ধন্যবাদ

নিধি

স্পর্শ এর ছবি

নিধির কল্পনাশক্তিতে মুগ্ধ হলাম!

কম্পিউটার বিজ্ঞানে এক ধরনের ডাটা স্ট্রাকচার আছে। স্ট্যাক। এই গল্পে স্ট্যাক যে কয় লেভেল পর্যন্ত ব্যবহার হয়েছে তা প্রসংশনীয়। নিধিকে প্রোগ্রামিং এও হাতে খড়ি দেবার অনুরোধ করে গেলাম। সবাইকে তাক লাগিয়ে দেবে...


ইচ্ছার আগুনে জ্বলছি...

সাক্ষী সত্যানন্দ এর ছবি

বাংলায় লেখো বাপু!

____________________________________
যাহারা তোমার বিষাইছে বায়ু, নিভাইছে তব আলো,
তুমি কি তাদের ক্ষমা করিয়াছ, তুমি কি বেসেছ ভালো?

অতিথি লেখক এর ছবি

না পারবো না শিখতেও চাই না

নিধি

নজমুল আলবাব এর ছবি
আনু-আল হক এর ছবি

এটাও বেশ ভালো একখানা গল্প: কী মায়াময়। আরো আরো লেখা চাই এই ছোট্ট গল্পকারের। বাঘের বাচ্চা

----------------------------
নয় মাসে হলো তিরিশ লক্ষ খুন
এরপরও তুমি বোঝাও কি ধুন-ফুন

অতিথি লেখক এর ছবি

এই গল্পটা পরে পড়বো

নিধি

ঈয়াসীন এর ছবি

অভিভূত হলাম নিধি। মামনি তুমি অনেক বড় হয়ে যখন এই ব্লগটি পড়বে, এই কমেন্টগুলোও দেখবে। তোমার এই বয়েসে আমি সত্যি এমন গল্প লিখতে পারতাম না। তুমি অনেক বিশাল একজন লেখিকা। তোমার মা বাবার সাথে আমরাও গর্ববোধ করছি।

------------------------------------------------------------------
মাভৈ, রাতের আঁধার গভীর যত ভোর ততই সন্নিকটে জেনো।

অতিথি লেখক এর ছবি

অনেক অনেক অনেক অনেক অনেক ধন্যবাদ

নিধি

অতিথি লেখক এর ছবি

অলে অলে নিধি মনি..….…বেশ বেশ.…তোমার মত মিষ্টি তোমার গল্প্খানি
এ্যানি মাসুদ

অতিথি লেখক এর ছবি

ধন্যবাদ

আনু-আল হক এর ছবি

কঠিন অবস্থা বোলগার নিধি! দারুণ গল্প। কী অসাধারণ স্মৃতি হয়ে থাকবে এই ছোট্ট নিধি যখন অনেক বড় হবে।

নজু ভাই, নিধির-হাতে-লেখা-গল্পটার একটা স্ক্যানড কপি সযত্নে কোথাও তুলে রাইখেন। এই ভুল বানানসহ গল্প একদিন অনন্য স্মৃতি হয়ে থাকবে নিধি এবং তার উত্তরপ্রজন্মের জন্য। আর হ্যাঁ, অডিও/ভিডিওব্লগের অপেক্ষায় থাকলাম। অনেক অনেক শুভকামনা নিধি বাঘের বাচ্চা

----------------------------
নয় মাসে হলো তিরিশ লক্ষ খুন
এরপরও তুমি বোঝাও কি ধুন-ফুন

অতিথি লেখক এর ছবি

আমার তো এখনো পড়লে মজা লাগে

নিধি

মুস্তাফিজ এর ছবি

বাঘের বাচ্চা

...........................
Every Picture Tells a Story

অতিথি লেখক এর ছবি

এইটাকে দেখে বাঘ মনে হচ্ছে না শেয়াল মনে হচ্ছে

নিধি

রকিবুল ইসলাম কমল এর ছবি

বাহ! দারুণ গল্প। নিধির জন্য অনেক অনেক আদর।

অতিথি লেখক এর ছবি

ধন্যবাদ

নিধি

সাক্ষী সত্যানন্দ এর ছবি

সচলেও পরিবারতন্ত্রের থাবা? ৪৯ বিবৃতিজাদা শুনুক খালি! চোখ টিপি

যাক গিয়া, চমৎকার গফ। ইস্টকে থাকলে আরও আসুক। পপকর্ন লইয়া গ্যালারীতে বইলাম

সচলে "কোলে নেয়ার" আর "চকোলেটের" ইমো দরকার। দেঁতো হাসি

____________________________________
যাহারা তোমার বিষাইছে বায়ু, নিভাইছে তব আলো,
তুমি কি তাদের ক্ষমা করিয়াছ, তুমি কি বেসেছ ভালো?

অতিথি লেখক এর ছবি

ঠিক আছে আরো লেখবো

নিধি

অতিথি লেখক এর ছবি

ভাল গল্প। সকলের জন্য সকলকে প্রয়োজন, এটা দেখলাম। আবীর

অতিথি লেখক এর ছবি

ধন্যবাদ

নিধি

নীড় সন্ধানী এর ছবি

কী চমৎকার কল্পনাশক্তি নিধিমনির! বাংলা ব্লগের কনিষ্ঠতম সদস্যকে স্বাগতম! হাততালি
কারিগরি সহযোগিতার জন্য নিধির বাপের পিঠ চুলকে দিলাম! চলুক

‍‌-.-.-.-.-.-.-.-.-.-.-.-.-.-.-.-.--.-.-.-.-.-.-.-.-.-.-.-.-.-.-.-.
সকল লোকের মাঝে বসে, আমার নিজের মুদ্রাদোষে
আমি একা হতেছি আলাদা? আমার চোখেই শুধু ধাঁধা?

অতিথি লেখক এর ছবি

আমি তো কল্পনা করে অনেক জিনিসও বানিয়েছি

নিধি

নাশতারান এর ছবি

ব্লগে লেখার বুদ্ধিটা খুব ভালো হয়েছে, নিধি। গল্পটা তো তোমার খাতায় আগেই পড়েছিলাম। খুব সুন্দর গল্প। এমন আরো লিখতে থাকো। চাইলে গল্পের সাথে তোমার আঁকা ছবিগুলোও দিয়ে দিতে পারো।

_____________________

আমরা মানুষ, তোমরা মানুষ
তফাত শুধু শিরদাঁড়ায়।

অতিথি লেখক এর ছবি

ঠিক আছে ছবি দিবো

নিধি

আয়নামতি এর ছবি

উত্তম জাঝা!
মনটা ভালো হয়ে গেলো রে নিধি! সচলে স্বাগতম হে হাসি
অডিওতে গল্প শোনার অপেক্ষায় থাকলাম।
মজারু গল্পটা শেয়ার করার জন্য নজরুল ভাইকে ধন্যবাদ।

অতিথি লেখক এর ছবি

অডিওতে পরে গল্প শোনাবোনে

নিধি

রাহিন হায়দার এর ছবি

'ভেরার বাগান', এই শব্দযুগল পড়েই ভক্ত বনে গেলাম। কী কল্পনাশক্তি!

________________________________
মা তোর মুখের বাণী আমার কানে লাগে সুধার মতো...

অতিথি লেখক এর ছবি

ক্যান ভেরার বাগান কি দেখোনি?

নিধি

অতন্দ্র প্রহরী এর ছবি

অনেক কিউট একটা গল্প। হাসি

সুলতানা সাদিয়া এর ছবি

ওরে আদুরে ------------------------
নিধি তোমাকে তোমার একটা ভাইয়ার গল্প শুনাই। ও রাতে আমাকে মাঝে মাঝে গল্প শোনায়। শোনো---

মা, শোনো একটা গল্প বলি। একদেশে ছিল একটা ভাঘ (আমার ছেলে বাঘ বলতে পারে না)। সেই ভাঘ করল কি গাড়ি চালাচ্ছিল। চালাতে চালাতে একটু আগে গাড়িতে আরও দুইটা ভাঘ উঠল। তাপ্পর গল্প শ্যাষ।……..

শীতের ক্রিম নিয়ে বাসায় মহা ঝগড়া। ভেসলিন, নিভিয়া, অলিভ অয়েল সবই দুইটা করে কেনা লাগে। সারাদিন দুই ভাই-বোন নিয়ে ঘোরে। আমার ছেলেতো সারাদিনই এসব মাখে। বললে শোনে না। আমার খালা বলছে, ভাইয়া কয়বার দেয়া লাগে? সে বলল, সকালে, বিকালে আর রাতে। খালা বলল, তিনবার হইলে এত দাও কেন? সে তো মহা রেগে গেল, তুমি বোঝো না, সকালে তিনবার, বিকালে তিনবার আর রাতে তিনবার!!!

দুই ভাইবোনের প্রতিদিন চকলেট লাগে। যদি বলি দাঁত নষ্ট হবে, শোনে না। মাঝে মাঝে আমি চাই, আমাকে একটু দাও। উল্টো আমাকে বলে, তোমার দাঁত নষ্ট হবে। আমি বলি, তাহলে তুমি যে খাও? এহসানের উত্তর, আমি তো খেয়ে দাঁত ব্রাশ করব!!!

সে ছোট থেকে বড় ক্রিমের কৌটো ভাগ করে, এটা আমার, এটা আমাদের....আর এটা সবাদের!!!

তোমাকে এত্তগুলা চকলেটি আদর। আরও লেখা চাই।

-----------------------------------
অন্ধ, আমি বৃষ্টি এলাম আলোয়
পথ হারালাম দূর্বাদলের পথে
পেরিয়ে এলাম স্মরণ-অতীত সেতু

আমি এখন রৌদ্র-ভবিষ্যতে

সাক্ষী সত্যানন্দ এর ছবি

তুমি বোঝো না, সকালে তিনবার, বিকালে তিনবার আর রাতে তিনবার!!!

হো হো হো

পিচ্চিদের জন্য তিনবার করে আদর। দেঁতো হাসি

____________________________________
যাহারা তোমার বিষাইছে বায়ু, নিভাইছে তব আলো,
তুমি কি তাদের ক্ষমা করিয়াছ, তুমি কি বেসেছ ভালো?

কল্যাণ এর ছবি

নিধি তোমার গল্পটা পড়ে ভাল লেগেছে। বেশ হিংসাও হল সেই সাথে। তুমি আমার থেকে অনেক ভাল গল্প বলা শিখে গেছ এই জন্যে হিংসা। আমি তখনো স্কুলে যাওয়া শুরু করিনি, বাড়িতে কোন অতিথি এলেই আমি দৌড়ে যেয়ে মহা উৎসাহে গল্প শোনাতাম, একটাই গল্প জানতাম আর সেটা ছিল এরকমঃ তখুন শিয়াল হারকিনটা নিয়ে বারান্দায় গেলো। তাহলেই বোঝ আমার দৌড়।

এখন আসি তোমার গল্পে। বাঘের কম্বলের ব্যাপারে আমার একটা জিনিস বারবার মনে হচ্ছে; কম্বলটা কি যথেষ্ট বড় ছিল? বেচারার লেজটা কি ঢাকা পড়ল ঠিকমত? বড়ই টেনশনে আছি বাঘের লেজটা নিয়ে।

ভাল থেক নিধি, আর লেখালেখি চালু রেখ।

______________
আমার নামের মধ্যে ১৩

তানিম এহসান এর ছবি

দেঁতো হাসি আপনারে অসংখ্য -ধইন্যাপাতা- পপকর্ন লইয়া গ্যালারীতে বইলাম

নতুন মন্তব্য করুন

এই ঘরটির বিষয়বস্তু গোপন রাখা হবে এবং জনসমক্ষে প্রকাশ করা হবে না।