স্মৃতিচারণ

নিধি

নজরুল ইসলাম এর ছবি
লিখেছেন নজরুল ইসলাম (তারিখ: বিষ্যুদ, ২১/০৫/২০১৫ - ৭:০২অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

[justify]সবচেয়ে নিষ্ঠা, ধৈর্য্য, অধ্যাবসায় আর গুরুত্ব দিয়ে যে কাজটা আমি করতে পারি, তার নাম আলসেমি। এই কাজে আমার কোনো জুড়ি নেই। এই যেমন ঘরস্ত্রী আজ সকাল থেকে অন্তত দশবার এসে বলে গেছে ঘর হতে শুধু দুই পা ফেলিলেই যে ধোপাখানা, সেখানে ক'টা কাপড় দিয়ে আসতে। যাবো যাচ্ছি করতে করতে সন্ধ্যা ঘনিয়ে আনতে পেরেছি, আরেকটু পরে বলবো আজ তো রাত হয়ে গেছে, কাল নিয়ে যাবো।


ক্যালিডোস্কোপ -১১

এক লহমা এর ছবি
লিখেছেন এক লহমা [অতিথি] (তারিখ: রবি, ১০/০৫/২০১৫ - ৪:৩৮অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

নারী দিবস। মাতৃ দিবস। আমার মা-এর কাছে এই দিবসগুলি কোন বিশেষ বার্তা আনে না। তা বলে বার্তাগুলি থেকে তিনি দূরে থাকেন না। নিয়মিত খবরের কাগজ পড়েন। খবরের সাথে নিজেকে সংপৃক্ত রাখেন। বস্তুতঃ সেই পাঠ-ই তাঁকে সচল রেখেছে। কিন্তু তাঁর চারপাশের দুনিয়ায় তিনি অপ্রয়োজনীয় হয়ে গিয়েছেন। তাঁর মানসিক আর শারীরিক সক্ষমতার যতটা অবশিষ্ট আছে, তাতে উন্নত দেশের বাসিন্দা হলে তিনি এখন-ও সক্রিয় জীবনযাপন করতেন। কিন্তু নিজের দেশে, সন্তানের সংসারে শিশুপালনের ভূমিকা পার হয়ে গেলে নিজের জনেদের মধ্যে থেকেও অনেক কাল-ই তিনি তাঁদের চলমান, ঘটমান জীবন প্রবাহ হতে বিচ্ছিন্ন। তাঁর মত, তাঁর বয়সীরা আরও অনেকই। সেখানে সেটাই রীতি।


বিচ্ছিন্ন ঘটনাবলী

অতিথি লেখক এর ছবি
লিখেছেন অতিথি লেখক (তারিখ: বিষ্যুদ, ০৭/০৫/২০১৫ - ৯:৩৩অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

বাসায় নারী জাগরণের ভুতটা প্রথম আনলো মা।


সচলে অচলদের গল্প

প্রৌঢ় ভাবনা এর ছবি
লিখেছেন প্রৌঢ় ভাবনা [অতিথি] (তারিখ: বুধ, ০৬/০৫/২০১৫ - ৪:২৩অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

অক্ষমের অপারগতার স্বীকারোক্তি:

এই লেখাটা ঠিক নারী সপ্তাহ কে উদ্দেশ করেই নয়। সচলে বাল্যবিবাহঃ বাবামায়েরা কি জানেন তারা কী করছেন? লেখাটি পড়ে মনে এলো, এই ধরণের ঘটনা যে সকল কিশোরীর জীবনে ঘটেছে অথচ যারা লিখতে-পড়তে জানেনা, এরকম কত-শত কিশোরী/বালিকার মনঃপীড়ার কথা আমরা কোনদিনই জানবোনা।

আমার দেখা/জানা এমনই এক কিশোরীর জীবনের কিছু কথা:


ঘটনাক্রম ৭১: আরশ আলী’র রক্তে রাঙ্গা ‘বাইব্‌না’

অতিথি লেখক এর ছবি
লিখেছেন অতিথি লেখক (তারিখ: সোম, ০৪/০৫/২০১৫ - ৪:১০অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

[ব্রজগোপাল সরকার একজন মুক্তিযোদ্ধা। ব্রজগোপাল সরকার ৫ নম্বর সেক্টরে ৫ নম্বর সাব-সেক্টরের অধীনে যুদ্ধ করেছিলেন। মাত্র ১৭ বছর বয়সে নিজের নিরাপদ অবস্থান কে উপেক্ষা করে বাবা-মা ও অন্যান্য ঘনিষ্ঠদের থেকে পালিয়ে চলে যান মুক্তিযুদ্ধের সম্মুখ সমরে। উনার গৌরবময় যুদ্ধজীবনের কিছু ঘটনা প্রকাশ করলাম আজ। ঘটনার প্রতিটি শব্দ ব্রজগোপাল সরকার এর; আমি শুধুমাত্র লিপিকার এর দায়িত্বে। সম্পর্কে তিনি আমার পিতা।]


পুঞ্জীভূত ঘটনাপুঞ্জ

অতিথি লেখক এর ছবি
লিখেছেন অতিথি লেখক (তারিখ: সোম, ০৪/০৫/২০১৫ - ২:৫৯অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

ঘটনা ১-
ছোটবেলায় আব্বুর সাথে বাজারে যেতে বেশ ভালোবাসতাম। বাজারে গিয়ে বিবেচকের মতো সবজি পরখ করে দেখতাম। একবার টিপে টমেটো গেলে ফেলাতে ঐ মাতুব্বরিতে ভাঁটা পরে।


আত্মকথা

অতিথি লেখক এর ছবি
লিখেছেন অতিথি লেখক (তারিখ: রবি, ০৩/০৫/২০১৫ - ৩:০৭অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

একদিন খবর পেলাম ছোট ফুপা মৌলবাদী হয়ে গেছেন। খবরটা শুনে হাসব না কাঁদব বুঝতে পারলাম না। কারণ আমার সেই সুদূর অতীতের কথা মনে পড়ে গেল।


শুভ জন্মদিন হে ভ্রাতুষ্পুত্র

ওডিন এর ছবি
লিখেছেন ওডিন (তারিখ: শনি, ০২/০৫/২০১৫ - ২:১৪অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

অনেক অনেক দিন আগের কথা। তখন আরবের লোকেরা গুহায় বাস করতো, গণি মিয়া ছিলো একজন গরিব কৃষক। সেই প্রাগৈতিহাসিক সময়ে ফেসবুক বলে কোন জিনিস ছিলো না। সেই সময় আমাদের যতরকম গিয়ানজাম করার জায়গা ছিল এই সচলায়তন। হেন কিছু নেই যেইটা নিয়ে আমরা একটা ব্লগ লিখে ফেলতাম না।


মানুষের জয় হোক

বুনোহাঁস এর ছবি
লিখেছেন বুনোহাঁস (তারিখ: রবি, ২৬/০৪/২০১৫ - ২:৩২পূর্বাহ্ন)
ক্যাটেগরি:


"বাবু! বাবু! ওঠো! ভূমিকম্প, বাবু! ওঠো!"
হ্যাঁচকা টানে ঘুম ভেঙে যায়। ঘুটঘুটে অন্ধকার। সে কোথায়, কী করছে মনে করতে পারে না। ঘুম ছুটতে ছুটতে ভাবতে থাকে। রাতে বাবা খেলা দেখছিলো। বাবু আর মা আগে আগে শুয়ে পড়েছিলো। তারপর?